• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • NAVJOT SINGH SIDHU THREATENS CONGRESS HIGH COMMAND IN A PUBLIC MEETING DMG

Navjot Singh Sidhu threatens Congress high command: হাই কম্যান্ডকেই হুঁশিয়ারি সিধুর, পঞ্জাব নিয়ে কংগ্রেসের মাথাব্যথা কমছে না

কংগ্রেসের চিন্তা বাড়ালেন সিধু৷

মুখ্যমন্ত্রী অমরিন্দর সিং-এর সঙ্গে দ্বন্দ্ব দূর করতে সিধুকে পঞ্জাবের কংগ্রেস সভাপতির দায়িত্ব দেওয়া হয় (Navjot Singh Sidhu threatens Congress high command)৷

  • Share this:

    #চণ্ডীগড়: তাঁকে সিদ্ধান্ত নিতে না দিলে কাউকে রেয়াত করবেন না৷ কংগ্রেস নেতৃত্বকে কার্যত হুমকি দিয়ে রাখলেন নভজ্যোৎ সিং সিধু৷ ফলে পঞ্জাব নিয়ে কংগ্রেসের মাথাব্যথা কিছুতেই কমছে না৷ সিধুর তিন পরামর্শদাতাকে সরানোর জন্য নির্দেশ দিয়েছিলেন পঞ্জাবের দায়িত্বপ্রাপ্ত কংগ্রেস নেতা হরিশ রাওয়াত৷ তার পরই এই হুমকি দিলেন পঞ্জাবের কংগ্রেস সভাপতি৷

    মুখ্যমন্ত্রী অমরিন্দর সিং-এর সঙ্গে দ্বন্দ্ব দূর করতে সিধুকে পঞ্জাবের কংগ্রেস সভাপতির দায়িত্ব দেওয়া হয়৷ সভাপতি হওয়ার পর তিন জন পরামর্শদাতা নিযুক্ত করেন সিধু৷ কয়েকদিন আগে সিধুর সেই পরামর্শদাতারাই পাকিস্তান এবং কাশ্মীর নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করেন৷ গত বুধবার তাঁদের সরানোর নির্দেশ দেন হরিশ রাওয়াত৷

    এর পরই এ দিন একটি সভায় বক্তব্য রাখতে গিয়ে সিধু দলীয় নেতৃত্বকে হুঁশিয়ারি দেওয়ার সুরে বলেন, 'হাইকম্যান্ডকে আমি জানিয়ে দিয়েছি যে আমাকে যদি সিদ্ধান্ত গ্রহণের ক্ষমতা দেওয়া হয় তাহলে আগামী নির্বাচনে দলের ভাল ফল নিশ্চিত করব৷ কিন্তু তা যদি না হয় তাহলে কাউকে ছাড়ব না৷'

    যদিও সিধুর এই মন্তব্য নিয়ে কোনও প্রতিক্রিয়া দিতে চাননি হরিশ রাওয়াত৷ গত বুধবার তিনি স্পষ্ট জানিয়ে দেন, যেহেতু সিধুর পরামর্শদাতাদের দল নিযুক্ত করেনি, তাই অবিলম্বে তাঁদের সরানোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছে৷ এমন কি, সিধু নির্দেশ না মানলে তিনিই ওই পরামর্শদাতাদের সরিয়ে দেবেন বলেও সতর্ক করেন হরিশ রাওয়াত৷ দলকে অস্বস্তির মধ্যে ফেললে যে কাউকেই ছাড় দেওয়া হবে না, তাও বুঝিয়ে দেন কংগ্রেসের ওই শীর্ষ নেতা৷

    সিধুর তিন পরামর্শদাতার অন্যতম মলবিন্দর সিং মালি আজই ইস্তফা দিয়েছেন৷ ফেসবুক পোস্টে তিনি বিতর্কিত দাবি করে বলেছিলেন, ভারত এবং পাকিস্তান দু' পক্ষই কাশ্মীরকে বেআইনি ভাবে দখল করে রেখেছে৷ আরও একটি পোস্টে তালিবান সম্পর্কে তিনি লেখেন, 'আফগানিস্তানের হিন্দু এবং শিখদের নিরাপত্তা দেওয়ার দায়িত্ব এখন তালিবানদেরই৷ ওরা এবার দেশের পরিস্থিতির উন্নতি করার চেষ্টা করবে৷ আগের মতো আর এবারে হবে না৷'

    মালির এই মন্তব্যের পরেই মুখ্যমন্ত্রী অমরিন্দর সিং সিধুর পরামর্শদাতাদের আক্রমণ করে বলেন, পঞ্জাব এবং দেশের শান্তি এবং স্থায়িত্বের জন্য এঁরা বিপজ্জনক৷ সিধুর পরামর্শদাতারা যা দাবি করছেন তা পাকিস্তান এবং কাশ্মীর নিয়ে কংগ্রেস ও ভারতের অবস্থানের পরিপন্থী বলেও সরব হন তিনি৷ নিজের পরামর্শদাতাদের নিয়ন্ত্রণ করার জন্যও সিধুকে আর্জি জানান অমরিন্দর সিং৷

    Published by:Debamoy Ghosh
    First published: