• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • SUPREME COURT ON MIGRANT WORKERS COURT DIRECTS TO REGISTER ONE RATION ONE NATION SCHEME SANJ

Supreme Court On Migrant Workers : 'পরিযায়ী' প্রশ্নে কেন্দ্রকে ভর্ৎসনা সুপ্রিম কোর্টের! 'অযথা বিলম্বে' ক্ষোভপ্রকাশ...

পরিযায়ীদের পাশে শীর্ষ আদালত ছবি: প্রতীকী

'পরিযায়ী শ্রমিকদের (Migrant Workers) জন্য রাজ্যগুলির উচিত ‘‌কমিউনিটি কিচেন’‌ (Community Kitchen) তৈরি করা। পরিযায়ী শ্রমিকদের (Migrant Workers) শুকনো খাবার বিতরণ করার বন্দোবস্ত করুক রাজ্যগুলি (State Govt)।'

  • Share this:

#নয়াদিল্লি : 'আগামী ৩১শে জুলাইয়ের মধ্যে সব রাজ্যকে জাতীয় খাদ্য সুরক্ষা (Nationa Food Security Mission) মিশনের অধীনে 'এক দেশ এক রেশন' (One Nation One Ration) প্রকল্প চালু করতে হবে। এই সময়ের মধ্যেই পরিযায়ী শ্রমিকদের (Migrant Workers) পূর্ণাঙ্গ তালিকা তৈরি করতে হবে রাজ্যগুলিকে।' মঙ্গলবার এমনই নির্দেশ দিল শীর্ষ আদালত (Supreme Court)। শুধু তাই নয়, কেন্দ্রীয় সরকারকে (PM Narendra Modi Govt) এই সময়ে রাজ্যগুলোকে অতিরিক্ত খাদ্যদ্রব্য সরবরাহ করা উচিত বলেও পর্যবেক্ষণে জানিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট (Supreme Court)।

এদিনের নির্দেশে বলা হয়েছে, 'পরিযায়ী শ্রমিকদের (Migrant Workers) জন্য রাজ্যগুলির উচিত ‘‌কমিউনিটি কিচেন’‌ (Community Kitchen) তৈরি করা। পরিযায়ী শ্রমিকদের  (Migrant Workers)  শুকনো খাবার বিতরণ করার বন্দোবস্ত করুক রাজ্যগুলি (State Govt)।' উল্লেখ্য, এই প্রসঙ্গে আদালত এদিন কেন্দ্রীয় শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রকের ভূমিকা নিয়ে ক্ষোভ উগরে দিয়েছে। আদালত স্পষ্ট বলেছে, 'পরিযায়ী শ্রমিকদের বিষয়ে কেন্দ্রীয় শ্রম মন্ত্রকের মনোভাব মোটেই গ্রহণযোগ্য নয়।'

পরিযায়ী শ্রমিক বিষয়ক এক মামলায়, মঙ্গলবার বিচারপতি অশোক ভূষণ ও বিচারপতি এম আর শাহর বেঞ্চ এই নির্দেশ দিয়েছে। নির্দেশ দিতে গিয়ে বিচারপতি ভূষণ বলেছেন, ‘‌‘‌অসংগঠিত শ্রমিকদের তালিকা তৈরিতে কেন্দ্রীয় সরকারের এই অযথা বিলম্ব থেকে স্পষ্ট যে, সরকার বিষয়টি নিয়ে মোটেই চিন্তিত নয়। যা নিন্দনীয়।’‌’‌ বিচারপতিরা নির্দেশে জানিয়েছেন, ‘‌‘‌অসংগঠিত ক্ষেত্রের শ্রমিক ও পরিযায়ী শ্রমিকদের পঞ্জিকরণের জন্য অবিলম্বে দেশব্যাপী একটি পোর্টাল তৈরি করতে হবে কেন্দ্রীয় সরকারকে। ৩১ জুলাইয়ের মধ্যেই এই প্রক্রিয়া শুরু করতে হবে।’‌’‌

সর্বোচ্চ আদালত এদিন কেন্দ্র ও রাজ্য সরকারের উদ্দেশ্যে নির্দেশ দিয়ে জানিয়েছে, পরিযায়ী শ্রমিকদের জন্য আগামী ৩১ জুলাইয়ের মধ্যে সব রাজ্যকে ‘‌এক দেশ এক রেশন’‌ প্রকল্প চালু করতেই হবে। এছাড়াও রাজ্যগুলিকে করোনা বিপর্যয় শেষ না হওয়া পর্যন্ত পরিযায়ী শ্রমিকদের জন্য ‘‌কমিউনিটি কিচেন’‌ চালু করতে হবে। অর্থাৎ, আগামী ৩১ জুলাইয়ের মধ্যেই কেন্দ্রীয় সরকারকে জাতীয় স্তরে পরিযায়ী শ্রমিকদের নাম পঞ্জিকরনের বন্দোবস্ত করতে হবে। আদালতের আরও নির্দেশ, করোনাকালে কেন্দ্রীয় সরকারকে রাজ্যকে আরও বেশি খাদ্যদ্রব্য সরবরাহ করতে হবে। উল্লেখ্য, এর আগে গত ২৪ মে পরিযায়ী শ্রমিকদের নাম পঞ্জিকরণ প্রক্রিয়া নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেছিল আদালত।

Published by:Sanjukta Sarkar
First published: