corona virus btn
corona virus btn
Loading

রাজ্যসভায় পেশ তিন তালাক বিল, বিরোধী হট্টগোলে সভা মুলতুবি

রাজ্যসভায় পেশ তিন তালাক বিল, বিরোধী হট্টগোলে সভা মুলতুবি
সম্প্রতি সংসদে পাশ হয়েছে তিন তালাক বিল । নয়া আইন অনুযায়ী মৌখিক বা লিখিত মাধ্যমে তাৎক্ষণিক তিন তালাক এখন ফৌজদারি অপরাধ । এর ফলে ৩ বছর পর্যন্ত জেল হতে পারে অভিযুক্তদের ।

রাজ্যসভায় পেশ তিন তালাক বিল, বিরোধী হট্টগোলে সভা মুলতুবি

  • Share this:

 #নয়াদিল্লি: দলিত বিক্ষোভ নিয়ে বাদানুবাদে তপ্ত রাজ্যসভায় পেশ হল তিন তালাক বিরোধী বিল। বিলের একাধিক বিষয়ে আপত্তি তুলে তা সিলেক্ট কমিটিতে পাঠানোর দাবি তুললেন বিরোধীরা। সরকারপক্ষের পালটা যুক্তি,ওই বিল সংসদীয় কমিটিতে পাঠালে সুপ্রিম কোর্টের দেওয়া সময়সীমা পেরিয়ে যাবে। বিজেপি সাংসদদের আরও অভিযোগ, তিন তালাক বিল নিয়ে দ্বিচারিতা করছে কংগ্রেস। শেষপর্যন্ত বিরোধীদের হট্টগোলে সভা মুলতুবি হয়ে যায়।

আগেই ঠিক ছিল যে বুধবার রাজ্যসভায় পেশ হবে তিন তালাক বিরোধী বিল। কিন্তু মহারাষ্ট্রে দলিত-বিক্ষোভ ইস্যুতে দফায় দফায় মুলতুবি হয় সংসদের দুই কক্ষই। অবশেষে বিকেল তিনটে নাগাদ রাজ্যসভায় তিন তালাক বিরোধী বিল পেশ করেন কেন্দ্রীয় আইনমন্ত্রী রবিশংকর প্রসাদ।

তিন তালাক বিরোধী বিল সিলেক্ট কমিটিতে পাঠানো হোক। এই দাবিতে আগেই একযোগে সোচ্চার হয় বিরোধীরা। কংগ্রেস সাংসদ আনন্দ শর্মা বিলটিকে সিলেক্ট কমিটিতে পাঠানোর দাবি জানানোর পাশাপাশি কমিটির সদস্যদের নামও প্রস্তাব করেন।

বিল সিলেক্ট কমিটিতে পাঠানোর নোটিসের পদ্ধতিগত দিক নিয়ে প্রশ্ন তোলেন রাজ্যসভার নেতা অরুণ জেটলি। সেইসঙ্গে কংগ্রেস সহ বিরোধীদের বিরুদ্ধে বিল নিয়ে দ্বিচারিতার অভিযোগও করেন তিনি।

এই বিল কেন সিলেক্ট কমিটিতে পাঠানো উচিত হবে না তার পক্ষে যুক্তি দিতে গিয়ে সুপ্রিমকোর্টের পর্যবেক্ষণকেই ঢাল করেন জেটলি। তিনি বলেন, শীর্ষ আদালতের রায় অনুযায়ী ছ’মাসের মধ্যে তিন তালাক নিয়ে আইন করতে হবে। আগামী ২২ ফেব্রুয়ারিতে সেই সময়সীমা শেষ হচ্ছে। কিন্তু বিল সিলেক্ট কমিটিতে পাঠানো হলে নির্দিষ্ট সময়ে আইন তৈরি করা সম্ভব হবে না। যদিও সরকারের এই যুক্তি মানতে নারাজ বিরোধীরা। তাদের হট্টগোলে শেষপর্যন্ত সভা মুলতুবি করে দেন সভার চেয়ারম্যান।

First published: January 3, 2018, 5:40 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर