প্রচার বলতে ছোট-বড় সভা, অসম আছে অসমের মত

প্রচার বলতে ছোট-বড় সভা, অসম আছে অসমের মত
  • Share this:

#গুয়াহাটি: রাজ্য জুড়ে দেওয়াল দখলের লড়াই। দেওয়াল লিখনে কে কত এগিয়ে তা-ই যেন বুঝিয়ে দেয় ব্যালটে কার প্রভাব কতটা। পাশের রাজ্য অসমে কিন্তু ছবিটা একেবারে অন্যরকম। প্রার্থীরা বলছেন, লড়াই এখানে দেওয়াল দখলের নয়, মানুষের মন দখলের।

ব্রহ্মপুত্রের পাড়ে নমনী অসমের ধুবড়ি শহর। প্রতিদিন নদ পেরিয়ে যাতায়াত। সকাল ছ'টা থেকে সন্ধ্যে ৬টার মধ্যেই সেরে ফেলতে হয় সব কাজ। ধুবড়ির রোজনামচাও তাই ১২ঘণ্টার। মানুষের জীবন এখানে চলে লাহে লাহে। অর্থাৎ ধীরে সুস্থে। ভোটের বাজারেও সেই ছবিতে বদল নেই মোটেই।

ভোটের উত্তাপ এখানে নেই। রাস্তা জুড়ে নেই নানা দলের পতাকা। দেওয়াল লিখন? তারও কোনও চিহ্ন নেই। এরাজ্যের কোনও নেতা ভোট বাজারে এমন সারি সারি ফাঁকা দেওয়াল দেখে হাপিত্যেশ করতেই পারেন। আহা, এমন একটা ফাঁকা দেওয়াল যদি পাওয়া যেত...

ধুবড়িতে ভোট তো আছে। প্রচার কই? বিজেপি জোট প্রার্থী, অসম গণ পরিষদের জাভেদ ইসলাম একসময় ক্রিকেটার ছিলেন। সেই খ্যাতিতেই ভরসা রাখছেন ভোটের ময়দানেও। মানুষের মন পেতেই বেশি আগ্রহী তিনি।

রাজ্যের ১৪ আসনের ৯টিতে প্রার্থী দিয়েছে তৃণমূল কংগ্রেসও। এরাজ্যে দেওয়ালে দেওয়ালে জোড়াফুলের ছবি। অসমে অবশ্য তাঁদের প্রচারে সে সবের বালাই নয়। প্রার্থীরা বলছেন, যে শহর যা চায়। প্রচার আছে, তবে ছোট ছোট সভা করে। যাতে মানুষের কাছাকাছি পৌঁছন যায়।

১১ এপ্রিল রাজ্যের দুই কেন্দ্র কোচবিহার ও আলিপুরদুয়ারে ভোট। দেওয়াল লিখন, প্রচার ঝড়, শেষ কয়েকদিনের প্রস্তুতি। ভোটের পারদ ক্রমশই বাড়ছে। কোচবিহারের তুফানগঞ্জ পেরোলেই অসম। কিছুদিন আগেই যে অসম উত্তপ্ত হয়ে উঠেছিল এনআরসি ইস্যুতে, সেই রাজ্যে ভোটযুদ্ধের প্রচার চলছে একেবারে চুপচাপ।

First published: 10:58:40 AM Apr 08, 2019
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर