নাভা জেল হামলা: ব্যারিকেড ভাঙায় গাড়ি লক্ষ্য করে পুলিশের গুলি, মৃত ১ মহিলা

নাভা জেল হামলা: ব্যারিকেড ভাঙায় গাড়ি লক্ষ্য করে পুলিশের গুলি, মৃত ১ মহিলা

ব্যারিকেড থাকা সত্ত্বেও গাড়ির চালক পালানোর চেষ্টা করেন ৷ তাদের আটকাতে গুলি চালায় পুলিশ ৷ গুলির আঘাতে ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয়েছে মহিলার ৷

ব্যারিকেড থাকা সত্ত্বেও গাড়ির চালক পালানোর চেষ্টা করেন ৷ তাদের আটকাতে গুলি চালায় পুলিশ ৷ গুলির আঘাতে ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয়েছে মহিলার ৷

  • Pradesh18
  • Last Updated :
  • Share this:

    #চণ্ডীগড়:গাড়িতে করে হাইসিকিউরিটি নাভা সেন্ট্রাল জেল থেকে চম্পট দেয় ৬ জঙ্গি ৷ এর ঠিক এক ঘণ্টা পর পাটিয়ালা-গুলহা রোডে একটি সিকিউরিটি ব্যারিকেড ভেঙে দ্রুত গতিতে বেড়িয়ে যায় একটি গাড়ি ৷ ব্যারিকেড ভেঙে বেড়িয়ে যাওয়ায় সন্দেহ হয় পুলিশের ৷ কারণ এর কিছুক্ষণ আগেই জেল ভেঙে পালিয়েছিল জঙ্গিরা ৷ তাই গাড়ি লক্ষ্য করে গুলি চালায় পুলিশ ৷ পুলিশের গুলিতে মৃত্যু হয়েছে এক মহিলার ৷

    এক পুলিশ আধিকারিক জানিয়েছেন, ব্যারিকেড থাকা সত্ত্বেও গাড়ির চালক পালানোর চেষ্টা করেন ৷ তাদের আটকাতে গুলি চালায় পুলিশ ৷ গুলির আঘাতে ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয়েছে মহিলার ৷

    তবে পুলিশ জানিয়েছে, ওই মহিলা গাড়িতে ছিল না কিনা তা এখনও স্পষ্ট নয় ৷

    রবিবার পঞ্জাবের হাইসিকিউরিটি নাভা সেন্ট্রাল জেলে ঢুকে ৬ জঙ্গিকে নিয়ে পালাল অন্য জঙ্গিরা। খালিস্থান লিবারেশন প্রধান হরমিন্দর সিং ছাড়াও এর মধ্যে রয়েছে কম্যান্ডার ইন চিফ অমরদীপ ডোডা। নিখুঁত চিত্রনাট্য মেনেই চলে অপারেশন। পুলিশের পোষাকে জেলে ঢোকে জঙ্গিরা। বড় অফিসার হিসাবে এই দুই জঙ্গীকে হাতকড়া পরিয়ে গেট পের হয় জঙ্গিরা।

    জেলে ঢুকে পুলিশকে বেকুব বানিয়ে নিখুঁত অপারেশন। পঞ্জাবের হাইসিকিউরিটি নাভা সেন্ট্রাল জেলে ঢুকে নির্বিচারে গুলি জঙ্গিদের। স্পেশাল সেল থেকে ৬ জঙ্গিকে বের করে বিনা বাধায় উধাও হয় অন্য ৫ জঙ্গি। এই ৬ জনই পঞ্জাব পুলিশের মোস্ট ওয়ান্টেড ম্যান।

    হরবিন্দর সিং মিন্টো, প্রধান,খালিস্থান লিবেরেশন ফোর্স অমরদীপ ডোডা, কম্যান্ডার ইন চিফ নীতা দোয়েল, আন্তর্জাতিক শাখার দায়িত্বপ্রাপ্ত কাশ্মীর গালওয়াদি , অস্ত্র সরবরাহ সেলের প্রধান ভিকি ভোন্ডা, বিস্ফোরক বিশেষজ্ঞ

    ৫০ মিনিটের অপারেশন। হাই-সিকিউরিটি জেলে একবারও বাধার মুখে পড়তে হয়নি জঙ্গিদের। শুধু গুলি চালিয়েই স্পেশ্যাল সেলের চাবি আদায় করে নেয় জঙ্গিরা।

    ১. সকাল ৮.৪০ পুলিশের পোষাকে জেলে ঢুকল জঙ্গিরা

    ২. সকাল ৮.৪৫ দুজনকে হাতকড়া পরিয়ে সেলের চাবি দিতে নির্দেশ সকাল ৯.২০ জেলে ঢুকল জঙ্গিদের গাড়ি

    ৩. সকাল ৯.৩০ অফিসে ঢুকে  নির্বিচারে গুলি

    ৪. সকাল ৯. ৪০ পুলিশকর্মীর পেটে ছুরি ঢুকিয়ে দিল জঙ্গিরা

    ৫. সকাল ৯. ৪৫ স্পেশাল সেলে ঢুকে ছাড়িয়ে নেওয়া হল হরমিন্দর সহ ৬ জঙ্গিকে

    ৬. সকাল ৯.৫৫ পুলিশের সঙ্গে গুলির লড়াই

    ৭. সকাল ১০.১০ পুলিশের চোখ এড়িয়ে পিছনের পাঁচিল দিয়ে পালাল জঙ্গিরা

    নজিরবিহীন কর্তব্যে গাফিলতির অভিযোগে চাকরি যাচ্ছে নাভা সেন্ট্রাল জেলের সুপার ও ডেপুটি সুপারের। কারণ দর্শানোর নির্দেশ কারা দপ্তরের শীর্ষকর্তাকে।

    ১০টি বিস্ফোরণ সহ ২২টি মামলা ঝুলছে হরমিন্দরের বিরুদ্ধে। বাকিদের বিরুদ্ধেও নাশকতা, অস্ত্র আইন ও দেশদ্রোহিতার মামলা ঝুলছে। পঞ্জাবে ভোটের আগে এই ঘটনায় সিঁদুরে মেঘ দেখছে প্রশাসন। প্রবল চাপে অমরিন্দর সিং সরকার।

    First published: