corona virus btn
corona virus btn
Loading

দেশের একাধিক রাজ্য বন্যায় বিপর্যস্ত, দুই জেলায় জারি রেড অ্যালার্ট

দেশের একাধিক রাজ্য বন্যায় বিপর্যস্ত, দুই জেলায় জারি রেড অ্যালার্ট

দেবীপটনম সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে ৷ এখানে ৩৬টি গ্রাম পুরো ডুবে গিয়েছে ৷

  • Share this:

#অমরাবতী: অন্ধ্রপ্রদেশের পূর্ব ও পশ্চিম গোদাবরী জেলায় বন্যা পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়েছে ৷ একাধিক গ্রাম এখনও জলমগ্ন রয়েছে ৷ উদ্ধারকাজের জন্য SDRF তিনটি দলকে মোতায়েন করা হয়েছে ৷ দুটি টিম পশ্চিম গোদাবরী জেলায় ও একটি টিম পূর্ব গোদাবরী জেলায় পাঠানো হয়েছে ৷

পূর্ব গোদাবরী জেলায় প্রশাসন ইতিমধ্যেই প্রায় ২০০০ মানুষকে ত্রাণ শিবিরে পাঠিয়েছে ৷ এখনও পর্যন্ত বন্যায় কারোর মৃত্যু হয়নি ৷ বাড়ি ঘর ক্ষতিগ্রস্ত হয়নি বলেই জানা গিয়েছে ৷ তবে ফসলের কতটা ক্ষতি হয়েছে তা দেখা হচ্ছে ৷ দেবীপটনম সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে ৷ এখানে ৩৬টি গ্রাম পুরো ডুবে গিয়েছে ৷ প্রশাসনের তরফে জানানো হয়েছে, প্রভাবিত এলাকায় উদ্ধার কাজের জন্য ৩২টি বিশেষ টিম গঠন করা হয়েছে ৷

অসমের বন্যা পরিস্থিতি এখন অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে ৷ প্রভাবিতর সংখ্যা কমেছে ৷ রবিবার বন্যায় মোট ১১৮১২ প্রভাবিত হয়েছেন ৷ শনিবার অবশ্য এই সংখ্যা ছিল ১৩৩০০ ৷ অসমের ৩১টি গ্রাম ও ১৬৩০ হেক্টর জমি জলমগ্ন ৷

ছত্তিসগড়ে গত ২৪ ঘণ্টায় লাগাতার বৃষ্টি হওয়ার কারণে জনজীবন প্রভাবিত হয়েছে ৷ রাজ্যের দক্ষিণ দিকে বস্তর এলাকায় একাধিক গ্রামে সড়ক যোগযোগ ভেঙে গিয়েছে ৷ লাগাতার বৃষ্টির জেরে রাজ্যের সমস্ত জেলা আধিকারিক ও পুলিশ কর্তাদের সতর্ক থাকতে বলা হয়েছে ৷

মহারাষ্ট্রের দুটি জেলায় রেড অ্যালার্ট জারি করা হয়েছে ৷ মৌসম বিভাগের তরফে মহারাষ্ট্রের পুণে ও সতরা জেলায় সোমবার অতিভারী বৃষ্টি সম্ভাবনা রয়েছে বলে রেড অ্যালার্ট জারি করেছে ৷ মুম্বই, রায়গড় ও পালঘরে সোমবার থেকে অতিভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে বলে জানিয়েছেন মৌসম বিভাগের এক আধিকারিক ৷ মঙ্গলবার থেকে অবশ্য বৃষ্টি কমবে ৷ ২৪ ঘণ্টায় ন্যূনতম ২০৪.৫ মিমি বৃষ্টি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে ৷ খুব প্রয়োজন ছাড়া সকলকে বাড়িতে থাকতে বলা হয়েছে ৷ এছাড়াও একাধিক পদক্ষেপ নেওয়া হচ্ছে ৷

Published by: Dolon Chattopadhyay
First published: August 17, 2020, 8:55 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर