corona virus btn
corona virus btn
Loading

মাওবাদীরা বিভিন্ন গ্যাং তৈরি করে ফেললেই রক্তবন্যা! ছত্তীসগড়ে শান্তি স্থাপনের শেষ চেষ্টা

মাওবাদীরা বিভিন্ন গ্যাং তৈরি করে ফেললেই রক্তবন্যা! ছত্তীসগড়ে শান্তি স্থাপনের শেষ চেষ্টা
File Image

এই জনমত সমীক্ষা শান্তি ফেরাতে শেষ মরিয়া চেষ্টা৷ ছত্তীসগড়ে আদিবাসীরা ৭৪৭৭২৮৮৪৪৪ নম্বরে ব্যাপক ফোন করছেন৷ উত্‍সাহের সঙ্গে নিজেদের মত দিচ্ছেন৷

  • Share this:

SUHAS MUNSHI

'যতদিন না সিপিআই (মাওবাদী) তাদের নিজেদের কম্যান্ডরদের দ্বারা আফগানিস্তানের মতো বিভিন্ন গ্যাং তৈরি করে ফেলছে, ততদিন আমাদের হাতে মাত্র ৫ বছর সময় আছে ৷' কথাগুলি বেশ জরুরি ভিত্তিতে বললেন শুভ্রাংশু চৌধুরী৷ ব্রিটেনের দ্য গার্ডিয়ান পত্রিকায় দীর্ঘদিন সাংবাদিকতা করে তারপর বিবিসি সাউথ এশিয়া ব্যুরোর রেডিও প্রোডিউসার৷ গত ৩ বছর ধরে তিনি কেন্দ্রীয় বাহিনী ও মাওবাদীদের মধ্যে হিংসায় বিধ্বস্ত আদিবাসী মানুষদের জন্য কাজ করছেন৷ নিউ পিস প্রসেস (NPP)-এর আহ্বায়ক৷

সম্প্রতি গোন্ডি, হালবি ও হিন্দি ভাষায় একটি জনমত সমীক্ষা শুরু করেছেন শুভ্রাংশু৷ কেন্দ্রীয় নিরাপত্তা বাহিনী ও মাওবাদীদের মধ্যে দিনের পর দিন হিংসার ঘটনা কী ভাবে বন্ধ করা যায়, তার জনমত নেওয়া হচ্ছে আদিবাসীদের থেকে৷

শুভ্রাংশুর কথায়, 'শীর্ষস্থানীয় মাও নেতারা আগামী  ৫ বছরের মধ্যে যে কোনও সময় মারা যেতে পারেন৷ তারপরে গোটা সংগঠনটি চলে যাবে স্থানীয় কম্যান্ডরদের হাতে৷ যেহেতু তারাই এই রাজনৈতিক নেতৃত্বের দ্বিতীয় ধাপ৷ যেমন আমরা ঝাড়খণ্ড বা আফগানিস্তানে দেখেছি৷ জঙ্গিদের নিজেদের মধ্যেই গ্যাং-ওয়ার৷ ওই অবস্থা শুরু হলে রক্তের বন্যা বইবে৷ আমরা যে কোনও ভাবে ওই গ্যাং-ওয়ার রুখতে চাইছি৷ হিংসা থামাতে চাইছি৷'

এই জনমত সমীক্ষা শান্তি ফেরাতে শেষ মরিয়া চেষ্টা৷ ছত্তীসগড়ে আদিবাসীরা ৭৪৭৭২৮৮৪৪৪ নম্বরে ব্যাপক ফোন করছেন৷ উত্‍সাহের সঙ্গে নিজেদের মত দিচ্ছেন৷ নিজেদের ভাষায়৷ এই দীর্ঘ দিনের হিংসা কি আলোচনায় মেটানো সম্ভব, নাকি মিলিটারিই ভরসা? ফোন করে নিজেদের মত দিচ্ছেন তাঁরা৷ এই ফোন নম্বর ৩ অক্টোবর পর্যন্ত চালু থাকবে৷ গান্ধি জয়ন্তীতে NPP ই-র‌্যালিতে জনমত সমীক্ষার রেজাল্ট বের করা হবে৷

শুভ্রাংশু বললেন, 'আমরা একটি ধারাবাহিক আলোচনারও প্রস্তুতি নিচ্ছি, যার নাম চায়কলে মাণ্ডি৷ গোন্ডি ভাষায় যার অর্থ, শান্তি ও সুখের জন্য বৈঠক৷ ওই বৈঠকে দু’তরফেরই হিংসা কবলিতদের ডাকা হবে৷ মধ্য ভারতে মাওবাদী হিংসা কী ভাবে বন্ধ করা যায়, তার সমাধান খোঁজা হবে৷' এই পদ্ধতিতে দক্ষিণ আফ্রিকায় জাতিবিদ্বেষ মূলক হিংসা বন্ধ হয়েছিল ১৯৯৫ সালে, জানালেন তিনি৷

২ হাজার ৭০০ পুলিশকর্মী-সহ মোট ১২ হাজার মানুষের মৃত্যু হয়েছে মাওবাদী হিংসায় গত ২০ বছরে৷ ৫০ হাজারের বেশি মানুষ (মূলত আদিবাসী) ঘরছাড়া৷ 'রক্তবন্যা নিয়ে এখানে একটি অদ্ভূত স্তব্ধতা রয়েছে৷ আমরা সেই স্তব্ধতাকেই ভাঙার চেষ্টা করছি,' বললেন শুভ্রাংশু৷

'আদিবাসীরা তাঁদের ভবিষ্যত্‍ কী ভাবে গড়তে চান? অনেক রক্ত ইতিমধ্যেই ঝরেছে৷ হিংসার বলি হচ্ছে দু’তরফেই৷ এখন আমাদের সামনে প্রশ্ন হল, শান্তিপূর্ণ ভাবে এই অবস্থা বন্ধ করা যায় না?'

Published by: Arindam Gupta
First published: August 29, 2020, 11:28 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर