• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • Prashant Kishore Sonia Gandhi Meeting: প্রশান্ত কিশোরের 'গান্ধিগিরি'! সংঘাত অতীত, সনিয়ার সঙ্গেও সন্ধি-বৈঠকে 'চাণক্য'

Prashant Kishore Sonia Gandhi Meeting: প্রশান্ত কিশোরের 'গান্ধিগিরি'! সংঘাত অতীত, সনিয়ার সঙ্গেও সন্ধি-বৈঠকে 'চাণক্য'

বরফ গলে সন্ধি?

বরফ গলে সন্ধি?

Prashant Kishore Sonia Gandhi: শুধুই উত্তরপ্রদেশ-পঞ্জাবের নির্বাচন নাকি এই বৈঠকের অন্য কোনও তাৎপর্য আছে ,এই নিয়েই রহস্য ঘনাচ্ছে রাজনৈতিক মহলে। এরই মধ্যে প্রকাশ্যে এল সনিয়ার সঙ্গে প্রশান্ত কিশোরের ভার্চুয়াল বৈঠকের কথা (PK Met Sonia Gandhi)।

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: সামনের বছরই পঞ্জাব এবং উত্তরপ্রদেশের বিধানসভা নির্বাচন। ২০২৪ সালের লোকসভা নির্বাচনের আগে এই দুই রাজ্যের ভোটকেই বলা হচ্ছে সেমিফাইনাল। আর সেই ভোটের আগেই হঠাৎই বরফ গলল ভোটকুশলী প্রশান্ত কিশোর (Prashant Kishor) ও গান্ধি পরিবারের (Gandhi Family) মধ্যে। বছর চারেক আগে উত্তরপ্রদেশ নির্বাচনে ব্যর্থতার পর প্রশান্ত কিশোরের সঙ্গে রাহুল গান্ধির যে বিচ্ছেদ রচিত হয়েছিল, মঙ্গলবার রাজধানী দিল্লিতে সেই পর্ব যেন সমাপ্ত হল। রাহুল গান্ধি, কংগ্রেসের সাধারণ সম্পাদক প্রিয়াঙ্কা গান্ধির সঙ্গে বৈঠক করেছেন প্রশান্ত কিশোর, এই খবর প্রকাশ্যে আসতেই শোরগোল পড়ে যায় জাতীয় রাজনীতিতে। কিন্তু সেই বৈঠকের তাৎপর্য ছিল আরও বড়। কারণ শুধু রাহুল (Rahul Gandhi), প্রিয়াঙ্কাই (Priyanka Gandhi) নন, কংগ্রেস নেত্রী সনিয়া গান্ধির সঙ্গেও বৈঠক হয়েছে পিকে-র (PK met Sonia Gandhi)। ফলে রাহুল-পিকের আলোচনা উত্তরপ্রদেশ ও পঞ্জাব নির্বাচন নিয়ে হয়েছে বলে যে জল্পনা ছড়িয়েছিল, তা যে ওই দুই রাজ্যের বিধানসভা ভোটের থেকেও অনেক বড় প্রেক্ষিত, তা নিয়ে বিশেষ আর সন্দেহ নেই।

প্রসঙ্গত, প্রিয়াঙ্কা গান্ধি এবং কে সি বেনুগোপালের সঙ্গে রাহুলের বাসভবনেই মঙ্গলবার বৈঠক করেন প্রশান্ত কিশোর। রাজনৈতিকভাবে তাৎপর্যপূর্ণ এই বৈঠকের প্রধান কারণ কী, কী কথা রাহুল-প্রশান্তের, শুধুই উত্তরপ্রদেশ-পঞ্জাবের নির্বাচন নাকি এই বৈঠকের অন্য কোনও তাৎপর্য আছে ,এই নিয়েই রহস্য ঘনাচ্ছে রাজনৈতিক মহলে। এরই মধ্যে প্রকাশ্যে এল সনিয়ার সঙ্গে প্রশান্তের ভার্চুয়াল বৈঠকের কথা। আর তারপরই রাজনৈতিক মহলের একটা বড় অংশের মতে, ২০২৪-এর লক্ষ্যেই ঘুঁটি সাজাচ্ছেন প্রশান্ত কিশোর, তাই রাহুল গান্ধির সঙ্গেও সংঘাত মেটাতে দেরি করছেন না তিনি।

বস্তুত উত্তরপ্রদেশের গত বিধানসভা নির্বাচন থেকেই রাহুলের সঙ্গে সম্পর্কে চিড় ধরেছিল পিকে-র। কিন্তু এক লহমায় তা যেন দূর হয়ে গেল। বাংলার ভোটে বিজেপিকে পর্যুদস্ত করার অন্যতম কারিগর ছিলেন প্রশান্ত কিশোর। বাংলায় বিজেপিকে 'বধ' করে এবার তাঁর লক্ষ্য নরেন্দ্র মোদিকে গদিচ্যুৎ করা। সেই লক্ষ্যে বিজেপি বিরোধী শক্তিগুলিকে এক ছাতার তলায় আনা অত্যন্ত জরুরি। এর আগেই প্রশান্ত কিশোর জানিয়েছিলেন, শুধু 'থার্ড ফ্রন্ট' গড়ে বিজেপিকে হারানো সম্ভব নয়। তাই লোকসভার আগে বিজেপি বিরোধী একটা বিকল্প গড়ে তোলার কথা বলেছিলেন তিনি।

সেই সূত্রেই সম্প্রতি শরদ পাওয়ার সঙ্গেও একাধিকবার বৈঠক করেন কিশোর। রাজনৈতিক মহলে গুঞ্জন, ২০২৪ সালে মোদি বিরোধী মুখ হিসেবে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কেই তুলে ধরতে চাইবেন প্রশান্ত। সেই লক্ষ্যে বিজেপি বিরোধী সমস্ত শক্তিগুলিকে এক ছাতার তলায় আনতে সেতুবন্ধনের কাজ চালাচ্ছেন এই ভোটকুশলী। এই পরস্থিতিতে গোটা গান্ধি পরিবারের সঙ্গেই যেভাবে বৈঠকে বসলেন তিনি, তা বিশেষ তাৎপর্য তৈরি করেছে।

Published by:Suman Biswas
First published: