• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • PRASHANT KISHOR MAY GET RESPONSIBILITY SIMILAR TO AHMED PATEL IN CONGRESS DMG

Prashant Kishor| Congress: কংগ্রেসে যোগ দিলে কোন পদ পাবেন প্রশান্ত কিশোর? দলের মধ্যেই নানা মত

প্রশান্ত কিশোর৷

বিষয়টি নিয়ে আলোচনার জন্য কয়েক সপ্তাহ আগে কংগ্রেস নেতা ভি সি বেণুগোপাল দলের মধ্যে একটি বৈঠক ডাকেন (Prashant Kishor| Congress)৷

  • Share this:

    #দিল্লি: প্রশান্ত কিশোর দলে যোগ দিলেও তাঁকে অতি গুরুত্বপূর্ণ কোনও পদ দিতে রাজি নন কংগ্রেসের শীর্ষ নেতারা৷ কংগ্রেস সূত্রে খবর, প্রশান্ত শেষ পর্যন্ত সত্যিই দলে যোগ দিলে তাঁকে কংগ্রেসের ভিতরে এবং বাইরে রাজনৈতিক সমন্বয় সাধনের দায়িত্ব দেওয়া হতে পারে৷ অতীতে অনেকটা যে দায়িত্ব পালন করতেন আহমেদ প্যাটেল৷

    সূত্রের খবর, বিষয়টি নিয়ে আলোচনার জন্য কয়েক সপ্তাহ আগে কংগ্রেস নেতা ভি সি বেণুগোপাল দলের মধ্যে একটি বৈঠক ডাকেন৷ প্রিয়াঙ্কা গান্ধি, এ কে অ্যান্টনি, জয়রাম রমেশ, দিগ্বিজয় সিং এবং তারিক আনওয়ারের মতো নেতারা এই বৈঠকে অংশ নেন৷

    একটি সূত্র অনুযায়ী, কংগ্রেস শীর্ষ নেতাদের একাংশ মনে করেন, দলের একজন সদস্য হিসেবেই প্রশান্ত কিশোরকে কাজ করতে হবে৷ আবার অন্য একটি সূত্রের মতে, ভোট কুশলীর অভিজ্ঞতা এবং পরামর্শ কাজে লাগানোর জন্য দলের মধ্যেই একটি পৃথক দপ্তর খোলা উচিত বলে প্রস্তাব দিয়েছেন কয়েকজন কংগ্রেস নেতা৷ বেণুুগোপালের ডাকা বৈঠকে অংশ নেওয়া নেতাদের পাশাপাশি দলের অন্যান্য নেতাদের থেকেও এ বিষয়ে পরামর্শ চেয়েছিল কংগ্রেস৷ মে মাসে পশ্চিমবঙ্গে বিধানসভা নির্বাচনের ফল ঘোষণার পরই প্রশান্ত কিশোর জানিয়েছিলেন, ভোট কুশলীর কাজ থেকে সরে দাঁড়াচ্ছেন তিনি৷ এর পরই তাঁর কংগ্রেসে যোগ দেওয়ার সম্ভাবনা তৈরি হয়৷

    পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচনের কয়েক মাস আগেই প্রশান্ত কিশোর দাবি করেছিলেন, বিজেপি তিন অঙ্কে পৌঁছতে পারবে না৷ তাঁর ভবিষ্যদ্বাণী না মিললে ভোট কুশলীর কাজ ছেড়ে দেওয়ারও চ্যালেঞ্জ ছোড়েন তিনি৷ তখন অনেকেই তাঁর এই দাবি মানতে চাননি৷ কিন্তু ভোটের ফল প্রকাশের পরে দেখা, প্রশান্ত কিশোরই ঠিক ছিলেন৷ তার পরেও অবশ্য ভোট কুশলীর কাজ থেকে সরে দাঁড়ানোর সিদ্ধান্তে অনড় থাকেন প্রশান্ত কিশোর৷ তাঁর মতে, মাঠে ময়দানে ঘুরে আসল সমীক্ষার কাজটি করেন আইপ্যাক-এর সহকর্মীরা৷ এবার নিজের সেই সহকর্মীদের হাতেই দায়িত্ব তুলে দিতে চান প্রশান্ত কিশোর৷

    Published by:Debamoy Ghosh
    First published: