হোম /খবর /দেশ /
হিন্দু পরিবারের স্নেহে পালিত আট বছর, আধার কার্ডই ঘরে ফেরাল মুসলিম কিশোরকে...

Nagpur| Aadhaar card| হিন্দু পরিবারের স্নেহে পালিত আট বছর, আধার কার্ডই ঘরে ফেরাল মুসলিম কিশোরকে...

দুই পরিবারের সঙ্গে মহম্মদ আমির।

দুই পরিবারের সঙ্গে মহম্মদ আমির।

Nagpur | Aadhaar Card | অবশেষে আধার কার্ডের সৌজন্যে আট বছর পরে সেই অসাধ্য সাধন হল।

  • Last Updated :
  • Share this:
#নাগপুর: আট বছর আগে পরিবার হারিয়েছিল সে। মুসলিম পরিবারের ছেলে মহম্মদ আমির বড় হয়েছিল এক হিন্দু পরিবারে। নাগপুরের বাসিন্দা সমর্থ দামলের পরিবার গত সাত বছর ধরেই চেষ্টা করে গিয়েছে মহাম্মদ আমীরকে পরিবারকে খুঁজে বের করতে। অবশেষে আধার কার্ডের সৌজন্যে আট বছর পরে সেই অসাধ্য সাধন হল।
আজ থেকে আট বছর আগে বিশেষ চাহিদাসম্পন্ন শিশু আমিরের নিজের বয়স ছিল আট। বেড়ে ওঠার শহর জব্বলপুর থেকে সে দিনে দুপুরে হারিয়ে যায়। অসহায় অবস্থায় নাগপুরে এসে পৌঁছেয় সে। সমর্থ দামলের পরিবার এর কিছুদিন পরে তাকে আইনি ভাবে দত্তক নেয়। এরপর সাত বছর সে এই পরিবারে বেড়ে উঠেছে ভালোবাসা পেয়েছে। দামলেরা আমিরের কোনও চাহিদাই অপূর্ণ রাখেনি।
ইতিমধ্যেই হাতে-পায়ে বড় হতে শুরু করে আমির। দশম শ্রেণির বোর্ড পরীক্ষার জন্য দরকার আধার কার্ড। সেই আধার কার্ড বানাতে গিয়ে দেখা যায় ইতিমধ্যেই ওই একই নামে জব্বলপুরের এক পরিবার একটি আধার কার্ড বানিয়েছে। সেই সূত্র ধরেই দামলে পরিবার এই কিশোরের আসল পরিবারকে খুঁজে বার করে।
এদিকে আমিরের আসল বাবা আইয়ুব খান ছেলেকে ফিরে পাওয়ার আশা প্রায় ছেড়েই দিয়েছিলেন। এমন সুখবর তিনি পেতে চলেছেন তা স্বপ্নেও তিনি ভাবেননি। রীতিমতো পাকাপাকি কাগজ-কলমের কাজ সেরে আমিরকে আবার পরিবারের হাতে তুলে দেয় দামলে পরিবার। স্বাভাবিক ভাবেই আইয়ুব খানের পরিবারে আজ খুশির হাওয়া। সন্তানকে বাবা-মার কাছে তুলে দিয়ে খুশি দামলে পরিবারও। তবু কোথাও একটা চোরা কান্না লুকিয়ে আছে তাঁদের মনে। আমিরকে তো তাঁরা সন্তানস্নেহে বড় করেছিলেন।
Published by:Arka Deb
First published:

Tags: Aadhaar card