• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • FIRE AT CITU OFFICE IN TRIPURA TMC SUPPORTS CPIM AGAINST BJP SB

Tripura Politics: এখনও অশান্ত ত্রিপুরা, জ্বলল সিটু অফিস! BJP বিরোধিতায় আরও কাছাকাছি TMC-CPIM?

জ্বলছে ত্রিপুরা

Tripura Politics: অভিযোগ, সিপিআইএম পার্টি অফিসের পর ত্রিপুরায় সিটুর অফিসেও হামলা চালানো হয়েছে বলে অভিযোগ। হামলা করা হয়েছে দুই বাম নেতার বাড়িতেও। তৃণমূল সিপিআইএম-এর অভিযোগের তির বিজেপির দিকে।

  • Share this:
    #আগরতলা: এখনও সংঘর্ষ থামছে না ত্রিপুরায়। বিরোধীদের নিশানায় বিজেপি। গতকালই সিপিএম বিজেপি সংঘর্ষে তীব্র উত্তেজনা ছড়িয়েছিল ত্রিপুরার (Tripura) উদয়পুরে৷ আগুন লাগানো হয় একাধিক সিপিআইএম পার্টি (Cpim Tripura) অফিসে। আগুন লাগানো হয়েছিল একাধিক গাড়ি, সংবাদমাধ্যমের দফতরেও। পাল্টা সিপিআইএম পার্টি অফিস থেকে বোমাবাজির অভিযোগ করেছে বিজেপি (BJP Tripura)। কিন্তু সেখানেই সংঘর্ষ থেমে থাকছে না। অভিযোগ, সিপিআইএম পার্টি অফিসের পর সিটুর অফিসেও হামলা চালানো হয়েছে বলে অভিযোগ। হামলা করা হয়েছে দুই বাম নেতার বাড়িতেও। এ প্রসঙ্গে ত্রিপুরার প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী, বর্তমানে বিরোধী দলনেতা মানিক সরকার। তাঁর কথায়, 'কোন আক্রমণই লাল পতাকার মিছিলকে ছোট করতে পারে না, বরং তা আরো দীর্ঘ হয়। রাজ্যজুড়ে বিজেপির ভয়াবহ সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে আগরতলা সহ সব জায়গায় মানুষ আজ পথে নেমেছে। বামেরা মানুষের পাশ থেকে সরে আসবে না। মানুষ বুঝতে পারছে কাকে ক্ষমতায় এনেছে। মানুষই এর জবাব দেবে।' যদিও বিজেপি পাল্টা মানিক সরকারের বিরুদ্ধেই উসকানির অভিযোগ তুলেছে। প্রসঙ্গত, ত্রিপুরার প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী মানিক সরকার গত ৬ সেপ্টেম্বর তাঁর নির্বাচনী কেন্দ্র ধনপুরে যাওয়ার সময়ও বাধা পান। রীতিমতো হামলা চালানো হয় তাঁর কনভয়ে। গাড়ি থেকে নেমে পরিস্থিতি সামাল দেন মানিক সরকার নিজে। গতকাল অবশ্য পাল্টা সিপিএম কর্মীরা বিজেপি-র উপরে হামলা চালায় বলে অভিযোগ৷ বস্তুত বাংলা জিতে এবার ত্রিপুরা দখলের দিকে মনোনিবেশ করেছে তৃণমূল। আর তারপর থেকেই ত্রিপুরায় তৃণমূলের উপর হামলা চলছে বলে অভিযোগ উঠছে বারংবার। এমনকী তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের কনভয়েও হামলার অভিযোগ উঠেছে দিন কয়েক আগেই। তবে এবার শুধু তৃণমূল নয়, হামলার মুখে পড়তে হচ্ছে বামেদেরও, বিরোধীদের সংঘবদ্ধ অভিযোগ এমনই। গতকালের ঘটনার প্রতিবাদে এদিন আগরতলায় মিছিল করে তৃণমূলও। গতকালই সিপিআইএম-এর পাশে দাঁড়িয়ে সংহতি প্রকাশ করেছিলেন তৃণমূল নেতৃত্ব। এমনকী মানিক সরকারের সঙ্গে দেখা করেন জয়া দত্ত, আশিষ লাল সিংয়ের মতো তৃণমূল নেতারা। দুই তৃণমূল নেত্রী চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য ও সুস্মিতা দেব যান একটি সংবাদমাধ্যমের অফিসে। এদিন তা নিয়ে বিজেপিকে তীব্র আক্রমণ করেন চন্দ্রিমা। আরও পড়ুন: ফের আগুন জ্বলল ত্রিপুরায়, পুড়ছে CPM পার্টি অফিস! বামেদের পাশে তৃণমূল প্রসঙ্গত, এর আগে ত্রিপুরায় তৃণমূলের উপর হামলার ঘটনার তীব্র নিন্দা করেছিলেন মানিক সরকার। গত সোমবার তাঁরই কনভয়ের উপর হামলার অভিযোগ উঠেছিল বিজেপির বিরুদ্ধে। এই ঘটনার পর থেকেই বদলে যায় ত্রিপুরার পরিস্থিতি। ত্রিপুরার বিশালগড়ে সিপিএমের পার্টি অফিসে আগুন লাগিয়ে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ। হামলা চালানো হয়েছিল সিপিআইএমের সম্পাদক মন্ডলীর সদস্যের বাড়িতেও। শেষমেশ বিশাল পুলিশ বাহিনী গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। সেই ঘটনার পর থেকেই বামেদের পাশে দাঁড়িয়েছে তৃণমূল। যা দেখে রাজনৈতিক মহলের একাংশের মতে, বিজেপির অত্যাচারের অভিযোগ তুলে ক্রমেই কাছে আসছে দুই বিরোধী দল।
    Published by:Suman Biswas
    First published: