CCTV-র নজরে দিল্লি: কেজরির পরিকল্পনার সুফল পাচ্ছে দিল্লি পুলিশ

CCTV-র নজরে দিল্লি: কেজরির পরিকল্পনার সুফল পাচ্ছে দিল্লি পুলিশ

দিল্লির রাস্তায় সিসিটিভি ক্যামেরা বসানো নিয়ে একসময় অনেক বিতর্কও তৈরি হয় ৷

দিল্লির রাস্তায় সিসিটিভি ক্যামেরা বসানো নিয়ে একসময় অনেক বিতর্কও তৈরি হয় ৷

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি:  দেশজুড়ে চিনা পণ্য বয়কটের ডাক দিয়েছেন বহু মানুষ। দেশে নিষিদ্ধ হয়েছে ৫৯টি চিনা অ্যাপ। চিনা সংস্থাকে দেওয়া একের পর এক বরাত বাতিল করা হচ্ছে। এমন পরিস্থিতিতে দিল্লির রাস্তায় কয়েক সপ্তাহ আগে প্রায় দেড় লক্ষ সিসিটিভি ইনস্টল করা হয়েছিল। জানা যায়, এই বিপুল সংখ্যক সিসিটিভি কেনা হয়েছিল এক চিনা সংস্থা থেকে। স্বভাবতই তা নিয়ে প্রবল বিতর্ক শুরু হয়। এমনকী, দিল্লির বাসিন্দাদের ব্যক্তিগত তথ্য চুরি যাচ্ছে বলেও অভিযোগ ওঠে ৷ কিন্তু কয়েক সপ্তাহ পর দেখা যাচ্ছে রাস্তায় ইনস্টল করা এই সিসিটিভি কামেরার ফুটেজগুলি কাজেই লাগছে দিল্লি পুলিশের ৷

    সম্প্রতি দিল্লিতে যমুনার পাড়ে এক শিশু কন্যাকে অপহরণের চেষ্টা করে একদল দুষ্কৃতী ৷  সেই সময় শিশুটির মা এসে কোনওরকমে তাঁর মেয়েকে উদ্ধার করেন ৷ পুরো ঘটনার ছবি সিসিটিভি ক্যামেরায় ধরা পড়ে ৷ যার জেরে পরবর্তীকালে অভিযুক্তরা ধরাও পড়ে যায় ৷ এ ছাড়াও আরও অন্যান্য অনেক ঘটনায় রাস্তায় লাগানো সিসিটিভির ফুটেজ দেখেই অপরাধী ধরতে সক্ষম হয় পুলিশ ৷ শুধুমাত্র অপরাধীদের চিহ্নিত করাই নয় ৷ করোনার সময় শহরে নজরদারি চালাতেও সাহায্য করছে এই সিসিটিভি ক্যামেরাগুলি ৷ এমনটাই জানানো হয়েছে দিল্লি পুলিশের পক্ষ থেকে ৷

    দিল্লির বাসিন্দাদের নিরাপত্তার জন্য বিভিন্ন রাস্তায় সিসিটিভি বসিয়েছে আপ সরকার । যা কেনা হয়েছে চিনা সংস্থা হিকভিশনের (Hikvision) কাছ থেকে। তারাই এই সিসিটিভি তৈরি করার পাশাপাশি ইনস্টল করার দায়িত্বেও ছিল। এই সিসিটিভির ফুটেজ দেখার জন্য প্রত্যেক দিল্লিবাসীকে ফোনে ওই সংস্থার একটি অ্যাপ ডাউনলোড করতে হয়।

    Published by:Siddhartha Sarkar
    First published: