• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • PRASHANT KISHOR MET SHARAD PAWER THIRD TIME IN HIS RESIDENCE FOR 3D OR 4TH FRONT FORMATION AGAINST NARENDRA MODI SDG

Prashant Kishor, Sharad Pawar: তৃতীয় বা চতুর্থ ফ্রন্টের 'ভরকেন্দ্রে' কী মমতাই? ফের পাওয়ার-প্রশান্ত বৈঠক!

শরদ পাওয়ার-প্রশান্ত কিশোর বৈঠক চলছে। ফাইল ছবি।

বুধবার সকালে এনসিপি (NCP) প্রধান শরদ পাওয়ারের (Sharad Pawar) দিল্লি ৬ নম্বর জনপথ রোডের বাড়িতে তাঁর সঙ্গে দেখা করলেন প্রশান্ত কিশোর (Prashant Kishor)।

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: পাখির চোখ ২০২৪ লোকসভা নির্বাচন। তার প্রস্তুতি ইতিমধ্যেই শুরু করে দিয়েছে বিরোধী দলগুলি। বাংলার কুরুক্ষেত্রে জিতে এ বার দিল্লির মসনদকে পাখির চোখ করতে চাইছে তৃণমূলও। এমতাবস্থায়  বুধবার সকালে এনসিপি (NCP) প্রধান শরদ পাওয়ারের (Sharad Pawar)  দিল্লি ৬ নম্বর জনপথ রোডের বাড়িতে তাঁর সঙ্গে দেখা করলেন প্রশান্ত কিশোর (Prashant Kishor)। প্রায় একঘন্টা পাওয়ারের বাড়িতে ছিলেন প্রশান্ত।

    মঙ্গলবার রাষ্ট্রমঞ্চের ছাতার তলায় এনসিপি-সহ অন্যান্য দলের যে বৈঠক হয়েছিল তাতে প্রশান্ত কিশোর হাজির ছিলেন না। কিন্তু তার ২৪ ঘন্টার মধ্যেই পাওয়ারের বাসভবনে প্রশান্ত কিশোরের উপস্থিতি জানান দিচ্ছে ২৪-র মহারণের প্রস্তুতিতে সলতে পাকানো কাজটি তিনিই করবেন। তবে, কোনও ফ্রন্ট নয়, মমতা-পাওয়ার নেতৃত্ব দেবেন বিজেপি বিরোধী শক্তির। আর সেই সেতুবন্ধনের কাজটা করবেন প্রশান্ত কিশোর, বার্তা খানিকটা এমনই। উল্লেখ্য, এই নিয়ে তৃতীয় বার পাওয়ারের সঙ্গে দেখা করলেন প্রশান্ত কিশোর।

    রাজনৈতিক মহল বলছে, এই ঘন ঘন পাওয়ার সাক্ষাতের তিনটি তাৎপর্য আছে। এক, ২০২৪-র লোকসভা ভোটের লড়াইয়ের প্রস্তুতিটা যে এখন থেকেই চলছে তা সাধারণ মানুষকে বুঝিয়ে দিতে চাইছেন প্রশান্ত কিশোর। দুই, স্ট্র্যাটেজিস্ট প্রশান্ত কিশোর বুঝিয়ে দিতে চাইছেন, লড়াইয়ের ময়দানে বিজেপি একক শক্তি নয়, তাকে যথেষ্ট বেগ দেওয়ার জন্য তৈরি হচ্ছে অন্য একটি অক্ষশক্তি। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (CM Mamata Banerjee) বিপুল জয় এই অক্ষশক্তির ভরকেন্দ্র। তৃতীয়ত, বার্তা দেওয়া হচ্ছে কংগ্রেসকেও। কংগ্রেসকে বুঝিয়ে দেওয়া হচ্ছে, তারা যদি এই শক্তিতে যুক্ত হতে চায় তবে দরজা খোলা, কিন্তু তারা না থাকলেও লড়াই বন্ধ হবে না।

    শরদ পাওয়ারের পেডার রোডের বাড়িতে প্রশান্ত কিশোর প্রথম গিয়েছিলেন ১২ জুন। সেদিন তিন ঘন্টা পাওয়ার প্রশান্ত কথাবার্তা হয়। ভোটকুশলী প্রশান্ত কিশোরের তৎপরতাই প্রমাণ করছে, কোনও বিকল্প ফ্রন্ট নয়, আগামী দিনে মোদিকে মুখোমুখি চ্যালেঞ্জ জানাতে মমতা এবং শরদ পাওয়ারকেই দাবার বোর্ডের প্রধান দুই ঘুঁটি হিসেবে বিচার করছেন তিনি।

    Published by:Shubhagata Dey
    First published: