• হোম
  • »
  • খবর
  • »
  • দেশ
  • »
  • PEOPLE CELEBRATE THE OPENING OF LIQUOR SHOPS BY BURSTING CRACKERS KARNATAKA THOUSANDS WAITING IN LINE UB

মদের দোকান খোলায় কর্ণাটকে বাজি ফাটিয়ে উৎসব!‌ সামাজিক দূরত্ব শিকেয় তুলে লাইনে হাজার হাজার মানুষ

মদের দোকান খোলায় কর্ণাটকে বাজি ফাটিয়ে উৎসব!‌ সামাজিক দূরত্ব শিকেয় তুলে লাইনে হাজার হাজার মানুষ

সব রাজ্যকে মদ বিক্রির লাভে টেক্কা দিয়ে সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছে উত্তরপ্রদেশ ৷ এক দিনেই লাভের অঙ্ক ১০০ কোটি ৷ যোগী রাজ্যে মদ বিক্রিতে রাজ্যের রাজস্ব আয় ১০০ কোটি টাকা ৷

মনে হচ্ছে, যেন উৎসব শুরু হয়েছে কোনও!‌

  • Share this:

    #‌নয়া দিল্লি:‌ কেন্দ্রীয় সরকার সামাজিক দূরত্ব ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে মদের দোকান খোলার অনুমতি দিয়েছে। শুধু মাত্র কন্টেইমেন্ট জোনে দোকান বন্ধ থাকবে, ‌এমন নির্দেশিকা দেওয়া হয়েছে সরকারের পক্ষ থেকে। সেই ২৪ মার্চ থেকে ৩ মে পর্যন্ত দোকান বন্ধ ছিল। স্বাভাবিক কারণে দোকান খুললে ক্রেতাদের ভিড় যে হবেই, তা বুঝতে পেরেছিলেন অনেকে। কিন্তু যে চিত্র দেশজুড়ে দেখা যাচ্ছে, তা একেবারে অবাক করে দেওয়া।

    দিল্লিতে সোমবার ১৫০ মদের দোকান খোলার কথা। সকালে সেই মতো দোকান খোলার আগেই দেখা যায় অসংখ্য মানুষ লাইন করে দোকানের সামনে দাঁড়িয়ে আছেন। দেখা গিয়েছে কর্ণাটকের এক আজব ছবি। কর্ণাটকের সোলার জেলায় মদের দোকান খোলার আনন্দে দেদার বাজি ফাটিয়েছেন এলাকার বাসিন্দারা।

    কর্ণাটক, মহারাষ্ট্র সর্বত্র লাইনে কাকভোরেই দাঁড়িয়ে পড়েছেন হাজার হাজার লোক। কিছু দোকান সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার চেষ্টা করলেও সমস্যা মিটছে না। বরং ভিড়, ধাক্কাধাক্কি, কোথাও পুলিশকে লাঠিচার্জ পর্যন্ত করতে হচ্ছে পরিস্থিতি সামাল দিতে। পূর্ব দিল্লিতে দোকান বন্ধ করে রাখার পরেও সকাল সকাল দোকানের সামনে ভিড় করেছিলেন সাধারণ মানুষ। পুলিশ এরপর ঘোষণা করে, কন্টেইমেন্ট জোন হওয়ায় এখানে মদের দোকান খুলবে না। তাও কথা শুনতে চাননি সাধারণ মানুষ। এরপর পরিস্থিতি সামলাতে লাঠি চালাতে হয় পুলিশকে। লখনউ, চিতোর, বেঙ্গালুরু সহ দেশের সর্বত্র এই একই ছবি উঠে আসছে সকাল থেকে।

    সরকার পরীক্ষামূলক ভাবে মদের দোকান খোলার সিদ্ধান্ত নেওয়ার পর যা পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে, তাতে সত্যিই যদি সামাজিক দূরত্বের নিয়ম মানা না হয়, তাতে সমস্যা বাড়তে পারে, সেটা বুঝতে পারছেন না সাধারণ মানুষ।

    Published by:Uddalak Bhattacharya
    First published: