• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • TMC WILL NOT LET PARLIAMENT FUNCTION ON THE ISSUES OF PEGASUS SB

TMC on Pegasus: জবাব দিন মোদি-শাহ, পেগাসাসে সংসদে সোচ্চার তৃণমূল! অভিনব প্রতিবাদ

সোচ্চার তৃণমূল

TMC on Pegasus: তৃণমূল জানিয়ে দিয়েছেন, পেগাসাস ইস্যুতে যতক্ষণ না পর্যন্ত নরেন্দ্র মোদি, অমিত শাহ মুখ খুলছেন, ততদিন আন্দোলন চলবে।

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: পেগাসাস (Pegasus) ইস্যুতে ফের উত্তপ্ত সংসদের দুই কক্ষ ৷ বৃহস্পতিবার বাদল অধিবেশনের (Monsoon Session) তৃতীয় দিনও বারবার মুলতুবি হয়ে গেল সংসদের দুই কক্ষের অধিবেশন৷ লোকসভা (Loksabha) ও রাজ্যসভা (Rajyasabha), দু’টিই বেলা 12টা পর্যন্ত মুলতুবি করে দেওয়া হয়েছে ৷ এদিন লোকসভায় অধিবেশন শুরু হতেই পেগাসাস ইস্যুতে বিক্ষোভে ফেটে পড়েন বিরোধীরা। নরেন্দ্র মোদির বিবৃতিও দাবি করা হয়। কিন্তু লোকসভার স্পিকার ওম বিড়লা তখন বিরোধীদের উদ্দেশে বলেন, 'সংসদ স্লোগান দেওয়ার জায়গা নয়। বরং নিজের নিজের এলাকার মানুষের সমস্যার কথা তুলে ধরুন। তাতেই গণতন্ত্র মজবুত হবে।' কিন্তু তাতেও নাছোড় বিরোধীরা। এদিন অভিনব কায়দায় সংসদে বিক্ষোভ দেখায় তৃণমূল। সাংসদরা কানে ফোন ধরেছিলেন প্রত্যেকেই, আর তখনই আপত্তি তোলে বিজেপি। সেই প্রক্ষিতেই তৃণমূল অভিযোগ তোলে, 'আমরা যখন কথা বলছি, এভাবেই তাতে আড়ি পাতা হচ্ছে।' তৃণমূলের সেই অভিনব প্রতিবাদ সাড়া ফেলেছে সাংসদে।

    গত সোমবার থেকে শুরু হয়েছে সংসদের বাদল অধিবেশন। কিন্তু অধিবেশন শুরুর ঠিক আগের দিন রবিবার রাতেই শোরগোল ফেলে দেয় পেগাসাস ৷ অভিযোগ, এই ইজরায়েলি সফটওয়্যারের মাধ্যমেই বিরোধী দলনেতা, সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতি, সাংবাদিক, সমাজকর্মীদের ফোনে আড়ি পাতছে কেন্দ্রীয় সরকার ৷ যদিও, এই অভিযোগকে একেবারে নস্যাৎ করে দিয়েছে নরেন্দ্র মোদির সরকার।

    কিন্তু এই ইস্যুতে বিরোধীরা কেন্দ্রকে রেয়াত করতে নারাজ ৷ তাই সোমবার থেকে পেগাসাস নিয়ে যে সুর চড়ানো শুরু করেছিলেন বিরোধীরা, উত্তোরত্তর তা বাড়ছে। সেই সূত্রেই সোমবার থেকে দফায় দফায় অধিবেশন মুলতুবি করতে হয়েছে অধ্যক্ষ লোকসভার অধ্যক্ষ ওম বিড়লা (OM Birla) এবং রাজ্যসভার চেয়ারম্যান তথা উপরাষ্ট্রপতি বেঙ্কাইয়া নায়ডুকে (Vainkaiah Naidu) ৷

    এদিনও অধিবেশনের শুরু থেকেই পেগাসাস নিয়ে সুর চড়ায় বিরোধীরা। বিরোধীদের এই বিক্ষোভের জেরে অধিবেশন মুলতুবি করে দিতে হয় ৷ ওয়াকিবহাল মহলের মতে, বিরোধীরা গোলমাল আরও বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে ৷ ইতিমধ্যেই তৃণমূল জানিয়ে দিয়েছেন, পেগাসাস ইস্যুতে যতক্ষণ না পর্যন্ত নরেন্দ্র মোদি, অমিত শাহ মুখ খুলছেন, ততদিন আন্দোলন চলবে।

    তবে শুধু সংসদ নয়, সংসদের বাইরেও বিরোধীরা পেগাসাস ইস্যুতে সোচ্চার হয়েছেন৷ সরব হয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও (Mamata Banerjee) ৷ গতকাল, বুধবার ছিল তৃণমূল কংগ্রেসের (Trinamool Congress) শহিদ দিবস ৷ সেই অনুষ্ঠানের মঞ্চ থেকেও মমতা পেগাসাস ইস্যুতে কেন্দ্রীয় সরকারের এবং বিজেপির (BJP) কড়া সমালোচনা করেছেন ৷

    এদিকে, পেগসাস ইস্যুতে সংসদে লাগাতার প্রতিবাদ চালিয়ে যাওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। আজ রাজ্যসভার সাংসদ সুখেন্দু শেখর রায়ের বাড়িতে সমস্ত সাংসদদের সঙ্গে বৈঠক করেন অভিষেক। ফুল দিয়ে সাংসদরা অভিনন্দন জানান তাঁকে। বৈঠকে প্রশান্ত কিশোরও ঊপস্থিত ছিলেন। পেগসাস ইস্যুতে ৯ প্রশ্ন রয়েছে তৃণমূলের আর প্রতিদিন সেই প্রশ্ন সামনে রেখে জবাব চাইতে হবে বলে সাংসদদের নির্দেশ দিয়েছেন অভিষেক। সংসদের দুই কক্ষে এই প্রতিবাদ অন্য রাজনৈতিক দলকে সঙ্গে নিয়ে করার নির্দেশও দেওয়া হয়েছে ।

    Published by:Suman Biswas
    First published: