Home /News /national /
পয়লা বৈশাখে অন্য মেজাজে চলল ভোটপ্রচার!

পয়লা বৈশাখে অন্য মেজাজে চলল ভোটপ্রচার!

  • Last Updated :
  • Share this:

    #কলকাতা: উদ্দেশ্য নিখাদ প্রচার। তবে কিছুটা অন্যভাবে। পয়লা বৈশাখে সকাল থেকে সৌজন্য বিনিময়, মিষ্টিমুখ করিয়ে জনসংযোগ সারলেন ভোটপ্রার্থীরা। কোথাও বাজল ডিজে। কোনও রকম বিধিনিষেধ না মেনে গঙ্গাবক্ষে দাপিয়ে বেড়ালো বিজেপি কর্মীদের ১০টি নৌকা। ছিল না প্রশাসনিক অনুমতি। ছিল না সুরক্ষার ন্যূনতম ব্যবস্থা। তার সঙ্গে কমিশনকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে তারস্বরে বাজল আসানসোলের বিজেপি প্রার্থী বাবুল সুপ্রিয় বিতর্কিত গান। চন্দননগরের রানীঘাট থেকে বিজেপি হুগলি মোর্চার সভাপতি সুবীর নাগের নেতৃত্বে বিজেপির নজিরবিহীন প্রচারের সাক্ষী থাকল চন্দননগর। যে সময় গঙ্গাবক্ষে ডিজে বাজছে। সে সময় চন্দননগর স্ট্যান্ডে সাইকেল চালিয়ে প্রচার সারলেন হুগলির বিজেপি প্রার্থী লকেট চট্টোপাধ্যায়।

    নদিয়ার চাকদহে অভিনব প্রচার যুব তৃণমূলের। ভাগিরথী নদীতে নৌকায় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের মূর্তি নিয়ে রাজ্যের সব আসনে তৃণমূল প্রার্থীদের জয়ী করার আহ্বান জানানো হয়। সবুজ রসগোল্লা দিয়ে মিষ্টিমুখ করানো হয় সকলকে। সকাল সকাল পথচলতি মানুষকে মিষ্টিমুখ করালেন বিষ্ণুপুর কেন্দ্রের তৃণমূল প্রার্থী শ্যামল সাঁতরা। বছরের প্রথম দিনে প্রার্থীর মুখে সেফ ড্রাইভ, সেভ লাইফ। বর্ধমানের সর্বমঙ্গলা মন্দিরে পুজো দিয়ে নতুন বছরে প্রচার শুরু করলেন বর্ধমান-দুর্গাপুর কেন্দ্রের তৃণমূল প্রার্থী মমতাজ সঙ্ঘমিতা।

    আরও পড়ুন ঘরে বউ, বাইরে অন্য মেয়েদের সঙ্গে ফূর্তি, রাজনৈতিক নেতাকে নিয়ে বিস্ফোরক অভিনেত্রী

    শিলিগুড়ির বাঘাযতীন পার্কে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে সামিল হলেন রাজ্যের দুই মন্ত্রী গৌতম দেব ও লক্ষ্মীরতন শুক্লা। অনুষ্ঠানের মাঝেই চলল দার্জিলিঙের তৃণমূল প্রার্থী অমর সিং রাইয়ের হয়ে প্রচার।

    প্রধান প্রতিপক্ষের মতো সকাল সকাল সর্বমঙ্গলা মন্দিরে পুজো দিয়ে প্রচার শুরু করলেন বর্ধমান-দুর্গাপুর কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থী এস এস আলুওয়ালিয়া। এ পর তাঁর গন্তব্য ছিল শহরের আরও তিন মন্দিরে।ভোটারদের হাতে গোলাপ ফুল দিয়ে প্রচার করলেন হাওড়ার বাম প্রার্থী সুমিত্র অধিকারী। ব্যাট হাতে মাঠেও নেমে পড়েন তিনি।

    First published:

    Tags: Election Campaign, Lok Sabha elections 2019, West Bengal Lok Sabha Elections 2019