Home /News /national /
Parliament Session: স্মৃতি ইরানির 'এই' একটি কথাতেই উঠল ঝড়! তুমুল হট্টগোল সংসদে...

Parliament Session: স্মৃতি ইরানির 'এই' একটি কথাতেই উঠল ঝড়! তুমুল হট্টগোল সংসদে...

স্মৃতি ইরানির সম্বোধনে ঝড় সংসদে File Photo

স্মৃতি ইরানির সম্বোধনে ঝড় সংসদে File Photo

Parliament Session: লোকসভায় স্মৃতি ইরানি ওয়াই এস আর সি পি সাংসদ গীতা বিশ্বনাথ ভঙ্গকে মহিলা সদস্য বলে মন্তব্য করেন। আর তাতেই তৈরি হয় বিক্ষোভ।

  • Share this:

#নয়াদিল্লি : মহিলা সাংসদদের 'মহিলা সদস্য' বলে সম্বোধন করা উচিত কিনা তা নিয়ে বিতর্কের ঝড় উঠল লোকসভায় (Parliament Session)। কেন্দ্রীয় মন্ত্রী স্মৃতি ইরানির (Smriti Irani) সম্বোধনে ঝড় সংসদে দাবির কড়া নিন্দা করেন কংগ্রেসের লোকসভার দলনেতা অধীর রঞ্জন চৌধুরী এবং তৃণমূল সাংসদ সৌগত রায়। বিরোধীদের অভিযোগ অসংসদীয় শব্দ ব্যবহার করেছেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী।

আরও পড়ুন : বিধানসভার গন্ডগোলে 'উৎসাহ' দিয়েছেন রাজ্যপাল, ধনখড়ের চিঠি নিয়ে জোরালো অভিযোগ অধ্যক্ষের

স্মৃতি ইরানির (Smriti Irani) দাবির বিরোধিতা করে বলেন, মহিলা সদস্য না বলে শুধুমাত্র মাননীয় সদস্য বলা উচিত। আজ লোকসভায় স্মৃতি ইরানি ওয়াই এস আর সি পি সাংসদ গীতা বিশ্বনাথ ভঙ্গকে মহিলা সদস্য বলে মন্তব্য করেন। আর তাতেই তৈরি হয় বিক্ষোভ (Parliament Session)। বিরোধীরা কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর এই শব্দ চয়নে তীব্র আপত্তি জানিয়ে বলেন, এটি অসংসদীয় শব্দ। এমন শব্দ ব্যবহার করা উচিত নয় বলে দাবি করে বিরোধী শিবির।

যদিও নিজের বাক্যেই অনড় থেকে স্মৃতি ইরানি বলেন, একজন মহিলা সংসদকে মহিলা সদস্য বলার মধ্যে কোনও অন্যায় নেই। তিনি বলেন, "তাঁর উপস্থিতির প্রতি আমার বিন্দুমাত্র অসম্মান নেই।" বি জে ডি সাংসদ অনুভব মহান্তি স্মৃতি ইরানিকে সমর্থন জানিয়ে উঠে দাঁড়িয়ে বলেন, কোনও অসংসদীয় শব্দ ব্যবহার করেননি স্মৃতি ইরানি।

আরও পড়ুন : বিদেশে ভারতীয় ডাক্তারি পড়ুয়া কত? সংখ্যা জানাতে পারল না মোদি সরকার

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, অসম, ত্রিপুরা এবং নাগাল্যান্ডের একটি করে আসনে জয়লাভের ফলে রাজ্যসভায় ১০০-র অঙ্ক ছুঁয়ে ফেলল বিজেপি। ১৯৯০ সাল থেকে এই প্রথম কোন দল একশোর গণ্ডি ছুঁল। শুক্রবার রাজ্যসভায় তৃণমূল  সাংসদ জহর সরকার, প্রধানমন্ত্রী গরীব কল্যাণ যোজনা পুরো বছর পর্যন্তই বৃদ্ধি করার দাবি তোলেন। তাঁর দাবি, যেখানে ২১৪ লক্ষ মেট্রিক টন খাদ্যশস্যের জায়গায়, তার দ্বিগুণ ৫১৬ লক্ষ মেট্রিক টন মজুত রয়েছে, সেখানে অল্প সময়ের জন্য গরীব কল্যাণ যোজনা চালু থাকবে। তার আগে শুক্রবার রাজ্যসভায় (Parliament Session) উত্তরপ্রদেশের পূর্বাঞ্চলে একটি টেক্সটাইল পার্ক গড়ে তোলার দাবি ওঠে। দেশে মেডিক্যালে আসন সংখ্যা বৃদ্ধি, দরিদ্র পড়ুয়াদের জন্য বিনামূল্যে ইন্টারনেট পরিষেবা চালু করার দাবি তোলেন সাংসদরা।

Published by:Sanjukta Sarkar
First published:

Tags: Parliament, Smriti Irani

পরবর্তী খবর