corona virus btn
corona virus btn
Loading

ঐতিহাসিক! এবারও বাড়ল না দাম, টানা ৬ বছর সবথেকে সস্তায় বিদ্যুৎ পাচ্ছে দিল্লি, প্রতিশ্রুতি রক্ষা আপ সরকারের

ঐতিহাসিক! এবারও বাড়ল না দাম, টানা ৬ বছর সবথেকে সস্তায় বিদ্যুৎ পাচ্ছে দিল্লি, প্রতিশ্রুতি রক্ষা আপ সরকারের

সেই প্রতিশ্রুতি রক্ষা করতেই দিল্লিবাসীদের কথা ভেবে ষষ্ঠ বছরেরও বিদ্যুতের দামে কোনও পরিবর্তন করল না কেজরিওয়ালের সরকার ৷

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: বিদ্যুতের বিলের ছেঁকায় নাজেহাল সেলেব থেকে সাধারণ মানুষ৷ মুম্বই হোক বা কলকাতা, ছবিটায় খুব একটা অমিল নেই ৷ যেখানে বিদ্যুতের লাগামছাড়া দাম বৃদ্ধিতে নাস্তানাবুদ বাকি রাজ্য, সেখানে দিল্লিবাসীদের ফের আরেকবার নিশ্চিন্ত করল অরবিন্দ কেজরিওয়ালের সরকার ৷ ক্ষমতায় এসে প্রথমেই আপ সরকার সিদ্ধান্ত নিয়েছিল কোনওভাবেই বিদ্যুতের দাম বাড়ানো হবে না ৷ অন্য রাজ্যে বিদ্যুতের দাম লাগামছাড়াভাবে বাড়লেও সস্তা হারেই  বিদ্যুত সরবরাহ করেছে সরকার ৷

ক্ষমতায় এসে দেওয়া প্রতিশ্রুতি রক্ষা করতেই দিল্লিবাসীদের কথা ভেবে ষষ্ঠ বছরেরও বিদ্যুতের দামে কোনও পরিবর্তন করল না কেজরিওয়ালের সরকার ৷ ২৮ অগাস্ট দিল্লি ইলেকট্রিসিটি রেগুলেটারি বোর্ড ঘোষণা করে করোনা মহামারীর কারণে ২০২০-২১ অর্থবর্ষেও বিদ্যুতের হারে কোনও পরিবর্তন করা হচ্ছে না ৷ গত কয়েক বছর ধরেই দেশের মধ্যে সবথেকে সস্তা দরে বিদ্যুত পরিবেষো উপভোগ করছে রাজধানী ৷ অর্থাৎ ষষ্ঠ বছরেও দাম থাকছে একই ৷

বিদ্যুতের দাম না বাড়ানোর ঘোষণার পর ট্যুইট করে মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল দিল্লিবাসীদের অভিনন্দনও জানান ৷ তিনি লেখেন, ‘একদিকে গোটা দেশে বছরের পর বছর বিদ্যুতের দাম বেড়ে চলেছে, সেখানে দিল্লি সরকার কোনও দাম বাড়ানোর অনুমতি দেয়নি ৷ উল্টে বেশ কিছু  ক্ষেত্রে বিদ্যুতের দাম কমানো হয়েছে ৷ বিষয়টি ঐতিহাসিক৷ দিল্লিবাসীদের জন্যই এমনটা সম্ভব হয়েছে ৷ রাজধানীতে এমন সৎ সরকার গড়ে তোলার জন্য দিল্লিবাসীকে অভিনন্দন ৷’

কেজরিওয়ালের নেতৃত্বে বিদ্যুত নিয়ে সত্যাগ্রহের আন্দোলন শুরু করেছিল আম আদমি পার্টি ৷ সেখান থেকেই রাজধানীর মসনদে কেজরি এবং তাঁর নেতৃত্বেই যাত্রা শুরু আপ সরকারের ৷ কোষাগারে টান পড়লেও শুরুর দিনে প্রতিশ্রুতি থেকে নড়েননি কেজরিওয়াল ৷ করোনা পরিস্থিতিতেও বিদ্যুতের নাম না বাড়ানোর সিদ্ধান্তে অটল, যা বাকি রাজ্যগুলির কাছে শেখার মতো বিষয় ৷

কোভিড পরিস্থিতিতে টানাটানির সংসারেও বিদ্যুতের দাম একই রেখে সবচেয়ে সস্তা বিদ্যুত পরিষেবার তকমা নিজের কাছেই রেখে দিল দিল্লি সরকার ৷ উপরন্তু চলতি বছরে বিধানসভার নির্বাচনের আগে ২০০ ইউনিট পর্যন্ত ফ্রি করে দেওয়ার ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিয়াল ৷ বলেন, মাসে ২০০ ইউনিটের কম বিদ্যুত ব্যবহার করলে কোনও বিল দিতে হবে না এবং যাদের বিদ্যুতের বিল ২০০ ইউনিটের বেশি কিন্তু ৪০০ ইউনিটের কম তাদের অর্ধেক বিল দিলেই চলবে ৷ এই ঘোষণার ফলে দিল্লি সরকারের ভর্তুকির বোঝা বাড়লেও প্রতি ঘরের গড়ে ৬০০ টাকা করে সাশ্রয় হয় ৷ এর আগে ২০০ পর্যন্ত ইউনিট প্রতি ৩ টাকা করে দিতে হত দিল্লিবাসীদের ৷ উল্লেখ্য, দিল্লির ৩৩ শতাংশ মানুষের বিদ্যুত বিল সাধারণত ২০০ ইউনিটের বেশি হয় না ৷ এছাড়া শীতের সময় দিল্লিতে বিদ্যুত ব্যবহারের হার ভীষণই কম থাকে ৷ বিশেষজ্ঞদের মতে, ভোচের আগে কেজরিওয়ালের এই ঘোষণায় তাঁর দ্বিতীয় টার্মে ক্ষমতায় ফেরার জন্য মাস্টার স্ট্রোক ছিল ৷

Published by: Elina Datta
First published: August 30, 2020, 3:22 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर