• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • তিন তালাক কি ইসলামের অবিচ্ছেদ্য মৌলিক অধিকার? খতিয়ে দেখবে সুপ্রিম কোর্ট

তিন তালাক কি ইসলামের অবিচ্ছেদ্য মৌলিক অধিকার? খতিয়ে দেখবে সুপ্রিম কোর্ট

ইসলাম ধর্মের সঙ্গে তিন তালাকের কোনও মৌলিক সম্পর্ক আছে কিনা তা খতিয়ে দেখবেন প্রধান বিচারপতি সহ পাঁচ সদস্যের সাংবিধানিক বেঞ্চ।

ইসলাম ধর্মের সঙ্গে তিন তালাকের কোনও মৌলিক সম্পর্ক আছে কিনা তা খতিয়ে দেখবেন প্রধান বিচারপতি সহ পাঁচ সদস্যের সাংবিধানিক বেঞ্চ।

ইসলাম ধর্মের সঙ্গে তিন তালাকের কোনও মৌলিক সম্পর্ক আছে কিনা তা খতিয়ে দেখবেন প্রধান বিচারপতি সহ পাঁচ সদস্যের সাংবিধানিক বেঞ্চ।

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: তিন তালাকের সাংবিধানিক বৈধতা নিয়ে শুনানি শুরু হল সুপ্রিম কোর্টে। ছ’দিনের শুনানি শেষ করে এনিয়ে রায় দেবে শীর্ষ আদালত। তিন তালাক নিয়ে জমা পড়া পাঁচটি পৃথক রিট পিটিশনের ভিত্তিতেই শুরু হল শুনানি। ইসলাম ধর্মের সঙ্গে তিন তালাকের কোনও মৌলিক সম্পর্ক আছে কিনা তা খতিয়ে দেখবেন প্রধান বিচারপতি সহ পাঁচ সদস্যের সাংবিধানিক বেঞ্চ। অল ইন্ডিয়া মুসলিম পার্সোনাল ল’বোর্ড বিবাহ বিচ্ছেদে তিন তালাকের পক্ষেই সওয়াল করেছে।

    প্রধান বিচারপতির নেতৃত্বাধীন বেঞ্চের নির্দেশ, তিন তালাকের সাংবিধানিক বৈধতাই খতিয়ে দেখা হবে। তিন তালাক মানবাধিকার ও সাংবিধানিক অধিকারে বড় আঘাত। প্রথম দিনের শুনানিতেই দুই আবেদনকারীর সঙ্গে সওয়াল অল ইন্ডিয়া মুসলিম পার্সোনাল ল’ বোর্ডেরও। তিন তালাকের বৈধতা নিয়ে শুনানি শুরু সুপ্রিম কোর্টে। দুই আবেদনকারীর আইনজীবী ছাড়াও প্রথম দিনেই সওয়াল করলেন মুসলিম পার্সোনাল ল বোর্ডের আইনজীবী কপিল সিব্বল। সংবিধানের ১৩ নম্বর ধারায় ধর্মীয় আইনকে অন্তর্ভুক্ত করা উচিত। এই দাবি তুলেই সওয়াল অন্যতম আবেদনকারী শবনম বানুর। যার বিরোধিতায় পাল্টা যুক্তি মুসলিম পার্সোনাল ল’বোর্ডের। মামলার আবেদনকারী আইনজীবী এদিন বলেন,  তিন-তালাকের মতো প্রথায় সাংবিধানিক অধিকার থেকে বঞ্চিত মহিলারা। মুসলিম মহিলাদেরও সাংবিধানিক রক্ষাকবচের অধিকার রয়েছে। সেই অধিকার পেতে নির্দেশ দিক আদালত। এআইএমপিএলবি আইনজীবি  কপিল সিবালের যুক্তি, এটা আদালতের বিবেচ্য বিষয়ই নয়। সংবিধান কখনই ধর্মীয় আইনকে অবৈধ ঘোষণা করেনি। ধর্মীয় আইনের সঙ্গে সাংবিধানিক অধিকারের কোনও লড়াই থাকতে পারে না। তিন তালাকের অবসান চেয়ে আবেদন করেছিলেন মুসলিম মহিলা ও মানবাধিকার সংগঠন। এমনই ৫টি আবেদনের ভিত্তিতেই এই শুনানির সিদ্ধান্ত নেয় সুপ্রিম কোর্ট। ৫ ধর্মের ৫ বিচারপতিকে নিয়ে তৈরি হয় সাংবিধানিক বেঞ্চ। কোন পথে মামলা চলবে তাও স্পষ্ট করে দেয় আদালত। -বহুবিবাহ নিয়ে কোনও বক্তব্যই শুনবে না আদালত -তিন তালাকের সাংবিধানিক বৈধতাই খতিয়ে দেখা হবে -তিন তালাকে সংবিধানের ২৫(১) ধারা ক্ষুণ্য হয় কিনা, তাও খতিয়ে দেখবে আদালত -মানবাধিকার লঙ্ঘনের অভিযোগও বিবেচনা করবে সাংবিধানিক বেঞ্চ -৬ দিন শুনানির পরই মামলার রায় -প্রয়োজনে শনি-রবিবারও শুনানি হবে মুসলিম পার্সোনাল ল বোর্ড ছাড়াও তিন তালাকের পক্ষে সওয়াল করতে আদালতে ১৭টি আবেদন জমা পড়েছে। শুক্রবার এনিয়ে সিদ্ধান্ত নেবে শীর্ষ আদালত।

    First published: