• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • আমি থাপ্পড় মারব বলিনি, মানুষ মোদিকে ভোটে হারাবে, সেটাই হবে গণতন্ত্রের থাপ্পড়: মমতা

আমি থাপ্পড় মারব বলিনি, মানুষ মোদিকে ভোটে হারাবে, সেটাই হবে গণতন্ত্রের থাপ্পড়: মমতা

  • Share this:

    #পুরুলিয়া: ‘থাপ্পড়’ বিতর্কে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের জবাব ৷ পুরুলিয়ার জনসভা মঞ্চ থেকে তৃণমূল সুপ্রিমো স্পষ্ট করলেন মোদি উপর হাত তোলার কথা তিনি কখনই বলেননি ৷ তিনি বলতে চেয়েছিলেন মানুষের জবাবের কথা ৷ ভোটে হারার পর গণতন্ত্রের থাপ্পড়ের কথা বলতে চেয়েছিলেন তিনি ৷

    মঙ্গলবার ভোট প্রচারে পুরুলিয়ার জনসভা থেকে মোদী এবং অমিত শাহকে নিশানা করে মমতা বলেন, 'যখন আমার নামে, আমার কাজের নামে কেউ কেউ মিথ্যা কথা বলে, ইচ্ছে করে ঠাটিয়ে গণতন্ত্রের থাপ্পড় দিই।' সেই মন্তব্যের পরই ওঠে বিতর্ক ও সমালোচনার ঝড় ৷ ট্যুইট করে তৃণমূল সুপ্রিমোর প্রবল সমালোচনা করেন কেন্দ্রীয় বিদেশমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ ৷

    বৃহস্পতিবার পুরুলিয়ার নির্বাচনী জনসভার মঞ্চ থেকে তৃণমূল নেত্রী এই থাপ্পড় বিতর্কের জবাবে বলেন, ‘মোদিকে থাপ্পড় মারব আমি একবারও বলিনি ৷ আমি কেন কাউকে থাপ্পড় মারব? মোদিকে গণতন্ত্রের থাপ্পড় মারব বলেছি ৷ অর্থাৎ মানুষ মোদিকে ভোটে হারাবে৷ সেটাই হবে গণতন্ত্রের থাপ্পড় ৷’ থাপ্পড় ইস্যুতে ট্যুইটারে সুষমা স্বরাজের বক্তব্য, ভবিষ্যতের জন্য এই ধরনের শব্দচয়ন ঠিক নয় ৷ এই দুই নেতা-নেত্রীকেই প্রশাসনিক কাজে একে অপরকে সহায়তা করতে হয়৷ সুষমার ট্যুইট, ‘আপনি একটি রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী৷ মোদিজি দেশের প্রধানমন্ত্রী৷ কাল আপনাকে ওঁর সঙ্গে কথা বলতেই হবে৷ এই কারণেই উর্দু কবি বসির বদরের একটি কবিতা স্মরণ করেই বলি, একদিন যখন আমরা আবার বন্ধু হব, তখন লজ্জিত হবেন না৷’

    তবে এই বিতর্কে মমতার সমর্থনেও মত দিয়েছেন অনেকেই ৷ যদিও মমতাকে যতই কেন্দ্র একযোগে সমালোচনার মুখে ফেলুক, বিরোধীরা সবাই তৃণমূলনেত্রীর পাশে দাঁড়িয়েছেন৷ আরজেডি নেতা তেজস্বী যাদব ট্যুইট করে মমতাকে সমর্থন করে লিখেছেন, ‘গণতন্ত্রের থাপ্পড় দরকার নরেন্দ্র মোদির৷ কারণ উনি তৃণমূলকে তোলাবাজদের দল বলে গালাগালি দিয়েছেন৷’

    First published: