বিদেশ সফরে খরচ কমাতে এয়ারপোর্ট টার্মিনালেই স্নান সারেন মোদি: অমিত শাহ

বিদেশ সফরে খরচ কমাতে এয়ারপোর্ট টার্মিনালেই স্নান সারেন মোদি: অমিত শাহ
প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি
  • Share this:

#নয়াদিল্লি: বিদেশ সফরে খরচে কাটছাঁটেই সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব দিচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি৷ লোকসভায় জানালেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ৷ বিদেশ সফর চলাকালীন বিমানে জ্বালানি ভরার জন্য কোনও বিমানবন্দরে থামতে হলে, সাধারণ ভাবে বিশ্রাম নিচ্ছেন মোদি ও এয়ারপোর্ট টার্মিনালেই স্নান সেরে নিচ্ছেন৷ রাতভর লাক্সারি ৫ তারা হোটেলে কাটাচ্ছেন না বলে জানালেন অমিত শাহ৷

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর বক্তব্য, বিদেশ সফরে অন্যান্য প্রধানমন্ত্রী ও তাঁর প্রতিনিধিদল টেকনিক্যাল হল্টের সময় ৫ তারা হোটেলে লাক্সারি ভাবে রাত কাটান৷ কিন্তু প্রধানমন্ত্রী মোদি খরচ কমাতে সেই সব বিলাসিতা করেন না৷ শাহর কথায়, 'ব্যক্তিগত জীবন ও হোক বা সরকারি কাজ, মোদিজি খুবই শৃঙ্খলাপরায়ন জীবনযাপন করেন৷ বিদেশে গেলে সঙ্গে ২০ শতাংশ স্টাফ কম নিয়ে যান৷ অফিসিয়াল ডেলিগেশনদের ক্ষেত্রেও প্রচুর সংখ্যায় গাড়ি ব্যবহারে বিরত থাকেন৷ আগে অফিসাররা পৃথক গাড়ি ব্যবহার করতেন৷ এখন তাঁরা বাস বা বড় একটি গাড়ি ব্যবহার করেন৷'

লোকসভায় স্পেশাল প্রোটেকশন গ্রুপ (সংশোধনী) বিল ২০১৯ নিয়ে বিতর্ক চলাকালীন গান্ধি পরিবারকে দুষে অমিত শাহের বক্তব্য, এসপিজি-কে বহুবার গান্ধি পরিবার অপব্যবহার করেছে৷ নিরাপত্তা আইন ভেঙেছে৷ কিন্তু মোদি তা করেননি৷ দীর্ঘ ২০ বছর তিনি রাজ্য নিরাপত্তা পেতেন, কখনও নিরাপত্তার ব্লু বুক নিয়ম ভাঙেননি৷

শাহের কথায়, 'কিছু মানুষের কাছে, নিরাপত্তা স্টেটাস সিম্বল৷ কিন্তু এ বার মোদিজির উদাহরণ অনুসরণ করা যাক৷ যিনি বরাবর নিরাপত্তা নিয়ম ও প্রটোকল মেনে এসেছেন৷' অমিত শাহ যখন এই কথা বলছেন, তখন পাল্টা কংগ্রেস সাংসদ তরুং গগৈ বলে ওঠেন, ২০১৭ সালে গুজরাতে সি-প্লেনে চেপে এসপিজি ব্লু বুকের নিয়ম ভেঙেছিলেন৷ কিন্তু অমিত শাহ তাঁর দাবি অস্বীকার করেন৷ শাহ বলেন, 'ওই সি-প্লেন এসপিজি কম্যান্ডোরা একাধিক বার তল্লাশি করে ক্লিয়ার সার্টিফিকেট দিয়েছিলেন৷ এসপিজি কম্যান্ডোরা ছিলেন সি-প্লেনে৷ গুজরাতের পর্যটনের প্রচারই ছিল সি-প্লেনে চাপার উদ্দেশ্য৷'

স্পেশাল প্রোটেকশন গ্রুপ (সংশোধনী) বিল ২০১৯ পাশ হলে প্রধানমন্ত্রী ছাড়া কেউ এসপিজি কম্যান্ডো পাবেন না৷ বিলের বিরোধিতা করছে কংগ্রেস৷ কারণ, গান্ধি পরিবারের এসপিজি তুলে নিয়েছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক৷ কংগ্রেসের বক্তব্য, গান্ধি পরিবারের নিরাপত্তায় বড়সড় ফাঁক থাকছে৷ কিছু দুর্ঘটনা হলে দায়ী হবে বিজেপি৷

First published: 10:51:30 AM Nov 28, 2019
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर