corona virus btn
corona virus btn
Loading

কে হবে মুখ্যমন্ত্রী? জল্পনার মাঝে হোলির রঙে রঙিন উত্তরপ্রদেশ

কে হবে মুখ্যমন্ত্রী? জল্পনার মাঝে হোলির রঙে রঙিন উত্তরপ্রদেশ

মুখ‍্যমন্ত্রীর মসনদে কে বসতে চলেছেন, তা নিয়ে জল্পনা এখন তুঙ্গে। তার আগেই হোলির রঙে রঙিন উত্তরপ্রদেশ।

  • Share this:

#লখনউ: মুখ‍্যমন্ত্রীর মসনদে কে বসতে চলেছেন, তা নিয়ে জল্পনা এখন তুঙ্গে। তার আগেই হোলির রঙে রঙিন উত্তরপ্রদেশ। বারণসী থেকে মথুরা সর্বত্রই সকাল থেকে আবির, রং খেলায় মাতোয়ারা আমজনতা। উ‍ৎসবের চেহারা বিজেপির সদরের সামনে।

সকাল থেকেই বিজেপি কর্মী-সমর্থকরা গেরুয়া রংয়ের আবির নিয়ে হোলিতে মাতেন। পাশাপাশি চলছে লাড্ডু বিতরণ। হোলির মাত্র দু’দিন আগেই উত্তরপ্রদেশে বিজেপির ঐতিহাসিক জয় এবারের হোলিকে অন‍্য মাত্রা দিয়েছে। রঙের ছোঁয়া সৌভ্রাতৃত্বের বার্তা পৌঁছে দিতে চাইছেন বিজেপি কর্মী-সমর্থকরা।

উত্তরপ্রদেশে গেরুয়া সুনামির ঢেউ পৌঁছল উত্তরাখণ্ড ও মণিপুরেও। কংগ্রেসকে উড়িয়ে দিয়ে উত্তরাখণ্ডে নিরঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠতা বিজেপির ঝুলিতে। একইসঙ্গে, শূন্য থেকে শুরু করে মণিপুরে একুশটি আসন দখল করে নিয়েছে বিজেপি। গোয়ায় কংগ্রেস-বিজেপির হাড্ডাহাড্ডি লড়াই। যদিও, বিজেপি নেতাদের দাবি, চার রাজ্যেই সরকার গড়বে বিজেপি।

২০১৪ সালে লোকসভা নির্বাচনে অমিত শাহের নেতৃত্বে উত্তরপ্রদেশে বিপুল জয় বিজেপির। তারই পুনরাবৃত্তি ঘটল উত্তরপ্রদেশ বিধানসভা নির্বাচনে। আর তার রেশ ছড়াল উত্তরাখণ্ড থেকে মণিপুরে। পদ্মকাঁটায় ফের একবার ক্ষতবিক্ষত হাত।

২০১২ সালে বিজেপির হাত থেকে উত্তরাখণ্ড ছিনিয়ে নেয় কংগ্রেস। তারপর, থেকে ওই রাজ্য দখলের চেষ্টা কম করেনি বিজেপি। জারি হয় রাষ্ট্রপতি শাসন। মামলা গড়ায় সুপ্রিম কোর্টেও। সংখ্যাগরিষ্ঠতার প্রমাণ দিয়ে হরিশ রাওয়াত ক্ষমতা ফিরে পেলেও, হার মানলেন বিধানসভা ভোটে।কংগ্রেসের হাত থেকে উত্তরাখণ্ড কেড়ে নিয়ে ম্যাচে ফিরল বিজেপি। কিচ্ছা ও হরিদ্বার গ্রামীণ, দুটি কেন্দ্র থেকে হার মানলেন বিদায়ী মুখ্যমন্ত্রী হরিশ রাওয়াত।

উত্তরাখণ্ডে গেরুয়া ঝড়

মোট আসন - ৭০

বিজেপি- ৫৬

কংগ্রেস- ১১

একই ছবি মণিপুরেও। ২০১২ সালে ৪২টি আসন নিয়ে একক সংখ্যা গরিষ্ঠতা পায় কংগ্রেস। সেবার বিজেপির ঝুলি ছিল শূন্য। উত্তর-পূর্বের ওই রাজ্যের দায়িত্ব দেওয়া হয় কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রকাশ জাভড়েকরকে। ন্যাশনাল পিপলস পার্টি, নাগা পিপলস ফ্রন্ট ও লোক জনশক্তি পার্টির মতো স্থানীয় দলগুলিকে এড়িয়ে মণিপুরে একলা চলো নীতিই নেয় বিজেপি। এবার সেখানে কংগ্রেসের ঘাড়ে নিঃশ্বাস ফেলছে গেরুয়া শিবির।

মণিপুরে সাফল্য বিজেপির

মোট আসন- ৬০

কংগ্রেস- ২৪

বিজেপি- ২১

অন্যান্য- ১১

গত বিধানসভা নির্বাচনে গোয়া দখল করে বিজেপি। পদ্মশিবিরের দখলে ছিল ২১টি আসন। এবার প্রতিষ্ঠান বিরোধী হাওয়ায় ভর করে হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ে কংগ্রেস।

গোয়ায় হাড্ডাহাড্ডি

মোট আসন- ৪০

কংগ্রেস- ১৭

বিজেপি- ১৪

এমজিপি- ৩

অন্যান্য- ৪

সেমিফাইনালের লড়াইয়ে ঝড় তুলে দিয়েছে বিজেপি। এখন পাখির চোখ ২০১৯- সালের লোকসভা নির্বাচন।

First published: March 13, 2017, 3:51 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर