• হোম
  • »
  • খবর
  • »
  • দেশ
  • »
  • EXPERTS BELIEVE COVID VACCINE WILL BE READY IN NEXT FEW WEEKS FRONTLINE WORKERS AND ELDERLY TO GET IT FIRST SAYS PM MODI ED

‘আর বেশিদিন অপেক্ষা করতে হবে না, আগামী কয়েক সপ্তাহেই ভারতে ভ্যাকসিন’, ঘোষণা মোদির

‘আর বেশিদিন অপেক্ষা করতে হবে না, আগামী কয়েক সপ্তাহেই ভারতে ভ্যাকসিন’, ঘোষণা মোদির

মোদি জানান, ‘বিজ্ঞানীদের ছাড়পত্র পেলেই টিকাকরণ শুরু হয়ে যাবে ৷

মোদি জানান, ‘বিজ্ঞানীদের ছাড়পত্র পেলেই টিকাকরণ শুরু হয়ে যাবে ৷

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: করোনা থেকে মুক্তির আলো ৷ ভ্যাকসিনের জন্য অপেক্ষার অবসান হতে চলেছে আর কয়েক সপ্তাহের মধ্যেই ৷ ভারতেও নতুন বছরের শুরু দিকেই মিলবে করোনা প্রতিষেধক ৷ এমন আশার কথা শোনালেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ৷

    শুক্রবার করোনা পরিস্থিতি নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে বসা সর্বদলীয় বৈঠকে করোনা ভ্যাকসিন নিয়ে এই কথাই বলেন প্রধানমন্ত্রী ৷ ভার্চুয়াল এই বৈঠকে মোদি জানান, ‘বিজ্ঞানীদের ছাড়পত্র পেলেই টিকাকরণ শুরু হয়ে যাবে ৷ দেশে এই মুহূর্তে আটটি ভ্যাকসিন তৈরি হচ্ছে ৷ প্রতিষেধক দেওয়ায় অগ্রাধিকার পাবেন রোগী, স্বাস্থ্যকর্মীরা ৷ প্রথমে দেওয়া হবে করোনা যোদ্ধাদের ৷ এরপরই ভ্যাকসিনে অগ্রাধিকারের তালিকায় থাকবেন দেশের প্রবীণরা ৷এনিয়ে টাস্ক ফোর্স গঠন করেছে কেন্দ্র ৷’

    একইসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী জানান, ভ্যাকসিন বণ্টনে বিশেষ সফটওয়্যার ব্যবহার করবে কেন্দ্র ৷ ভ্যাকসিনের দাম নিয়ে রাজ্যগুলির সঙ্গে কথা বলবে কেন্দ্রীয় সরকার ৷ প্রতিষেধকের দাম নিয়ে কেন্দ্র ও রাজ্য একযোগে সিদ্ধান্ত নেবে ৷ এবিষয়ে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী ও রাজনৈতিক দলগুলির সঙ্গেও কথা বলবেন প্রধানমন্ত্রী বলে জানিয়েছেন ৷ ভ্যাকসিন বিতরণের প্রক্রিয়া নিয়ে পরিকল্পনা ও কাজের জন্য তৈরি ন্যাশনাল এক্সপার্ট টিমের উল্লেখ করেন প্রধানমন্ত্রী ৷ তাদের সুপারিশ অনুযায়ীই হবে কাজ ৷

    ভ্যাকসিন নিয়ে গুজবেও চিন্তিত মোদি ৷ বলেন, ‘টিকাকরণের সময় অনেক গুজব রটে ৷ টিকাকরণের সময় গুজবে কান দেবেন না ৷ মানুষকে গুজব থেকে বাঁচাতে পারে রাজনৈতিক দলই ৷ রাজনৈতিক দলগুলোর কাছ থেকে পরামর্শ চাইছি ৷’

    প্রধানমন্ত্রী মোদি বলেন, ‘ভ্যাকসিন নিয়ে গোটা বিশ্বের নজর রয়েছে ভারতের উপর ৷ এই মুহূর্তে দেশে ৮টি প্রতিষেধকের উপর দ্রুতগতিতে কাজ চলছে ৷ এর মধ্যে এগিয়ে রয়েছে তিনটি প্রতিষেধক ৷ ’ সোমবার এই প্রতিষেধকগুলির উপর কিরকম কাজ চলছে তা সশরীরে খতিয়ে দেখতে যান প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ৷ সেকথাও তিনি এদিন জানান ৷ আমেদাবাদের জাইডাস ক্যাডিলার ল্যাবে ভ্যাকসিনের কাজ কর্ম খতিয়ে দেখে প্রধানমন্ত্রী গিয়েছিলেন কোভ্যাক্সিন ভ্যাকসিনের কাজ দেখতে হায়দরাবাদের ভারত বায়োটেকের দফতরে ৷ শেষে যান পুনের সিরাম ইনস্টিটিউট ৷ এদেশে অক্সফোর্ড ও অ্যাস্ট্রাজেনেকার সঙ্গে মিলে এদেশে অক্সফোর্ডের গবেষণা দলের আবিষ্কৃত ভ্যাকসিন তৈরি করছে সিরাম ইনস্টিটিউট ৷ উল্লেখ্য, হায়দরাবাদে ভারত বায়োটেকের দফতরে তৈরি কোভ্যাক্সিনেরই তৃতীয় পর্যায়ের ট্রায়ালে অংশ নিয়েছেন কলকাতার মেয়র ফিরহাদ হাকিম ৷ ২ ডিসেম্বর ভ্যাকসিন নেন তিনি ৷

    টিকাকরণের জন্য যাবতীয় ব্যবস্থাপনা প্রায় প্রস্তুত, বিজ্ঞানীদের সবুজসংকেত পেলেই কেন্দ্র-রাজ্য সমন্বয়ে শুরু হবে বিলি-বন্টন, দেশবাসীকে জানিয়েছেন নরেন্দ্র মোদি।

    Published by:Elina Datta
    First published:

    লেটেস্ট খবর