corona virus btn
corona virus btn
Loading

৯.৫৫ সেকেন্ডে ১০০ মিটার! বোল্টকে চ্যালেঞ্জ জানাতে পারেন এই কর্ণাটকের যুবক

৯.৫৫ সেকেন্ডে ১০০ মিটার! বোল্টকে চ্যালেঞ্জ জানাতে পারেন এই কর্ণাটকের যুবক
Srinivasa Gowda (28) from Moodabidri in Dakshina Kannada district. PHOTO : NEWS18

১৪২.৫০ মিটার দৌড় শেষ মাত্র ১৩.৬২ সেকেন্ডে৷ যা থেকে গড় করলে দাঁড়ায় ১০০ মিটার মাত্র ৯.৫৫ সেকেন্ডে, মানে উসেইন বোল্টের রেকর্ডও ভেঙে দিয়েছে এই দৌড়৷

  • Share this:

#ম্যাঙ্গালোর: এই দৌড় দেখলে উসেইন বোল্টের চক্ষু চড়ক গাছ হতে বাধ্য৷ ১৪২.৫০ মিটার দৌড় শেষ মাত্র ১৩.৬২ সেকেন্ডে৷ যা থেকে গড় করলে দাঁড়ায় ১০০ মিটার মাত্র ৯.৫৫ সেকেন্ডে, মানে উসেইন বোল্টের রেকর্ডও ভেঙে দিয়েছে এই দৌড়৷ বোল্টের ১০০ মিটার দৌড়ের বিশ্ব রেকর্ড রয়েছে ৯.৫৮ সেকেন্ডে৷ আর এই ব্যপারটা সামনে আসতেই স্বাভাবিকভাবে হইচই পড়ে গিয়েছে ২৮ বছরের যুবক শ্রীনিবাস গৌড়াকে নিয়ে৷

কর্ণাটকের ম্যাঙ্গালোর ও উদুপি এলাকায় কাম্বালা বলে একরকমের মোষের দৌড় আয়োজন করা হয়৷ সেখানে মোষের গায়ে দড়ি বেঁধে তার মালিকরা একটা কাদা ভরা রাস্তায় দৌড় প্রতিযোগিতায় অংশ নেন৷ দীর্ঘদিনের ঐতিহ্যবাহী এই প্রতিযোগিতা প্রতি বছরের মতো এবারেও আয়োজন করা হয়েছিল৷ সেখানেই নিজের পোষ্যকে নিয়ে অংশ নিয়েছিলেন শ্রীনিবাস৷ আর সবাইকে অবাক করে দিয়ে ১৪২.৫০ মিটার দৌড় মাত্র ১৩.৬২ সেকেন্ডে শেষ করেন তিনি৷ সেই ভিডিও মুহূর্তে ছড়িয়ে পড়ে সোশ্যাল মিডিয়ায়৷ হিসাব করে দেখা যায়, বোল্টের ৩০ বছরের রেকর্ড অজান্তেই ভেঙে দিয়েছেন এই যুবক৷ যদিও কেউ কেউ বলছেন, এই রেকর্ডের সঙ্গে বোল্টের রেকর্ডের তুলনা চলে না৷ কারণ, এখানে মোষের শক্তিতে দৌড়তে বাধ্য হয়েছে শ্রীনিবাস৷ অন্যদিকে বোল্ট তো একাই দৌড়তেন৷ পাল্টা যুক্তিও দিয়ে বলা হয়েছে, বোল্ট দৌড়েছেন পরিস্কার ট্র্যাকে, আর শ্রীনিবাস কাদা ভর্তি মাঠে৷ এত গতি তো শ্রীনিবাসে কৃতীত্ব৷

একরাতের মধ্যে এমন সেলেব্রিটি হয়ে ওঠার পর শ্রীনিবাস জানিয়েছেন, ‘আমি ভাবতেই পারিনি এমন একটা ঘটনা ঘটবে৷ খুব ভাল লাগছে আমার৷ আমার পালিত দুই মোষের কৃতিত্ব এক্ষেত্রে সবচেয়ে বেশি৷ ওরা ভাল দৌড়েছে৷ আমি শুধু ওদের পিছু পিছু ছুটেছি৷’ কেউ কেউ শ্রীনিবাসের মধ্যে বিপুল সম্ভবনা দেখতে পাচ্ছেন৷ তাই সরকারি উদ্যোগে তাঁকে প্রশিক্ষণ দেওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন তাঁরা৷

Published by: Uddalak Bhattacharya
First published: February 14, 2020, 5:38 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर