• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • ধর্মে ধর্মে বিভেদ করি না, কিন্তু অযোধ্যার মসজিদ উদ্বোধনে যাবো না, বললেন যোগী আদিত্যনাথ

ধর্মে ধর্মে বিভেদ করি না, কিন্তু অযোধ্যার মসজিদ উদ্বোধনে যাবো না, বললেন যোগী আদিত্যনাথ

File Image

File Image

তিনি বললেন ‘‌হিন্দু, সন্ন্যাসী হিসাবে আমি কখনই মসজিদের উদ্বোধনে যাবো না।’‌

  • Share this:

    #‌অযোধ্যা:‌‌ ঘটা করে রাম মন্দিরের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপিত হয়েছে অযোধ্যায়। রাজনৈতিক নেতা থেকে প্রশাসনিক প্রধান, সকলেই উপস্থিত থেকেছেন সেই ইতিহাসিক ইভেন্টে। কিন্তু সেখান থেকেই কোনও কোনও পক্ষ প্রশ্ন তুলেছে সরকারের ধর্ম নিরপেক্ষতা নিয়ে। সেই নিয়েই নিজের অবস্থান স্পষ্ট করে দিলেন উত্তর প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ। তিনি বললেন ‘‌হিন্দু, সন্ন্যাসী হিসাবে আমি কখনই মসজিদের উদ্বোধনে যাবো না।’‌ উল্লেখ্য, ২০১৯ সালে সুপ্রিম কোর্টের দেওয়া রায় অনুসারে একটি মসজিদও নির্মিত হওয়ার কথা রয়েছে।

    যেহেতু মন্দির নির্মাণে তিনি উপস্থিত হয়েছে, তাই স্বাভাবিকভাবে সাংবাদিকরা প্রশ্ন করেছেন, মসজিদ নির্মাণে তিনি উপস্থিত হবেন কি না। এবিপি নিউজকে দেওয়া একটি প্রতিক্রিয়ায় আদিত্যনাথ জানিয়েছেন, ‘‌আমি মসজিদে যেতে পারি না। কারণ আমি একজন যোগী, একজন হিন্দু। আর আমার নিজের আরাধনা করার আদর্শ নিয়ে বেঁচে থাকার অধিকার আছে।’‌ এর পাশাপাশি তিনি জানিয়েছেন, মসজিদ তৈরির কোনও কাজে তিনি অংশই তিনি। বেশ জোরের সঙ্গেই তাঁর মম্তব্য, ‘‌মসজিদ তৈরির বিষয়ে আমি কিছু জানি না। আমি যেতেও চাই না। আর আমি জানি আমাকে কেউ ডাকবেও না, কোনও আমন্ত্রণপত্র আসবে না আমার কাছে।’‌ স্বাভাবিকভাবেই যোগী আদিত্যনাথের এই মন্তব্যে সংবিধান বিরোধীতার গন্ধ পেয়েছে বিরোধী শিবির।

    উত্তরপ্রদেশের বিরোধী দল সমাজবাদী পার্টির নেতা পবন পাণ্ডে বলেছেন, যে সংবিধানের শপথ নিয়ে মুখ্যমন্ত্রী পদে বসেছেন যোগী আদিত্যনাথ, সেই সংবিধানেরই বিরোধীতা করে এখন মন্তব্য করছেন তিনি। এ অন্যায় এবং অনুচিত। অযোধ্যায় রাম মন্দিরের অনুষ্ঠানে শুধু উত্তর প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী নন, ছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিও।

    Published by:Uddalak Bhattacharya
    First published: