• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • TMC WORKER SERIOUSLY INJURED AFTER ALLEGED ATTACK IN TRIPURA TO BE SHIFTED TO KOLKATA FOR TREATMENT DMG

BJP TMC clash in Tripura: ত্রিপুরায় ফের ধুন্ধুমার, গুরুতর আহত কর্মীকে চিকিৎসার জন্য কলকাতায় আনছে তৃণমূল

প্রতীকী ছবি৷

বাঁধারঘাটে এদিন ছিল একটি যোগদান পর্ব ছিল তৃণমূলের। সেখানেই বিজেপি হামলা চালায় বলে অভিযোগ।

  • Share this:

#আগরতলা: ত্রিপুরায় কর্মসূচি পালন করতে গিয়ে আহত শুভঙ্কর দেবের পাশে তৃণমূল কংগ্রেস৷ আগামিকাল সকালের বিমানে তাঁকে নিয়ে আসা হবে কলকাতায়। কলকাতায় রেখেই চলবে তাঁর চিকিৎসা। আজ ত্রিপুরার বাঁধারঘাটে তৃণমূল কংগ্রেসের একটি যোগদান কর্মসূচি ছিল। সেখানেই হামলা চালানো হয় বলে অভিযোগ করেছে তৃণমূল।

তৃণমূলের অভিযোগ, মইদুল ইসলাম বলে এক কর্মীর বাড়িতে ভাঙচুর চালানো হয়৷ ভেঙে দেওয়া হয় তাঁর হাত। তাঁকে বাঁচাতে গিয়ে আহত হয় শুভঙ্কর। এ দিন আগরতলার মিছিল শেষ করেই ঘটনাস্থলে যান কুণাল ঘোষ ও শান্তনু সেন। পুলিশের উপস্থিতিতেই উদ্ধার করা হয় দু'জনকে। তাঁদের নিয়ে আসা হয় আগরতলা জিবি হাসপাতালে। সেখানেই শুরু হয়েছে চিকিৎসা। তবে শুভঙ্করের আঘাত অনেকটাই বেশি৷ তাই তাঁকে আগামিকাল সকালেই উড়িয়ে নিয়ে আসা হচ্ছে কলকাতায়।

বাঁধারঘাটে এদিন ছিল একটি যোগদান পর্ব ছিল তৃণমূলের। সেখানেই বিজেপি হামলা চালায় বলে অভিযোগ। মইদুলের বাড়িতে গিয়ে দেখা গেল তাঁর গোটা বাড়িটি তছনছ করা হয়েছে। তাঁদের ঘরে ঢুকে ভাঙচুর চালানো হয়েছে । লন্ডভন্ড অবস্থায় পড়ে আছে ঘরের জিনিসপত্র। যোগদান পর্বকে ঘিরে যে আয়োজন হয়েছিল, সেসবও তছনছ করা হয় বলে অভিযোগ ৷ ভাঙা হয় একাধিক চেয়ার, টেবিল।

আহত তৃণমূল কর্মী শুভঙ্কর দেব৷

তৃণমূল কংগ্রেস নেতা সুবল ভৌমিক বলেন, "বাড়ির মহিলাদের উপরেও আক্রমণ করা হয়েছে। মারধর করা হয়েছে। ওরা কাউকে ছাড়ছে না।" এদিন বাঁধারঘাটে যাওয়ার সময় তাঁদের পুলিশ বাধা দিয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন কুণাল ঘোষ ও শান্তনু সেন৷  কুণাল ঘোষ জানিয়েছেন, "যারা অত্যাচার করছে, যারা প্রতিদিন মারধর করছে, আমাদের কর্মীদের ভয় দেখাচ্ছে, তাদের বিরুদ্ধে কোনও ব্যবস্থা নিচ্ছে না পুলিশ। আমাদের শুধু বাধা দেওয়া হচ্ছে। মানুষ এর জবাব দেবে।"

সাংসদ শান্তনু সেন জানিয়েছেন, "আমাদের কর্মীদের প্রতি একের পর এক হামলা হয়ে যাচ্ছে। প্রশাসন চুপ করে বসে আছে।"

ত্রিপুরার ঘটনা নিয়ে এদিন কলকাতা থেকেই সরব হয়েছেন অভিষেক বন্দোপাধ্যায়। তিনি জানিয়েছেন, " ত্রিপুরার মানুষকে আমি বলতে চাই, আমাদের রক্তের শেষ বিন্দু পর্যন্ত তৃণমূল আপনাদের স্বার্তে লড়াই করবে৷ বিজেপি-র যা ক্ষমতা আছে ওরা প্রয়োগ করুক৷ বিজেপি-র বুকের পাটা থাকলে তৃণমূলকে রুখে দেখাক৷ যদি ভেবে থাকেন ইডি, সিবিআই দেখিয়ে তৃণমূলকে ভয় দেখাবেন, তাহলে ভুল করবেন৷  আপনারা যত এসব করবেন তত আমরা দৃঢ়প্রতিজ্ঞ হব৷ নিজেদের লক্ষ্যে পৌঁছতে আরও অঙ্গীকারবদ্ধ হবে৷ "  ত্রিপুরায় দেড় বছরের মধ্যে তৃণমূল ক্ষমতা দখল করবে বলেও দাবি করেন অভিষেক৷ বিজেপি-কে হুঁশিয়ারি দিয়ে তিনি বলেন, 'আজকে আগরতলায় মিছিল হয়েছে৷ মিছিলের মাথা কোথায় আর শেষ কোথায়, দেখে নেবেন৷ একমাসও হয়নি ত্রিপুরায় সংগঠন শুরু হয়েছে৷ মনে রাখবেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এখনও ত্রিপুরায় পা রাখেননি৷ যেদিন যাবেন ত্রিপুরায় ভূমিকম্প হবে৷'

Published by:Debamoy Ghosh
First published: