Home /News /national /
Poor Condition of Market || বাজার যেন মরণফাঁদ! যে কোনদিন খসতে পারে চাঙর, আতঙ্কের প্রহর গুনছেন ব্যবসায়ীরা

Poor Condition of Market || বাজার যেন মরণফাঁদ! যে কোনদিন খসতে পারে চাঙর, আতঙ্কের প্রহর গুনছেন ব্যবসায়ীরা

আশ্বাস দিয়েছেন ফিরহাদ হাকিম

আশ্বাস দিয়েছেন ফিরহাদ হাকিম

Poor Condition of Market || কলকাতার সব থেকে পুরনো বাজার নিউমার্কেটেরও সংস্কারের কাজ হাতে নিয়েছে কলকাতা পুরসভা।

  • Share this:

কলকাতা পুরসভার বাজার যেন মরণফাঁদ। পার্ক সার্কাস বাজারের মতো অনেক বাজারেই যে কোনওদিন খসতে পারে চাঙর। পুরসভার আশ্বাস ছাড়া কিছুই মেলেনি, এমনটাই অভিযোগ পুরবাজারের ব্যবসায়ীদের। পার্ক সার্কাস বাজারে তিনতলা বিল্ডিং। কলকাতা পুরসভার এই বাজার দীর্ঘদিন ধরেই সংস্কারের অভাবে ধুঁকছে। কোথাও পলেস্তারা খসে গিয়েছে। কোথাও আবার চাঙড় খসে লোহার রড বেরিয়েছে। একেবারে কঙ্কালসার চেহারা। চাঙড় খসে ক্রেতার মাথায় পড়ে পার্ক সার্কাস বাজারে হলুস্থুল কাণ্ড বাধে। আহত ব্যক্তি হাসপাতালে ভর্তি। এখনও আতঙ্কের প্রহর গুনছেন পার্ক সার্কাস বাজারের ব্যবসায়ীরা।

আরও পড়ুন: এটিএম-এর মধ্যে ATM মেশিনই নেই! বাগদায় চাঞ্চল্যকর চুরি, রহস্যভেদ পুলিশেরও

যে দোকানের সামনে দুর্ঘটনায় আহত হন ওই ক্রেতা তার ঠিক পাশেই নির্মল সেনের দোকান। নির্মলবাবু অভিযোগ করেন, এর আগেও জোড়া তালি দিয়ে সারানো হয়েছে। কিন্তু যেভাবে দোতলা এবং তিনতলার কার্নিশ থেকে পলেস্তরা খসে পড়ছে তাতে কিছুই করার নেই৷ আতঙ্কের মধ্যেই দোকান চালাতে হচ্ছে।

আরও পড়ুন: অন্তর্বতী জামিন শেষ, জেলে ফেরার আগেই মারাত্মক ঘটনা ছত্রধরের সঙ্গে! ভর্তি হাসপাতালে

পার্ক সার্কাস বাজারের পর ল্যান্স ডাউন বাজার। অভিযোগ, কলকাতা পুরসভার এই বাজারেরও বেহাল দশা। বাজারে ঢোকার মুখেই ভগ্নপ্রায় পরিকাঠামো। চাঙড় খসে রীতিমতো রডের কঙ্কাল বেরিয়ে গিয়েছে। বিপজ্জনকভাবে ঝুলছে ভবনের অংশ। পরগাছা ও বটগাছে ছেয়ে গিয়েছে বাজারের পুরনো ভবন। কোথাও আবার বৃষ্টি হলেই জল থই থই অবস্থা। অভিযোগ, ইতিমধ্যেই যে নতুন ভবনের কাজ শুরু হয়েছে সেটাও বিশ বাঁও জলে। তাই নতুন করে বিপজ্জনক জায়গাতেই ব্যবসা করতে বাধ্য হচ্ছেন দোকানদারেরা। ল্যান্সডাউন মার্কেটের বেশ কয়েকজন দোকানদার অভিযোগ করেন, বৃষ্টি হলেই জল ছড়িয়ে পড়ে। দোকানের সামনে জল দাঁড়িয়ে যায়।

★কলকাতা পুরসভা অধীনে মোট ৫১ টি বাজার রয়েছে।

★এছাড়া ছোট বড় মিলিয়ে বেসরকারি বাজারও প্রায় 300 টির বেশি রয়েছে।

★এর মধ্যে বেশিরভাগ পুরনো বাজার বিপদজনক অবস্থায়।

★পুরসভার নিজস্ব ও বেসরকারি সব বাজারেরই সমীক্ষা করবে কলকাতা পৌরসভা।

★সমীক্ষার পর সংস্কারের ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

কলকাতার সব থেকে পুরনো বাজার নিউমার্কেটেরও সংস্কারের কাজ হাতে নিয়েছে কলকাতা পুরসভা। সেখানেও জল চুঁইয়ে পড়ে চাঙর খসে পড়ায় আতঙ্কিত ব্যবসায়ীরা। একই অবস্থা বাঘাযতীন বাজার থেকে শুরু করে বেহালা শখেরবাজার কিংবা রামলাল বাজার- সর্বত্র। কালীঘাট বাজারের অবস্থাও কিছু ভাল নয়। একদিকে পরিকাঠামোর সংস্কার হয়নি, অন্যদিকে দীর্ঘদিন জরাজীর্ণ অবস্থা।

সূত্রের খবর, আশ্বাস দিয়েছেন মেয়র ফিরহাদ হাকিম৷ কলকাতা পুরসভার বাজার বিভাগের মেয়র পরিষদ আমিরুদ্দিন ববি জানান, মেয়রের নির্দেশে পার্কসার্কাস বাজারসহ-বেশ কিছু বাজার সরজমিনে খতিয়ে দেখতে গিয়েছিলাম। দ্রুত কয়েকটি বাজারে সংস্কার প্রয়োজন। সমস্ত বাজারগুলো মেয়রের নির্দেশে সমীক্ষা করা হবে এবং তারপর প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে। পুরসভার নিজস্ব বাজার এবং শহরের বেসরকারি মালিকানাধীন বাজার সব বাজারেই সমীক্ষার কাজ শুরু হয়েছে। পুরসভার নিজস্ব বাজারের বিপদজনক অংশ তড়িঘড়ি মেরামতি করা হবে। বেসরকারি বাজার এগুলি কেউ সংস্কারের প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ করতে চিঠি দেবে কলকাতা পুরসভা।

Published by:Rachana Majumder
First published:

Tags: Market

পরবর্তী খবর