মাটি খুঁড়তেই মোঘল আমলের গুপ্তধন-রাশি রাশি মোহর! চোখ কপালে ঝাড়খণ্ডের গরিব চাষির

মাটি খুঁড়তেই মোঘল আমলের গুপ্তধন-রাশি রাশি মোহর! চোখ কপালে ঝাড়খণ্ডের গরিব চাষির

representative image

ধোনির রাজ্যে যখের ধন! মাটি খুঁড়তেই রাশি রাশি মুদ্রা

  • Share this:

    #ঝাড়খণ্ড: মাটি খুঁড়তেই চোখ কপালে, এতো যখের ধন! রাশি রাশি মুদ্রা! ঝাড়খণ্ডের পালামৌয়ের পাংকি ব্লকে মিলল গুপ্তধনের হদিশ৷ মাটির নীচে মোঘল আমলের সম্পত্তি৷ পাওয়া গেল বিপুল পরিমাণে রুপোর মুদ্রা। জমি চাষের উপযোগী করতে ওই এলাকায় মাটি খোঁড়ার কাজ চলছিল। সেই সময় জেসিবি দিয়ে মাটি খুঁড়তেই মেলে একটি ধাতুর ঘড়া, ঘড়ার গায়ে ছিল প্রাচীন কালের নকশা ।

    জানা গিয়েছে, চলছিল মাটি খোঁড়ার কাজ, সেই সময়েই বেরিয়ে আসে ঘড়াটি। দিনের শেষে সবাই যে যার মতো বাড়ি ফিরে যান। মাটির মধ্যেই পড়ে ছিল ঘড়া, কেউ নজর করেননি। রাতে বৃষ্টি হওয়াতে জলে ঘড়াটি ধুয়ে যায়। পরের দিন স্থানীয় বাসিন্দা, পেশায় চাষি জহির মিঞাঁর চোখে পড়ে সেই ঘড়া। তিনি সেটি বাড়িতে নিয়ে আসেন। ঘড়া উপুড় করতেই তো বুক দুরুদুরু! ঝনঝন করে পড়াতে থাকে রুপোর কয়েন। পরিবারের সদস্যরা মিলে তা গুনতে শুরু করেন। জানা যায়, এরপরই মুদ্রার ভাগ বাটোয়ারা নিয়ে ভাইয়েদের মধ্যে শুরু হয় ঝামেলা৷ শেষমেশ তা গড়ায় থানা পর্যন্ত।

    জহির মিঞাঁ ১০২টি মোহর পুলিশকে ফেরত দিয়েছেন। অনুমান করা হচ্ছে, ঘড়ায় আরও মোহর ছিল। বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন, মোহরগুলি মোঘল আমলের৷ ভীষণ গুরুত্বপূর্ণ৷

    Published by:Rukmini Mazumder
    First published: