• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • MUSLIM COP IN UTTAR PRADESHS BAGHPAT SUSPENDED FOR KEEPING A BEARD WITHOUT PERMISSION UB

উত্তরপ্রদেশে মুসলিম পুলিশকর্মীর দাড়ি রাখা নিয়ে অশান্তি, সাসপেন্ড করল প্রশাসন

ইন্তেসার দাবি করেছেন তিনি বারবার দাড়ি রাখার অনুমতি চেয়ে চিঠি দিয়েছিলেন। কিন্তু শেষ পর্যন্ত কোনো উত্তর পাননি।

ইন্তেসার দাবি করেছেন তিনি বারবার দাড়ি রাখার অনুমতি চেয়ে চিঠি দিয়েছিলেন। কিন্তু শেষ পর্যন্ত কোনো উত্তর পাননি।

  • Share this:

    #‌বাঘপত:‌ উত্তরপ্রদেশে এক সাব-ইন্সপেক্টরকে সাসপেন্ড করা হল দাড়ি রাখার অপরাধে। তিনি যে দাড়ি রাখছেন সে বিষয়ে প্রয়োজনীয় অনুমতি তিনি নেননি। সেই অপরাধে তাঁকে সাসপেন্ড করে পুলিশ লাইনে পাঠিয়ে দিল প্রশাসন।

    পুলিশকর্মী ইন্তেসার আলি এর আগে তিনবার সতর্কবার্তা পেয়েছিলেন পুলিশের উপরমহল থেকে। তাঁকে বলা হয়েছিল যদি দাড়ি রাখতে হয় তাহলে প্রয়োজনীয় অনুমতি নিতে হবে। কিন্তু তিনি সেই অনুমতির ধার ধারেননি। বাঘপত–এর এসপি অভিষেক সিং জানিয়েছেন যে, কাউকে দাড়ি রাখতে গেলে প্রয়োজনীয় অনুমতি নেওয়া বাধ্যতামূলক। ইন্তেসার আলিকে বারবার সতর্কবার্তা দিয়ে বলা হয়েছিল তিনি যেন দাড়ি রাখার প্রয়োজনীয় অনুমতি পুলিশের উপরমহল থেকে নিয়ে নেন। কিন্তু সেই অনুমতি না নিয়েই তিনি দাড়ি রাখছিলেন। এই নিয়ে কয়েকদিন আগে একটি শোকজ নোটিশ ধরানো হয়েছিল তাঁকে। তারপরেই তাঁকে বেনিয়মের অভিযোগ পুলিশ থেকে সাসপেন্ড করা হল এবং তার বিরুদ্ধে তদন্তের নির্দেশ দেয়া হল।

    ইন্তেসার দাবি করেছেন তিনি বারবার দাড়ি রাখার অনুমতি চেয়ে চিঠি দিয়েছিলেন। কিন্তু শেষ পর্যন্ত কোনো উত্তর পাননি। পুলিশের নিয়ম অনুসারে শুধুমাত্র দাড়ি রাখতে পারেন শিখ মানুষরা। আর অন্য ধর্মের মানুষ যাঁরা পুলিশে রয়েছেন, তাঁদের দাড়ি রাখতে গেলে উপর মহলের অনুমতি নিতে হয়। কিছু মুসলিম সংগঠন এই ঘটনার বিরুদ্ধে আওয়াজ তুলেছে। মৌলানা কারিমুল্লা জানিয়েছেন, শিখদের যদি অনুমতি দেওয়া হয়ে থাকে তাহলে মুসলিমদের কেন অনুমতি দেওয়া হবে না।

    Published by:Uddalak Bhattacharya
    First published: