দেশ

corona virus btn
corona virus btn
Loading

দেশের গণতন্ত্রকে ধ্বংস করছে মোদি সরকার, অভিযোগ সনিয়ার, পাল্টা জবাব নাড্ডার

দেশের গণতন্ত্রকে ধ্বংস করছে মোদি সরকার, অভিযোগ সনিয়ার, পাল্টা জবাব নাড্ডার
সনিয়া গান্ধিকে জবাব দিলেন জে পি নাড্ডা৷ Photo-File

দেশের গণতন্ত্রকে ধ্বংস করে দিচ্ছে মোদি সরকার৷ সর্বভারতীয় একটি সংবাদমাধ্যমে নিজের কলমে এমনই অভিযোগ তুলেছিলেন সনিয়া গান্ধি৷

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: দেশের গণতন্ত্রকে ধ্বংস করে দিচ্ছে মোদি সরকার৷ প্রতিশোধ এবং নিপীড়ণের মাধ্যমে মানুষের বাকস্বাধীনতার অধিকারকে খর্ব করা হচ্ছে৷ সর্বভারতীয় একটি সংবাদমাধ্যমে নিজের কলমে এমনই অভিযোগ তুলেছিলেন সনিয়া গান্ধি৷ তার পাল্টা জবাব দিলেন বিজেপি সভাপতি জে পি নাড্ডা৷ বিজেপি সভাপতির পাল্টা দাবি, কংগ্রেস যত প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে ঘৃণা ছড়াবে এবং মিথ্যে বলবে, ততই নরেন্দ্র মোদির প্রতি মানুষের ভালবাসা বাড়বে৷ সনিয়া অভিযোগ তোলেন, গণতন্ত্রের প্রতিটি স্তম্ভকেই দুর্বল করে দিচ্ছে বর্তমান কেন্দ্রীয় সরকার৷ মতবিরোধ প্রকাশ করলেই সন্ত্রাসবাদী বা দেশদ্রোহী তকমা সেঁটে দেওয়া হচ্ছে৷ কংগ্রেস সভানেত্রী অভিযোগ তোলেন, মূল সমস্যাগুলি থেকে মানুষের নজর ঘোরাতে সর্বত্র জাতীয় নিরাপত্তার সঙ্কটের দোহাই দেওয়া হচ্ছে৷

এর পাশাপাশি বিজয়া দশমীর শুভেচ্ছা জানাতে গিয়েও সনিয়া বলেছিলেন, 'সরকার পরিচালনার ক্ষেত্রে মানুষই শেষ কথা৷ একজন শাসকের জীবনে মিথ্যা, অহংকার এবং প্রতিশ্রুতি ভঙ্গের কোনও জায়গা নেই৷ এটাই বিজয়ায় সবথেকে বড় বার্তা৷' এর পাশাপাশি সনিয়া আরও বলেন, এবারের দশেরা মানুষের মধ্যে সম্প্রীতি এবং সাংস্কৃতিক মূল্যবোধ আরও মজবুত করবে৷ সনিয়া গান্ধির পাশাপাশি রাহুল গান্ধিও বিজয়া দশমীর শুভেচ্ছা জানিয়েছেন৷

এ সবেরই জবাব দিতে গিয়ে কংগ্রেসকে পাল্টা আক্রমণ করেছেন বিজেপি-র সর্বভারতীয় সভাপতি জে পি নাড্ডা৷ ট্যুইটারে তিনি লেখেন, 'দারিদ্রের সঙ্গে লড়াই করে উঠে এসে প্রধানমন্ত্রী হওয়া একজন মানুষের প্রতি একটি পরিবারের এই গভীর ব্যক্তিগত বিদ্বেষ ঐতিহাসিক৷ আরও ঐতিহাসিক হল প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির প্রতি ভারতবাসীর এই ভালবাসা৷ কংগ্রেস যত প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে ঘৃণা ছড়াবে এবং মিথ্যে বলবে, ততই নরেন্দ্র মোদির প্রতি মানুষের ভালবাসা বাড়বে৷ '

কংগ্রেসকে জোরাল আক্রমণ করে বিজেপি সভাপতি আরও বলেন, 'বিরোধীদের কীভাবে দমন করতে হয় এবং কংগ্রেসি কায়দায় তাদের মুখ বন্ধ করতে হয়, তা মহারাষ্ট্রে কংগ্রেসের আশীর্বাদ ধন্য সরকারকে দেখলেই পরিষ্কার হবে৷ কাজ করা ছাড়া বাকি সবকিছুই করছে তারা৷'

নাড্ডা অভিযোগ করেন, বাক স্বাধীনতা নিয়ে কংগ্রেসের প্রশ্ন তোলা মানায় না৷ কারণ দশকের পর দশক কংগ্রেসই বিরোধী স্বরকে চাপা দেওয়ার চেষ্টা করেছে বলে অভিযোগ তাঁর৷ বিজেপি সভাপতির অভিযোগ, জরুরি অবস্থার সময় কংগ্রেসের এই মনোভাব বোঝা গিয়েছিল৷ পরে রাজীব গান্ধি প্রধানমন্ত্রী থাকাকালীনও সংবাদমাধ্যমের স্বাধীনতা খর্ব করার চেষ্টা করেন বলে অভিযোগ তুলেছেন বিজেপি সভাপতি৷

রাহুল গান্ধির নির্দেশেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির কুশপুতুল দাহ করা হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন বিজেপি সভাপতি৷ এই ঘটনাকে লজ্জাজনক বললেও কংগ্রেসের থেকে প্রত্যাশিত বলে পাল্টা বিঁধেছেন নাড্ডা৷ কটাক্ষ করে তিনি বলেছেন, নেহরু- গান্ধিদের বংশ কখনওই প্রধানমন্ত্রীর দফতরকে সম্মান জানায়নি৷ ট্যুইটারে তিনি আরও লিখেছেন, '২০০৪ থেকে ২০১৪ পর্যন্ত প্রাতিষ্ঠানিক ভাবে প্রধানমন্ত্রীর কর্তৃত্বকে ক্ষমতাহীন করে রাখা হয়েছিল৷'

Published by: Debamoy Ghosh
First published: October 26, 2020, 2:45 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर