হোম /খবর /দেশ /
বাল্যবিবাহ বন্ধে হেঁটে দিল্লি পাড়ি দিয়েছেন বাঙালি শিক্ষক

Child marriage: বাল্যবিবাহ বন্ধে হেঁটে দিল্লি পাড়ি দিয়েছেন বাঙালি শিক্ষক

দিল্লিতে দেবাশিস মুখোপাধ্যায়৷

দিল্লিতে দেবাশিস মুখোপাধ্যায়৷

টানা ৩২ দিন হেঁটে রাজধানী দিল্লিতে পৌঁছেছেন দেবাশিস মুখার্জি। বাল্য বিবাহ, শিশুদের ওপর যৌন হেনস্থা নিয়েও প্রচার চালিয়ে যাচ্ছন তিনি। ডেঙ্গি, করোনা অতিমারী নিয়ে কলকাতা, বর্ধমান, হুগলি সহ রাজ্যের বিভিন্ন জেলাতেও প্রচার চালিয়ে যান দেবাশিস মুখার্জি। রাজ্য ও দেশের বিভিন্ন জায়গায় এই ধরণের সামাজিক ব্যধিগুলির বিরুদ্ধে প্রচার চালান তিনি।

আরও পড়ুন...
  • Share this:

নয়াদিল্লি: বাল্যবিবাহ বন্ধ করতে দেশব্যাপী প্রচারে নেমেছেন বহুরূপী 'গোলাপসুন্দরী' শিক্ষক। টানা ৩২ দিন হেঁটে রাজধানী দিল্লিতে পৌঁছেছেন দেবাশিস মুখোপাধ্যায়। বাল্য বিবাহ, শিশুদের উপরে যৌন হেনস্থা নিয়েও প্রচার চালিয়ে যাচ্ছন তিনি। ডেঙ্গি, করোনা অতিমারী নিয়ে কলকাতা, বর্ধমান, হুগলি সহ রাজ্যের বিভিন্ন জেলাতেও প্রচার চালিয়ে যান দেবাশিস মুখোপাধ্যায়। রাজ্য ও দেশের বিভিন্ন জায়গায় এই ধরনের সামাজিক ব্যাধিগুলির বিরুদ্ধে প্রচার চালান তিনি।

বছর চারেক ধরে এই প্রচারাভিযান চালিয়ে যাচ্ছেন দেবাশিস মুখোপাধ্যায়। দিল্লির ওয়েস্টার্ন কোর্টে রয়েছেন তিনি। পেশায় হুগলির খানাকুলের প্রাথমিক স্কুলের শিক্ষক। ২২ বছর ধরে প্রাথমিক স্কুলে শিক্ষককতা করছেন তিনি। রাজ্যের সেফ ড্রাইভ সেভ লাইফ, কন্যাশ্রীর মতো প্রকল্পগুলি নিয়েও প্রচার চালিয়ে যাচ্ছেন। গতকাল বুধবার দুপুরে দিল্লিতে পৌঁছন তিনি। দিল্লি পৌঁছে বুধবারই সংসদ ভবনে তাঁকে নিয়ে যান আরামবাগের সাংসদ অপরূপা পোদ্দার।

আরও পড়ুন: 'নেহরু পদবি ব্যবহার করতে কিসের ভয়? কিসের লজ্জা?' রাজ্যসভায় দাঁড়িয়ে গান্ধি পরিবারকে খোঁচা নরেন্দ্র মোদির

সংসদ ভবনে সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যা, শান্তনু সেন, মালা রায়ের সঙ্গে দেখা করেন দেবাশিস মুখোপাধ্যায়। বৃহস্পতিবার পুরনো কেল্লা, লালকেল্লা, ইন্ডিয়া গেটে গলায় পোস্টার ঝুলিয়ে বাল্যবিবাহ রোধে প্রচার করেন তিনি। ৮ জানুয়ারি রাজা রামমোহন রায়ের জন্মভিটে হুগলির নাঙুলপাড়ায় সতীদাহ বেদি থেকে প্রচার শুরু করেন। ৩২ দিন পর ৮ ফেব্রুয়ারি দিল্লি পৌঁছন দেবাশিস মুখোপাধ্যায়।

আরও পড়ুন: বিরোধীদের স্লোগান ‘মোদি-আদানি, ভাই-ভাই’, বক্তৃতায় তবু ঝাঁঝাল আক্রমণ শানালেন নরেন্দ্র মোদি

তিনি বলেন, "দিল্লি আসার পথে অসংখ্য মানুষের সঙ্গে দেখা হয়েছে। অনেক মানুষের সঙ্গে কথা হয়েছে। বেশিরভাগ লোকই আমায় সমর্থন করেছেন। আমার উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়েছেন অনেকেই।" আসার পথে বারাণসী, এলাবাদ, বিহারের পটনার মতো শহরের উপর দিয়ে এসেছেন তিনি। সেই সমস্ত শহরের মানুষের মধ্যে বাল্য বিবাহ, শিশুদের ওপর যৌন হেনস্থা নিয়ে প্রচার করেছেন দেবাশিস মুখোপাধ্যায়। দিল্লিতে প্রধানমন্ত্রী, রাষ্ট্রপতির সঙ্গে দেখা করতে চান দেবাশিস মুখোপাধ্যায়।

যদিও এখনও পর্যন্ত কোনও তরফেই আশ্বাস মেলেনি। শনিবার বাড়ি ফিরবেন তিনি। তবে শারিরীক ক্লান্তির কারণে ট্রেনে বাড়ি ফিরতে চান দেবাশিস মুখার্জি।

Published by:Debamoy Ghosh
First published:

Tags: Teacher