corona virus btn
corona virus btn
Loading

Bengaluru: ৩ হাসপাতালের দরজায় ধাক্কা খেয়ে অটোতেই হয়ে গেল প্রসব, বাঁচল না সদ্যোজাত!

Bengaluru: ৩ হাসপাতালের দরজায় ধাক্কা খেয়ে অটোতেই হয়ে গেল প্রসব, বাঁচল না সদ্যোজাত!
প্রতীকী চিত্র ।

হাসপাতালের সামনে দাঁড়িয়েই অটোর মধ্যে প্রসব হয়ে যায় তরুণীটির । তবু এগিয়ে এল না কেউ । চিকিৎসা না পেয়ে মৃত্যু হল সদ্যোজাতের ।

  • Share this:

#বেঙ্গালুরু: এই কোভিড পরিস্থিতি যেন মানুষের সাধারণ মনুষ্যত্বটুকুকেও মুছে ফেলছে মাঝেমধ্যে । কখনও করোনা যোদ্ধাদের অপমান, কখনও আবার প্রিয়জনকে ফেলে চলে যাওয়া, কখনও হাসপাতালে ভর্তি না নেওয়া, কখনও সুযোগ বুঝে চড়া দামে কোপ মারা । গোটা দেশ জুড়েই এমন একাধিক খবর উঠে আসছে চোখের সামনে ।

এ বার ঘটনাস্থল বেঙ্গালুরু । তিন হাসপাতালের দরজায় কাতর অনুনয়, বিনয়, অনুরোধ । কিন্তু মন গলল না কর্তৃপক্ষের । পৃথিবীর আলো ভাল করে দেখার আগেই চিরতরে নিভে গেল একটা প্রাণ । জানা গিয়েছে, গতকাল, সোমবার রাত তিনটের সময় প্রবল প্রসব বেদনা ওঠে ওই তরুণীর । অ্যাম্বুল্যান্স না পেয়ে একটি অটোতে তরুণীকে নিয়ে হাসপাতালের দিকে ছোটেন তাঁর পরিজনরা । কিন্তু বেড নেই বলে ফিরতে হয় শ্রীরামপুরা সরকারি হাসপাতাল ও ভিক্টোরিয়া হাসপাতাল থেকে । এরপর তাঁকে নিয়ে যাওয়া হয় কেসি হাসপাতালে । সেখানেও মুখের উপর দরজা বন্ধ করে দেওয়া হয় । সেই হাসপাতালের সামনে দাঁড়িয়ে যখন অটোটি, তখন অটোর মধ্যেই প্রসব হয়ে যায় ওই তরুণীর । তবু হাসপাতাল থেকে মেলেনি কোনও সাহায্য ।

চিকিৎসা না পেয়ে কিছুক্ষণের মধ্যেই মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়ে সদ্যোজাত । ঘটনায় ক্ষোভের আগুন জ্বলেছে বেঙ্গালুরুতে। মুখ্যমন্ত্রীর দফতর থেকে ট্যুইট করে জানানো হয়েছে, এত বড় শহরে একটি হাসপাতালেও জায়গা হল না তরুণীর! বিনা চিকিৎসা একজন মা তাঁর সদ্যোজাত সন্তানকে হারালেন। অত্যন্ত লজ্জাজনক ঘটনা। মুখ্যমন্ত্রী বিএস ইয়েদুরাপ্পা বলেছেন, যে হাসপাতালগুলি পরিষেবা দিতে রাজি হয়নি, তাদের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Published by: Simli Raha
First published: July 21, 2020, 1:18 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर