‘কংগ্রেসের কাছে ওরা মুসলিম, আমাদের কাছে সবাই ভারতীয়’: নরেন্দ্র মোদি

নেহরু অস্ত্রে কংগ্রেসকে ঘায়েল মোদির৷ গান্ধির পর এবার নেহরু অস্ত্র প্রধানমন্ত্রীর ৷

নেহরু অস্ত্রে কংগ্রেসকে ঘায়েল মোদির৷ গান্ধির পর এবার নেহরু অস্ত্র প্রধানমন্ত্রীর ৷

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি:  CAA-র বিরুদ্ধে একজোটে আক্রমণে বিরোধীরা। মুসলিম বলে দাগিয়ে বিভাজন করতে চাইছে কংগ্রেস অভিযোগ প্রধানমন্ত্রীর ৷ মোকাবিলায় আগেই মহাত্মা গান্ধিকে হাতিয়ার করেছে কংগ্রেস। কিন্তু বৃহস্পতিবার চমকে দিলেন প্রধানমন্ত্রী। সিএএ-র সমর্থনে তিনি টেনে আনলেন জওহরলাল নেহরুর কথা। নেহরু অস্ত্রে কংগ্রেসকে ঘায়েল মোদির৷ গান্ধির পর এবার নেহরু অস্ত্র প্রধানমন্ত্রীর ৷

    লোকসভায় রাষ্ট্রপতির বক্তব্যের জবাবি ভাষণ দিতে উঠলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি । তাঁর ভাষণ শুরু হতেই বিরোধী কংগ্রেস নেতাদের বেঞ্চ থেকে শুরু হয় হাউলিং ৷ দলনেতা অধীররঞ্জন চৌধুরী এবং আরও কয়েকজন নেতা ‘মহাত্মা গান্ধি জিন্দাবাদ’ বলে চেঁচাতে শুরু করেন ৷ বাধা পেয়ে থেমে যান প্রধানমন্ত্রী ৷ অধীর সহ কংগ্রেস নেতাদের উদ্দেশ্য টিপ্পনি সুরে মোদি বলেন, ‘ব্যাস, এইটুকুতেই হয়ে গেল ৷’ জবাবে অধীর বলেন, ‘এটা তো শুধু ট্রেলার ৷’ কথা শেষ হওয়ার আগেই নরেন্দ্র মোদির সপাট উত্তর, ‘গান্ধিজী আপনাদের জন্য ট্রেলার হতে পারেন কিন্তু আমাদের জন্য মহাত্মা গান্ধিই জীবন ৷ তাঁকেই আমরা অনুসরণ করি ৷’ প্রধানমন্ত্রীর এমন কটাক্ষে থতমত দলনেতা অধীর জবাব জুটিয়ে ওঠার আগেই নিজের জবাবি ভাষণ ফের শুরু করে দেন প্রধানমন্ত্রী ৷ মহাত্মা গান্ধি মানেই কংগ্রেস। অনেক আগেই মিথটা ভেঙে দিয়েছেন নরেন্দ্র মোদিরা। সিএএ-র সমর্থনেও টেনে এনেছেন গান্ধিজিকে। বাজেট অধিবেশনের সূচনায় রাষ্ট্রপতিও বলেন, সিএএ আসলে গান্ধিজির স্বপ্নপূরণ। বৃহস্পতিবার লোকসভায় প্রধানমন্ত্রীর হাতে নতুন অস্ত্র। মোদি বলেন, ‘নেহরু ওদের, তিনি আর লিয়াকত চুক্তি করেছেন ৷ তাতে পাকিস্তানে সংখ্যালঘুদের কথা বলা হয়েছে ৷ পাকিস্তানে সংখ্যালঘুদের নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করা হয় ৷ নেহরু দূরদর্শী ছিলেন, তাই চুক্তিতে সংখ্যালঘুদের নিরাপত্তাকে প্রাধান্য দেন ৷ তার দেখানো পথেই CAA ৷’ একদম নিজস্ব ঢঙে তাড়িয়ে তাড়িয়ে আক্রমণের সুযোগটা ছাড়লেন না নরেন্দ্র মোদি। বলেন, ‘নেহরু তো পণ্ডিত ছিলেন ৷ তিনি কেন সবার কথা না বলে সংখ্যালঘুদের কথা বলেছিলেন ৷’ মোদি ভাষণে উঠে আসে কাশ্মীর ৷ সেখানেও নিশানায় কংগ্রেস ৷ কাশ্মীরে মৌলিক অধিকার ভঙ্গ হচ্ছে, বিরোধীদের এমন অভিযোগের উত্তরে বলেন, জরুরি অবস্থায় সংবিধান কোথায় ছিল ৷ সংবিধানে বেশি বদল এনেছে কংগ্রেস ৷ এখন তাদের গলাতে সংবিদান বাঁচাও মানায় না ৷ কাশ্মীরের পরিচয় ছিল বোমা-বন্দুক ৷ কাশ্মীরের পরিচয় খুন হয়েছিল ৷ আমরা কাশ্মীরের মন ছুঁতে চেয়েছি ৷ ভারতের মুসলিমদের উসকানোর চেষ্টা করছে পাকিস্তান ৷৩৭০-এর বিরোধিতা করছে ওমর ও ফারুক ৷’ একইসঙ্গে অর্থনৈতিক উন্নয়নের দাবি মোদির ৷ তিনি বলেন, ‘ফসল বিমা যোজনায় কৃষকদের সুবিধা ৷ বাজেটে কৃষকদের বরাদ্দ বেড়েছে ৷ আমাদের জন্যই মূল্যবৃদ্ধি নিয়ন্ত্রণে ৷ বেকারদের আমিই কাজ দেব ৷ বিনিয়োগকারীদের ভরসা বেড়েছে ৷ FDI বেড়ে ২৬০০ কোটি ডলার ৷ ১০০ লক্ষ কোটির অর্থনীতি লক্ষ্য ৷ একুশ শতকে আধুনিক পরিকাঠামো ৷ রাস্তা-বিমানবন্দর-বন্দরের উন্নয়ন করেছে বিজেপি সরকার ৷’ প্রধানমন্ত্রীর আক্রমণে যে তারা খানিকটা হলেও তা স্পষ্ট কংগ্রেস নেতাদের কথায়। নেহেরু প্রসঙ্গে শশী থারুর বলেন, ‘ইতিহাস বিকৃত করছেন মোদি ৷ নির্যাতিতদের নাগরিকত্বের বিরোধী নই ৷ ধর্মীয় নিপীড়িতদের নাগরিকত্ব চাই ৷ CAA-তে শুধু কয়েকটি ধর্মের কথা রয়েছে ৷’ মোদিকে আক্রমণ রাহুলের ৷ ‘নজর ঘোরাচ্ছেন মোদি ৷ দেশে বড় সমস্যা বেকারত্ব ৷ ২ কোটি বেকারের চাকরি কই ৷ বেকারত্ব ঘোচাতে মোদি কী করছেন ৷ এই প্রশ্নের জবাব নেই মোদির ৷ এদিন মোদি টানা বলে গেলেন, আযোধ্যায় রাম জন্মভূমি, ৩৭০ ধারা রদ, তিন তালাক বাতিল, কর্তারপুর করিডর, সরকারের নানা সাফল্যের কথা। বাড়তি শক্তি নিয়ে ফের সরকার গড়ার পর আরও ধারাল নরেন্দ্র মোদি। বৃহস্পতিবারের লোকসভা তার সাক্ষী থাকল।
    Published by:Elina Datta
    First published: