লটারি বিক্রি করতে করতে 'লটারি' পেলেন শিলিগুড়ির দৃষ্টিহীন দম্পতি

লটারি বিক্রি করতে করতে 'লটারি'

লটারি বিক্রি করতে করতে 'লটারি'

  • Share this:

#শিলিগুড়ি: ওঁরা জন্ম থেকেই দৃষ্টিহীন, শিলিগুড়ির মাটিগাড়ার হিমুলের কাছে বাড়ি। সেখান থেকেই দৃষ্টিহীন দম্পতি প্রতিদিন লটারি বিক্রি করতে অনেকটা দূরে বাগডোগরায় যেতেন দু'দুবার অটো পালটে। দিনান্তে আয় হত ৬০ থেকে ৭০ টাকা। তাই দিয়েই কোনওক্রমে চলত  সংসার। দম্প্তির  দুই সন্তানও রয়েছে। বছর দুয়েক আগে বিষয়টি নজরে আসে বাগডোগরার স্মাইল গ্রুপ ওয়েলফেয়ারের সদস্যদের। দম্পতির প্রতিদিন লটারি বিক্রি করতে বাড়ি থেকে অনেকটা দূরে যাতায়াত ঝুঁকিপূর্ণ বলে মনে করেন তাঁরা, আর তাই স্থায়ী সমাধানের পরিকল্পনা নেন।

যেমন ভাবনা, তেমনি কাজ। দম্পতির বাড়ির কাছেই মাটিগাড়া বাস স্ট্যাণ্ডে দৃষ্টিহীন দম্পতির জন্যে স্টল তৈরি করে দেয় স্মাইল গ্রুপের সদস্যরা। পুজার সময় থেকেই ভাবনাটা শুরু। নিত্যপ্রয়োজনীয় সবকিছুই  থাকছে এই স্টলে। নানা প্রকারের বিস্কুট থেকে চকোলেট। পানীয় জল থেকে মুখরোচক খাবারের প্যাকেট। সঙ্গে কোভিডকালে বাড়তি সংযোজন মাস্ক! সবই মিলবে ওদের স্টলে। সংগঠনের সদস্য এবং সদস্যাদের মিলিত প্রয়াসে তৈরি করা হয় স্টল। সাজিয়েও তোলা হয়। প্রয়োজনীয় সামগ্রী কিনে স্টলে তুলে দেওয়া হয়। এর মধ্য দিয়ে দৃষ্টিহীন দম্পতির আয়ের অঙ্ক যেমন বাড়বে তেমনি হেঁটে হেঁটে আর লটারি বিক্রিও করতে হবে না।

স্মাইল গ্রুপ ওয়েলফেয়ারের অন্যতম সদস্য সব্যসাচী দে জানান, ''শুভানুধ্যায়ীরা  সকলে এগিয়ে আসায় কাজটা সহজ হয়েছে।'' খুশি দৃষ্টিহীন দম্পতি! লটারি বিক্তি করতে করতে তাঁরা যেন 'লটারি' পেলেন!

PARTHA PRATIM SARKAR

Published by:Rukmini Mazumder
First published: