corona virus btn
corona virus btn
Loading

মহারাষ্ট্রে সরকারি চাকরি-শিক্ষায় এখনই নয় মারাঠাদের সংরক্ষণ, স্থগিতাদেশ সুপ্রিম কোর্টের

মহারাষ্ট্রে সরকারি চাকরি-শিক্ষায় এখনই নয় মারাঠাদের সংরক্ষণ, স্থগিতাদেশ সুপ্রিম কোর্টের
Supreme Court

২০১৮ সালের ২৯ নভেম্বর সর্বসম্মতিক্রমে মহারাষ্ট্রের বিধানসভায় পাশ হয় মারাঠা সংরক্ষণ বিল।

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: মহারাষ্ট্রে সরকারি চাকরি ও শিক্ষায় মারাঠা সম্প্রদায়ের সংরক্ষণের দাবিতে ২০১৮ সালের জুলাই নাগাদ উত্তপ্ত হয়েছিল মুম্বই সহ তামাম মহারাষ্ট্র৷ একাধিক আন্দোলনকারী আত্মহত্যা করেছিলেন৷ আগুন জ্বলেছিল গোটা রাজ্যে৷ মারাঠাদের জন্য বিশেষ সরকারি সংরক্ষণ আইনে স্থগিতাদেশ দিল সুপ্রিম কোর্ট৷

বুধবার সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতি এলএন রাওয়ের নেতৃত্বে বেঞ্চ এই মামলায় অন্তর্বর্তীকালীন রায়ে জানান, মারাঠাদের সংরক্ষণের বিষয়ে মহারাষ্ট্র সরকারের আইনে আপাতত স্থগিতাদেশ থাকছে৷ মামলাটি ৫ বা তার বেশি সদস্যের বৃহত্তর বেঞ্চে পাঠানো হল৷

সুপ্রিম কোর্টের এ দিনের রায়ের নির্যাস, যত দিন না শীর্ষ আদালতের বৃহত্তর বেঞ্চে মামলার নিষ্পত্তি হচ্ছে, ততদিন মহারাষ্ট্রে সরকারি চাকরি ও শিক্ষায় বিশেষ সংরক্ষণ পাবে না মারাঠা সম্প্রদায়৷ মহারাষ্ট্র সরকারও আদালতকে জানিয়ে দেয়, এই সংরক্ষণের আওতায় কোনও নিয়োগ করা আপাতত হবে না৷

২০১৮ সালের ২৯ নভেম্বর সর্বসম্মতিক্রমে মহারাষ্ট্রের বিধানসভায় পাশ হয় মারাঠা সংরক্ষণ বিল। বিলটিতে মারাঠাদের সরকারি চাকরি এবং সরকারি প্রতিষ্ঠানে ভর্তি হওয়ার জন্য ১৬ শতাংশ সংরক্ষণ দেওয়া হয়। মহারাষ্ট্রে তফশিলি জাতি, তফশিলি উপজাতি এবং অনগ্রসর শ্রেণির মানুষদের জন্য ৫২ শতাংশ সংরক্ষণ ছিলই। মারাঠাদের ১৬ শতাংশ সংরক্ষণ দেওয়ার ফলে সব মিলিয়ে সংরক্ষণের শতাংশ বেড়ে দাঁড়ায় ৬৮।

কোনও বিতর্ক ছাড়াই এদিন বিলটি পাশ হয়ে যায়। অনগ্রসর কমিশনের রিপোর্টের ভিত্তিতে মারাঠা সংরক্ষণ বিলটি বিধানসভায় পেশ করে রাজ্য সরকার। সংবিধানের ১৫(৪)(৫) এবং ১৬(৪) অনুচ্ছেদ আইনের মাধ্যমে বিলটি পেশ করা হয়।

Published by: Arindam Gupta
First published: September 9, 2020, 5:10 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर