• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • Purvanchal Expressway Inauguration: উদ্বোধন করতে হারকিউলিস বিমানে নামলেন মোদি, খুলে গেল পূর্বাঞ্চল এক্সপ্রেসওয়ে

Purvanchal Expressway Inauguration: উদ্বোধন করতে হারকিউলিস বিমানে নামলেন মোদি, খুলে গেল পূর্বাঞ্চল এক্সপ্রেসওয়ে

হারকিউলিস বিমান থেকে নামছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি৷ Photo-ANI

হারকিউলিস বিমান থেকে নামছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি৷ Photo-ANI

এই পূর্বাঞ্চল এক্সপ্রেসওয়ে তীর্থযাত্রীদের খুবই সাহায্য করবে। এক নজরে দেখে নেওয়া যাক পূর্বাঞ্চল এক্সপ্রেসওয়ের ১০টি বিশেষত্ব।

  • Share this:

    #লখনউ: প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির (Narendra Modi) হাতে উদ্বোধন হল ৩৪১ কিলোমিটার দীর্ঘ পূর্বাঞ্চল এক্সপ্রেসওয়ের (Purvanchal Expressway)। এই এক্সপ্রেসওয়ের মাধ্যমে যুক্ত হবে বারাণসী, অযোধ্যা, গোরখপুর এবং এলাহাবাদের মতো শহর। ৩৪০.৮ কিলোমিটার লম্বা এই এক্সপ্রেসওয়ে শুরু হবে লখনউ থেকে এবং এটি শেষ হবে গাজিপুরে। এই এক্সপ্রেসওয়ে তৈরি করতে খরচ হয়েছে প্রায় ২৩ কোটি টাকা। এই পূর্বাঞ্চল এক্সপ্রেসওয়ে তীর্থযাত্রীদের খুবই সাহায্য করবে। এক্সপ্রেসওয়েতে নামতে পারবে যুদ্ধবিমানও৷ এ দিন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিও সেনাবাহিনীর হারকিউলিস বিমানে চড়েই পূর্বাঞ্চল এক্সপ্রেসওয়ের উপরে নামেন৷ এক নজরে দেখে নেওয়া যাক পূর্বাঞ্চল এক্সপ্রেসওয়ের ১০টি বিশেষত্ব।

    ১) ৬ লেনের পূর্বাঞ্চল এক্সপ্রেসওয়েকে সম্প্রসারিত করে ভবিষ্যতে ৮ লেনের করা হতে পারে। এই এক্সপ্রেসওয়ে লখনউ শহরকে আজমগড়, গাজিপুর, ফৈজাবাদ, সুলতানপুর, আম্বেদকর নগর এবং আমেঠির সঙ্গে যুক্ত করবে।

    ২) পূর্বাঞ্চল এক্সপ্রেসওয়ে লখনউয়ের চান্দসরাই গ্রাম থেকে শুরু করে গাজিপুর জেলার হেদ্রিয়া গ্রামে গিয়ে শেষ হবে। এই পূর্বাঞ্চল এক্সপ্রেসওয়ে যমুনা এক্সপ্রেসওয়ের সাহায্যে উত্তরপ্রদেশের পূর্বের জেলাগুলিকে দেশের রাজধানী দিল্লির সঙ্গে যুক্ত করবে। এটি দেশের সব থেকে দীর্ঘ এক্সপ্রেসওয়ে হবে।

    ৩) পূর্বাঞ্চল এক্সপ্রেসওয়ের উপরে ৮টি পেট্রোল পাম্প রয়েছে। এছাড়াও এই এক্সপ্রেসওয়ের উপরে ৪টি সিএনজি স্টেশন বসানোর কাজ চলছে।

    ৪) পূর্বাঞ্চল এক্সপ্রেসওয়ের দু' পাশে ৪ লাখের বেশি গাছ লাগানো হচ্ছে। এছাড়াও এই এক্সপ্রেসওয়ের উপরে ইন্টারচেঞ্জ,  ফ্লাইওভার, বড় পুল এবং ছোট পুলের ব্যবস্থা করা হয়েছে। এই এক্সপ্রেসওয়েতে আধুনিক আন্ডারপাস তৈরি করা হয়েছে।

    ৫) পূর্বাঞ্চল এক্সপ্রেসওয়েতে দুর্ঘটনা এবং আপৎকালীন পরিস্থিতির জন্য অ্যাম্বুল্যান্সের ব্যবস্থাও করা হবে।

    ৬) পূর্বাঞ্চল এক্সপ্রেসওয়েতে দুর্ঘটনা এড়ানোর জন্য সড়ক সুরক্ষার উপরে জোর দেওয়া হয়েছে। এই এক্সপ্রেসওয়েতে দু'টি লেনের মাঝখানে মেটাল বিম বেরিয়ার এবং সতর্কতামূলক বোর্ড লাগানো হয়েছে।

    ৭) পূর্বাঞ্চল এক্সপ্রেসওয়েতে উত্তরপ্রদেশ সরকারের এক্সপ্রেসওয়ে নিগমের তরফে যাত্রীদের সুবিধার জন্য বিশাল সুরক্ষার ব্যবস্থা করা হয়েছে। এই এক্সপ্রেসওয়েতে পশুদের মৃত্যু আটকানোর জন্য অ্যাডভান্স ট্র্যাফিক ম্যানেজমেন্ট সিস্টেমের ব্যবস্থা করা হবে।

    ৮) করোনা মহামারীর মধ্যেই সরকার ২০২১-এর অক্টোবর মাসের মধ্যে পূর্বাঞ্চল এক্সপ্রেসওয়ের কাজ শেষ করার লক্ষ্যমাত্রা পূরণ করতে সফল হয়েছে।

    ৯) পূর্বাঞ্চল এক্সপ্রেসওয়ের একটি লেন যাতে ভারতীয় সেনা ব্যবহার করতে পারে তার জন্য কাজ চলছে। এই এক্সপ্রেসওয়েতে আপৎকালীন পরিস্থিতিতে ভারতীয় বায়ুসেনার বিমান নামানোর জন্য আপৎকালীন রানওয়ে তৈরি করা হবে।

    ১০) উত্তরপ্রদেশ সরকার মনে করছে যে এই পূর্বাঞ্চল এক্সপ্রেসওয়ে খোলার পরে প্রতি দিন এই এক্সপ্রেসওয়ে দিয়ে প্রায় ১৫,০০০ থেকে ২০,০০০ হাজার গাড়ি চলাচল করতে পারে।

    Published by:Debamoy Ghosh
    First published: