করোনা ভাইরাসের নতুন স্ট্রেন নিয়ে সামনে এল নয়া তথ্য...

করোনা ভাইরাসের নতুন স্ট্রেন নিয়ে সামনে এল নয়া তথ্য...

এই স্টাডিতে ৩৬০০ জন সামিল ছিলেন ৷ রোগীদের দুটি ভাগে ভাগ করা হয়েছিল ৷

এই স্টাডিতে ৩৬০০ জন সামিল ছিলেন ৷ রোগীদের দুটি ভাগে ভাগ করা হয়েছিল ৷

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: করোনা ভাইরাসের নতুন স্ট্রেন ইতিমধ্যেই ভারতে ঢুকে গিয়েছে ৷ একাধিক রাজ্যে বেশ কয়েকজনের শরীরে এই সংক্রমণ পাওয়া গিয়েছে ৷ তবে ব্রিটেনের পাবলিক হেলথ সংস্থার স্টাডিতে (Corona Virus Study) নতুন স্ট্রেন নিয়ে বিশেষ চিন্তা করার কারণ নেই বলে জানিয়েছে ৷ স্টাডিতে জানা গিয়েছে, পুরনো স্ট্রেনের তুলনায় নতুন ভ্যারিয়েন্ট বেশি ঘাতক নয় ৷ তবে এটা আগের তুলনায় বেশি দ্রুত গতিতে ছড়িয়ে পড়ছে ৷ বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন, নতুন স্ট্রেন নিয়ে বেশি ভয় পাওয়ার দরকার নেই ৷

    এই স্টাডিতে ৩৬০০ জন সামিল ছিলেন ৷ রোগীদের দুটি ভাগে ভাগ করা হয়েছিল ৷ একটিতে পুরো ভ্যারিয়েন্টের রোগীরা ছিলেন আর অন্যটিতে নতুন স্ট্রেনে আক্রান্ত ব্যক্তিরা৷ এত জনের মধ্যে কেবল ৪২ জনকে হাসপাতালে ভর্তি করার দরকার পড়েছিল ৷ এই ৪২ জনের মধ্যে পুরনো ভ্যারিয়েন্টের ২৬ জন ছিলেন এবং নতুন স্ট্রেনের ১৬ জন ৷

    জানা গিয়েছে, হাসপাতালে ভর্তি হওয়া রোগীদের মধ্যে ২২ জনের মৃত্যু হয়েছিল ৷ এর মধ্যে ১২ জন পুরনো স্ট্রেনে আক্রান্ত ৷ নতুন স্ট্রেনে আক্রান্তদের মধ্যে ১০ জনের মৃত্যুর হয় ৷ অর্থাৎ নতুন স্ট্রেন পুরনোর থেকে কম ঘাতক ৷ তবে এই স্টাডিতে আরও একটি বিষয় সামনে এসেছে ৷ তাতে জানা গিয়েছে, নতুন স্ট্রেনের সংক্রমণ আগের স্ট্রেন থেকে বেশি দ্রুত গতিতে ছড়িয়ে পড়ছে ৷

    বিশেষজ্ঞদের মতে প্যানিক করা উচিৎ নয় ৷ তবে অবশ্যই কোভিড নিয়ম মেনে চলা উছিৎ ৷ ভারতে শীঘ্রই টীকাকরণের প্রক্রিয়া চালু হয়ে যাবে ৷ সকলকে সাবধানতা মেনে চলতে হবে ৷

    Published by:Dolon Chattopadhyay
    First published: