মুখ্যসচিবকে হেনস্থার অভিযোগ, কেজরিওয়ালের বাড়ি থেকে সিসিটিভি ফুটেজ সংগ্রহ পুলিশের

মুখ্যসচিবকে হেনস্থার অভিযোগ, কেজরিওয়ালের বাড়ি থেকে সিসিটিভি ফুটেজ সংগ্রহ পুলিশের
Delhi Chief Minister Arvind Kejriwal (centre) addresses a rally in Bindapur on Friday.

মুখ্যসচিবকে হেনস্থার অভিযোগ ঘিরে কেন্দ্র-আপ সংঘাত আরও বাড়ল। মুখ্যমন্ত্রীর বাড়ি থেকে সিসিটিভি ফুটেজ সংগ্রহ করল পুলিশ।

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: মুখ্যসচিবকে হেনস্থার অভিযোগ ঘিরে কেন্দ্র-আপ সংঘাত আরও বাড়ল। মুখ্যমন্ত্রীর বাড়ি থেকে সিসিটিভি ফুটেজ সংগ্রহ করল পুলিশ। যদিও পুলিশের এই পদক্ষেপকে তল্লাশি বলেই দাবি আপের। কেজরিওয়ালের তোপ, লোয়াকাণ্ডে এই হিম্মত দেখাবেন তো তদন্তকারীরা। পরিস্থিতি আরও ঘোরালো করেছেন আপ বিধায়ক নরেশ বালিয়ান। তাঁর বেফাঁস মন্তব্য, মিথ্যেবাদী মুখ্যসচিবকে গুলি করে মারা উচিত।

মুখ্যসচিবকে মাঝরাতে বাড়িতে ডেকে বৈঠক। অভিযোগ,সেই বৈঠকে আপ বিধায়কদের হাতে নিগৃহীত হন মুখ্যসচিব। রাত বারোটার পর মুখ্যসচিবের ওপর হামলার ঘটনা ঘটে। প্রেসক্রিপশনে সেটাই লিখেছিলেন চিকিৎসক। কিন্তু আপের পক্ষ থেকে প্রকাশ করা মুখ্যমন্ত্রীর বাড়ির সিসিটিভি ফুটেজে দেখা যায় রাত সাড়ে এগারোটা নাগাদ বেরিয়ে যাচ্ছেন মুখ্যসচিব। তাহলে সত্যিটা কী ? কী ঘটেছিল সেদিন রাতে? সে ব্যাপারে নিশ্চিত হতেই মুখ্যমন্ত্রীর বাড়িতে গিয়ে বিশাল পুলিশ বাহিনী প্রায় দুঘণ্টা ধরে প্রমাণ সংগ্রহ করে। পুলিশের দাবি,

- মোট ২১টি সিসিটিভি ক্যামেরা রয়েছে

- ১৪টি ক্যামেরা কাজ করলেও ৭টিতে রেকর্ডিং বন্ধ

- ক্যামেরাগুলি ৪০ মিনিট ২২ সেকেন্ড দেরিতে চলছে

- কেন দেরিতে তা জানতে ডেটা বেস রেকর্ডার বা ডিবিআর ফরেনসিক পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়েছে

- ২১টি সিসিটিভি ক্যামেরা ও হার্ড ডিস্ক বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে

তাঁর বাড়িতে পুলিশের অভিযান নিয়ে মুখ খুলেছেন মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল। কেন্দ্র এবং বিজেপিকে নিশানা করে তাঁর খোঁচা, বিচারক লোয়ার মৃত্যুরহস্য উদঘাটনেও একইরকম হিম্মত দেখাবেন তো তদন্তকারীরা?

উত্তপ্ত পরিস্থিতির মধ্যেই বেফাঁস মন্তব্য করে দলের অস্বস্তি বাড়িছেন আপ বিধায়ক নরেশ বালিয়ান।

মুখ্যসচিবকে হেনস্থার ঘটনায় প্রতিবাদে সোচ্চার হয়েছে আইএএসদের সংগঠন। অফিসারদের নিরাপত্তা দাবি করেছেন তারা। এই দাবিতে শুক্রবার প্রধানমন্ত্রীর দফতরের রাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গেও দেখা করেন সংগঠনের সদস্যরা।

First published: 06:09:58 PM Feb 23, 2018
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर