কাজ ফেলে থানার মধ্যেই মহিলা পুলিশকর্মীর নাচ! টিকটক ভিডিও সামনে আসতেই খোয়ালেন চাকরি

কাজ ফেলে থানার মধ্যেই মহিলা পুলিশকর্মীর নাচ! টিকটক ভিডিও সামনে আসতেই খোয়ালেন চাকরি
টিকটক ভিডিও থেকে নেওয়া ছবি

টেবিলের উপর থরে থরে ফাইল ৷ এলাকায় নাকি দাপিয়ে বেড়াচ্ছে দুষ্কৃতীরা ৷ আগেরদিনই দুই জায়গায় ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটে গিয়েছে ৷ তবে পুলিশ কর্মীরা মশগুল অন্য কাজে ৷ এমন অভিযোগ তো আকছারই ঘটে ৷ এই অভিযোগ উঠে আসে ভুরি ভুরি ৷ কিন্তু এ বার কাজকর্ম ফেলে টিকটকের ভিডিও বানাতে ব্যস্ত পুলিশকর্মী ৷

  • Share this:

#আহমেদাবাদ: টেবিলের উপর থরে থরে ফাইল ৷ এলাকায় নাকি দাপিয়ে বেড়াচ্ছে দুষ্কৃতীরা ৷ আগেরদিনই দুই জায়গায় ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটে গিয়েছে ৷ তবে পুলিশ কর্মীরা মশগুল অন্য কাজে ৷ এমন অভিযোগ তো আকছারই ঘটে ৷ এই অভিযোগ উঠে আসে ভুরি ভুরি ৷ কিন্তু এ বার কাজকর্ম ফেলে টিকটকের ভিডিও বানাতে ব্যস্ত পুলিশকর্মী ৷ আর সেই টিকটক ভিডিও সামনে আসতেই, তুমুল শোরগোল পড়ে গিয়েছে ৷

রীতিমতো ভাইরাল হয়ে গিয়েছে ওই টিকটক ভিডিও ৷ যেখানে দেখা যায়, মেহসানা জেলার লাংঘনাজের থানায় লক-আপের ঠিক সামনে দাঁড়িয়ে বিভিন্ন অঙ্গভঙ্গি করে নাচছেন অর্পিতা চৌধুরি নামের পুলিশকর্মী। তাঁর পরনে গোলাপি রঙের শার্ট। নিজের টেবিলের সামনে এসে ক্যামেরার দিকে তাকিয়ে জনপ্রিয় হিন্দি গানে নাচছেন তিনি। ১৫ সেকেন্ডের ভিডিওটি ভাইরাল হওয়ার পরই বিপাকে পড়েন অর্পিতা। গোটা বিষয়টি পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নজরে আসে। তার পরই গতকাল, বুধবার সাসপেন্ড করা হয় ওই পুলিশকর্মীকে। ঘটনাটি ঘটেছে গুজরাতের মেহসানা জেলার লাংনাজ পুলিশ স্টেশনে।

ভাইরাল হওয়া ওই ভিডিওতে দেখা গিয়েছে, থানার ভিতরে লক আপের সামনে দাঁড়িয়ে নাচছেন অর্পিতা চৌধুরি নামের ওই মহিলা পুলিশ কর্মী। ওই ভিডিওটি গত ২০ জুলাই অর্পিতা শুট করেছিলেন বলে জানিয়েছেন এক পুলিশ অফিসার। এই ঘটনা নিয়ে পুলিশের এক উচ্চপদস্থ অফিসার বলেছেন, ‘‘অর্পিতা চৌধুরি নিয়ম ভঙ্গ করেছেন। প্রথমত, অন ডিউটি থাকা সত্ত্বেও ইউনিফর্ম পরে ছিলেন না তিনি। থানার মধ্যেই নাচের ভিডিয়ো রেকর্ড করেছেন। পুলিশ কর্মীদের কিছু নিয়ম মেনে চলতে হয়। তা না মানাতেই অর্পিতাকে সাসপেন্ড করা হয়েছে।’’

First published: July 25, 2019, 2:27 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर