‘‘কষ্ট পেয়েছি, কিন্তু কি আর করার, আমরা গরিব মানুষ...,’’ জানালেন ‘অ-হিন্দু’ ডেলিভারি বয়

‘‘কষ্ট পেয়েছি, কিন্তু কি আর করার, আমরা গরিব মানুষ...,’’ জানালেন ‘অ-হিন্দু’ ডেলিভারি বয়
For Representation
  • Share this:

#জব্বলপুর: ভিনধর্মের ডেলিভারি ম্যানের থেকে খাবার নেবেন না। ফুড ডেলিভারি সংস্থার অ্যাপে অর্ডার দিয়েও তা ক্যানসেল করেন এক গ্রাহক। মধ্যপ্রদেশে জব্বলপুরের এটা কী নেহাতই বিচ্ছিন্ন ঘটনা ? নাকি অজান্তেই ঘুণ ধরছে কোনও এক কোণে ?

খাবার, গান আর খেলাধুলো - এগুলোকে কী কোনও গন্ডিতে আটকে রাখা যায় ? প্লেটে রাখা খাবার দেখে বলে দেওয়া যায় সেটা কার বানানো? জানতেই বা কেন চায় ? খাবার তো ধর্ম জানে না। কবির সুমন লিখেছিলেন,

পাকস্থলীতে ইসলাম নেই, নেইকো হিন্দুয়ানী

তাতে যাহা জল, তাহা পানী...

তাই জব্বলপুরে ভিনধর্মের ডেলিভারি বয়ের থেকে খাবার নিতে না চাওয়ার ঘটনা শুনে অবাক অধিকাংশ মানুষই। সংবাদসংস্থাকে Zomato-র সেই ‘অ-হিন্দু’ ডেলিভারি বয় জানান, ‘কষ্ট পেয়েছি, কিন্তু কি আর করার আছে। আমরা গরিব মানুষ।’

Loading...

এটা কী বিচ্ছিন্ন ঘটনা নাকি কিছুক্ষেত্রেই এমন অভিজ্ঞতার মুখেও পড়তে হয়? শহর কলকাতার ছবিটা কীরকম ? এখনই আশঙ্কার হয়তো কারণ নেই। তবে এমন প্রবণতা বিচ্ছিন্ন বলে উড়িয়ে দেওয়াটাও কী ঠিক ?

ভাবতে ইচ্ছে করে, এমন ঘটনা একবারই ঘটে। এদেশে অমরনাথের তীর্থযাত্রীদের জন্য রাস্তা সাফ করে দেন কাশ্মীরি মুসলিম। দরগায় পুজো দেন লক্ষ লক্ষ হিন্দু। এই ছবিগুলোই ফিরে ফিরে আসুক।

First published: 02:12:40 PM Aug 01, 2019
পুরো খবর পড়ুন
Loading...
अगली ख़बर