Home /News /national /
৫০০ ও ১০০০ নোট বাতিল, চিকিৎসার অভাবে মৃত্যু সদ্যজাতের

৫০০ ও ১০০০ নোট বাতিল, চিকিৎসার অভাবে মৃত্যু সদ্যজাতের

(Photo: Reuters/Representative Image)

(Photo: Reuters/Representative Image)

নির্দেশই সার ৷ রাতারাতি বাতিল ৫০০ ও ১০০০ টাকার নোট ৷ সেই মূল্যহীন অচল নোটের মূল্য নিজের জীবন দিয়ে চোকালেন এক সদ্যজাত শিশু ৷

  • Pradesh18
  • Last Updated :
  • Share this:

    #মুম্বই: নির্দেশই সার ৷ রাতারাতি বাতিল ৫০০ ও ১০০০ টাকার নোট ৷ সেই মূল্যহীন অচল নোটের মূল্য নিজের জীবন দিয়ে চোকাল এক সদ্যজাত শিশু ৷ অচল নোট হাসপাতাল গ্রহণ না করায় শুরু হয়নি সঠিক সময়ে চিকিৎসা ৷ তাই পৃথিবীর আলো দেখতে না দেখতেই চিরতরে ঘুমে তলিয়ে গেল জগদীশ শর্মা ও কিরণের সদ্যজাত সন্তান ৷ ঘটনাটি ঘটেছে মুম্বইয়ের শিবাজিনগর জীবন জ্যোতি হাসপাতালে ৷

    মঙ্গলবার ৮ নভেম্বর সন্ধেয় নোট বাতিলের সিদ্ধান্ত ঘোষণার সঙ্গে সঙ্গেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি চিকিৎসা ব্যবস্থা সহ সমস্ত জরুরি পরিষেবার ক্ষেত্রে ৫০০ ও ১০০০-এর পুরনো নোট গ্রহণে ছাড় দিয়েছিলেন ৷ সে সরকারি নির্দেশই সার ৷

    মুম্বইয়ের জগদীশ শর্মা অভিযোগ করেছেন, সরকারি নির্দেশ সত্ত্বেও পুরনো ৫০০ ও হাজারের নোট নিতে চায়নি মুম্বইয়ের শিবাজিনগর জীবন জ্যোতি হাসপাতাল ৷ ‘গ্রহণযোগ্য’ টাকা যোগাড়ে সময় লাগায় চিকিৎসা শুরু করেনি নার্স ও ডাক্তারকা ৷ জগদীশ শর্মার সদ্য প্রসূতি স্ত্রী ও তাঁর নবজাতক সন্তানকে বিনা চিকিৎসায় ফেলে রাখার অভিযোগ উঠেছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে ৷ পরে ১০০ টাকার নোটে হাসপাতাল ফিজ জমা দেওয়ায় শুরু করা হয় চিকিৎসা ৷ কিন্তু ততক্ষণে অনেক দেরি হয়ে গিয়েছে ৷ সঠিক সময় চিকিৎসা না পেয়ে মারা যায় জগদীশ ও কিরণের সদ্যজাত ছেলে ৷

    পরে শিবাজী নগর পুলিশ স্টেশনে ঘটনার অভিযোগ নথিভুক্ত করান জগদীশ ৷ তিনি জানিয়েছেন, ৯ নভেম্বর হঠাৎই প্রসব যন্ত্রণা ওঠে তাঁর স্ত্রী কিরণের ৷ হাসপাতালে নিয়ে যেতে যেতে প্রসব হয়ে যায় কিরণের ৷ সময়ের আগেই জন্মে যাওয়ায় তক্ষুণি চিকিৎসার প্রয়োজন ছিল সদ্যজাতর ৷ স্ত্রী ও ছেলেকে নিয়ে শিবাজিনগর জীবন জ্যোতি হাসপাতালে ছুটে যান জগদীশ ৷ কিন্তু অ্যাডমিশন চার্জের ছয় হাজার টাকা জমা দিতে গেলে তাঁকে বলা হয় ৫০০ টাকার নোট নেওয়া হবে না ৷ কিরণ ও জগদীশ হাসপাতাল কর্মী ও নার্সদের কাকুতি মিনতি করলেও তাদের স্পষ্ট করে জানিয়ে দেওয়া হয় সঠিক হাসপাতাল ফিজ জমা না দেওয়া হলে তারা চিকিৎসা শুরু করবে না ৷

    বহু তর্কবিতর্কের পর অনেক কষ্ট করে ১০০ টাকার ৬০ টি নোট যোগাড় করে আনেন পেশায় ছুতোর জগদীশ ৷ কিন্তু ততক্ষণে অনেক সময় পেরিয়ে যাওয়ায় সদ্যজাত সন্তানকে বাঁচানো সম্ভবপর হয়নি ৷

    হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে শিবাজীনগর থানায় ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩০৪এ, ১৮৮ ধারায় অভিযোগ দায়ের হয়েছে ৷ ঘটনায় এখনও কেউ গ্রেফতার হয়নি ৷

    First published:

    Tags: Currency Ban, Demonetisation, Indian Currency

    পরবর্তী খবর