• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • টাকা দিয়ে মিথ্যা প্রচার করা টিভি চ্যানেলে বিজ্ঞাপন দেবে না পার্লে জি!

টাকা দিয়ে মিথ্যা প্রচার করা টিভি চ্যানেলে বিজ্ঞাপন দেবে না পার্লে জি!

পার্লে জি-র এই সিদ্ধান্ত ট্যুইটারে প্রকাশ হওয়া মাত্র অভিনন্দনের বন্যা বয়ে যায়। অনেকেই এই সংস্থাকে সামাজিক দায়িত্বশীল ব্র্যান্ড হিসেবে আখ্যা দিয়েছেন।

পার্লে জি-র এই সিদ্ধান্ত ট্যুইটারে প্রকাশ হওয়া মাত্র অভিনন্দনের বন্যা বয়ে যায়। অনেকেই এই সংস্থাকে সামাজিক দায়িত্বশীল ব্র্যান্ড হিসেবে আখ্যা দিয়েছেন।

পার্লে জি-র এই সিদ্ধান্ত ট্যুইটারে প্রকাশ হওয়া মাত্র অভিনন্দনের বন্যা বয়ে যায়। অনেকেই এই সংস্থাকে সামাজিক দায়িত্বশীল ব্র্যান্ড হিসেবে আখ্যা দিয়েছেন।

  • Share this:

#মুম্বই: পার্লে কোম্পানির নাম শুনলেই আপনার প্রথমেই কীসের কথা মনে পড়ে? হ্যাঁ, সব্বাই একবাক্যে পার্লে জি বিস্কুটের নামই বলবেন। এবার এক বিরল ও অভিনব সিদ্ধান্ত নিল পার্লে কর্তৃপক্ষ। কিছু চ্যানেল যারা সম্প্রতি টাকা দিয়ে টিআরপি কেনার কেলেঙ্কারিতে জড়িয়ে পড়েছে সেখানে এই কোম্পানির পার্লে জি তো বটেই, অন্য কোনও প্রোডাক্টের বিজ্ঞাপনও দেখানো হবে না। এ কথা সম্প্রতি সাফ জানিয়ে দিয়েছে সংস্থা।

সম্প্রতি মুম্বই পুলিশের তৎপরতায় এই ঘটনা সামনে এসেছে যেখানে কিছু টিভি চ্যানেল মিথ্যে খবর দেখিয়ে টিআরপি কিনেছে বলে অভিযোগ করা হয়েছে। রিপোর্ট অনুযায়ী পার্লের সিনিয়র ক্যাটাগরি প্রধান কৃষ্ণরাও বুদ্ধ এই কথা প্রেসের সামনে জানিয়েছেন। পার্লের এই সিদ্ধান্তকে কুর্নিশ জানানোর মতো হলেও কিছু দিন আগে একই সিদ্ধান্ত নিয়েছে বাজাজ কোম্পানিও। শিল্পপতি রাজীব বাজাজ সিএনবিসি টিভি ১৮-কে জানিয়েছেন যে বাজাজ অটোর বিজ্ঞাপন বিশেষ তিনটি নিউজ চ্যানেলে দেখানো হবে না। কারণ এই তিনটি চ্যানেলকে বাজাজ কোম্পানি তাদের তালিকায় নিষিদ্ধ ঘোষণা করেছে।

পার্লে জি-র এই সিদ্ধান্ত ট্যুইটারে প্রকাশ হওয়া মাত্র অভিনন্দনের বন্যা বয়ে যায়। অনেকেই এই সংস্থাকে সামাজিক দায়িত্বশীল ব্র্যান্ড হিসেবে আখ্যা দিয়েছেন। অনেকে আবার বলেছেন এই পদক্ষেপকে তাঁরা স্বাগতম জানাচ্ছেন এবং আরও কোম্পানি যেন এই পথে এগিয়ে আসে। এই কোম্পানির বিস্কুট ইতিমধ্যেই জনপ্রিয় কিন্তু তাও অনেকে বলেছেন এখন থেকে তাঁরা এই কোম্পানির চিরকালের গ্রাহক হয়ে গেলেন। কেউ আবার এও বলেছেন যে পার্লে জি-র মতো বিস্কুটের বিজ্ঞাপনের দরকার নেই, এটা গ্রাহকরা নিজেরাই করে দেবেন।

বোঝাই যাচ্ছে যে এতদিন ধরে এতগুলো নিউজ চ্যানেলের দাপটে তিতিবিরক্ত হয়ে উঠেছিল জনতা। বিশেষ করে মিথ্যে খবর পরিবেশন করে টিআরপি তৈরি করার মতো কাজে লিপ্ত হওয়ায় অনেকেই নিউজ চ্যানেল দেখা বন্ধ করেছেন। কিছুদিন আগেই মুম্বই পুলিশ দু'টি মরাঠি চ্যানেলের কর্তাকে এই অপরাধে গ্রেফতার করেছে। এই মিথ্যে টিআরপি র‍্যাকেট অনেক দিন ধরেই সক্রিয় ছিল এবং মানুষকে দিয়ে সারাদিন টিভি খুলিয়ে রেখে এরা নিজেদের স্বার্থসিদ্ধি করছিল।

বোঝাই যাচ্ছে পার্লে জি-র এই সিদ্ধান্ত কুর্নিশ জানানোর মতোই। পাশাপাশি মুম্বই পুলিশের এই তৎপরতাকে সেলাম জানিয়েছে বার্ক বা ব্রডকাস্ট অডিয়েন্স রিসার্চ কাউন্সিল। তারা মুম্বই পুলিশকে এই ব্যাপারে সব রকমের সাহায্য করার আশ্বাসও দিয়েছে।

Published by:Pooja Basu
First published: