corona virus btn
corona virus btn
Loading

সুরাত অগ্নিকাণ্ড: ‘বাঁচতে হলে আমাকে তিনতলা থেকে ঝাঁপ দিতেই হবে’

সুরাত অগ্নিকাণ্ড: ‘বাঁচতে হলে আমাকে তিনতলা থেকে ঝাঁপ দিতেই হবে’
  • Share this:

#সুরাত: সুরাত কোচিং সেন্টার অগ্নিকাণ্ডে ১৬ জন কিশোরী সহ ২০ জন পড়ুয়ার মৃত্যু ৷ এরা সকলেই ওই অভিশপ্ত বাণিজ্যিক বহুতলের দোতলার ওই কোচিং সেন্টারের পড়ুয়া ৷ প্রাণ বাঁচাতে বহুতল থেকে মরণঝাঁপ দেয় অন্তত দশজন পড়ুয়া। প্রাণে বেঁচেছেন মোটে একজন ৷ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন সেই পড়ুয়া জ্ঞান ফিরে আসার পর জানিয়েছে অগ্নিকুন্ড থেকে বেঁচে ফেরার সেই ভয়াবহ অভিজ্ঞতা ৷

‘বুঝতে পেরেছিলাম এখানে দাঁড়িয়ে থাকলে আমি ধোঁয়ায় দমবন্ধ হয়ে মারা যাব ৷ তাই বন্ধুদের ছেড়ে তিন তলা থেকে ঝাঁপ দিলাম ৷ মাটিতে পড়ে খুব জোর লাগে, তারপর আর কিছু মনে নেই ৷ যখন জ্ঞান ফুরল দেখলাম আমি এখানে শুয়ে ৷’ একটুর জন্য যমের হাত থেকে বেঁচে ফিরেছে রুশিত বেকারিয়া ৷ হাসপাতালের বেডে শুয়ে সে জানাল সেই ভয়াল অভিজ্ঞতার কথা ৷

সুরাতের সরথানায় এলাকায় তক্ষশীলা আর্কেড নামে বহুতল। এই বহুতলেই আচমকা ভয়াবহ আগুন লেগে যায়। ধোঁয়ায় ঢেকে যায় চারপাশ। তক্ষশীলা আর্কেডের তিনতলায় একটি কোচিং সেন্টার আছে। সেখানেই পড়তে গিয়েছিলেন ছাত্রছাত্রীরা। হঠাৎই আগুন। প্রাণ বাঁচাতে হুড়োহুড়ি পড়ে যায়। বহুতল থেকে ঝাঁপ দেয় অন্তত দশজন পড়ুয়া। ঘটনাস্থলেই মারা যায় কয়েকজন। পৌঁছয় ১৮টি ইঞ্জিন। হাসপাতাল থেকে বিল্ডিংয়ের সামনে যায় এমারজেন্সি ভ্যান। গুরুতর জখমদের স্থানীয় হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানেও কয়েকজনের মৃত্যু হয়। মৃতদের মধ্যে বেশিরভাগই পড়ুয়া। কীভাবে আগুন লাগল তার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

ঘটনায় শোকপ্রকাশ করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। গুজরাত প্রশাসনকে ব্যবস্থা নিতে বলেছেন তিনি। শোকপ্রকাশ করে টুইট করেছেন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধিও। তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন গুজরাতের মুখ্যমন্ত্রী বিজয় রূপানি। মৃতদের পরিবারকে চার লক্ষ টাকা করে আর্থিক সাহায্য করার প্রতিশ্রুতিও দিয়েছেন তিনি। মুখ্যমন্ত্রীকে সবরকম সাহায্যের আশ্বাস দিয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী জে পি নাড্ডাও। দিল্লিতে এইমসের চিকিৎসকদের তৈরি থাকতে বলা হয়েছে। বিজেপি সাংসদ সিআর পটেল জানিয়েছেন, অগ্নিকাণ্ডের পিছনে কোনও গাফিলতি আছে কি না তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। গাফিলতি প্রমাণে নেওয়া হবে ব্যবস্থা।

First published: May 25, 2019, 1:14 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर