corona virus btn
corona virus btn
Loading

কেঁপে উঠল দিল্লি, প্রবল ভূমিকম্প মিজোরাম, বাড়ি থেকে বেরিয়ে আতঙ্কে ছোটাছুটি জনসাধারণের

কেঁপে উঠল দিল্লি, প্রবল ভূমিকম্প মিজোরাম, বাড়ি থেকে বেরিয়ে আতঙ্কে ছোটাছুটি জনসাধারণের

বারাবার কেঁপে উঠছে উত্তর পূর্ব ও উত্তর ভারত, শুক্রবার ফের বড়সড় কম্পনে কাঁপল দেশ, ভয়ে কাঁপল মানুষ

  • Share this:

#আইজল: একের পর এক ভূমিকম্পে কেঁপে উঠছে দেশ । যা নিয়ে রীতিমতো আশঙ্কার মেঘ দেখা দিচ্ছে ভূ-বিজ্ঞানীদের কপালে । প্রায় প্রতিদিনই দিল্লি, লাদাখ, মিজোরাম, ত্রিপুরা , হরিয়ানার মতো একাধিক এলাকায় ভূমিকম্প হচ্ছে। এই প্রসঙ্গে মার্কিন জিওলজিক্যাল সার্ভে-র রিপোর্ট বলছে, কোনও জায়গায় ছোট ছোট একাধিক কম্পন পর পর হওয়ার অর্থ বড় ভূমিকম্প হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে । যদিও নিশ্চিত ভাবে তা যে হবেই, এমন কোনও কথা নেই ।

শুক্রবার সন্ধ্যায় কেঁপে ওঠে দিল্লি ও এনসিআর ৷ এদিকে এর আগে দুপুর ২.৩৫ এ প্রবল কম্পন অনুভব হয় মিজোরামের চম্ফাই এলাকায় ৷ আতঙ্কিত মানুষজন নিজেদের বাড়ি ছেড়ে বাইরে বেরিয়ে আসেন ৷ রিখটার স্কেলে এই ভূমিকম্পের মাত্রা ৪.৬ ৷ দুপুরে চম্ফাইয়ের আশেপাশে জোর কম্পন অনুভব করা যায় ৷ তবে এখনও অবধি ক্ষয়ক্ষতির খবর পাওয়া যায়নি ৷ ভূমিকম্পের কেন্দ্রস্থলেরও সঠিক জায়গা এখনও অবধি জানা যায়নি ৷

এর আগে বৃহস্পতিবার লাদাখে ভূমিকম্প হয়েছিল ৷ রিখটার স্কেলে তার তীব্রতা ছিল ৪.৫ ৷ ভূকম্পের কেন্দ্র ছিল কারগিলের ১১৯ কিলোমিটার দূরে উত্তরপশ্চিমে ৷ দুপুর ১টা ১১ - তে এই ভূমিকম্প হয় ৷ এর কিছুক্ষণ বাদে হিমাচল প্রদেশ, জম্মু-কাশ্মীরেও ভূমিকম্প অনুভূত হয় ৷ দুপুর ২টা ২ এ -র ভূমিকম্পের তীব্রতা ছিল ৩.৬৷

এর আগে রবিবার সকালে আন্দামান নিকোবরের পর ফের ভূমিকম্পে কাঁপে মেঘালয় । ন্যাশনাল সেন্টার ফর সেসমোলজির তথ্য অনুযায়ী, রিখটার স্কেলে ভূমিকম্পের মাত্রা ছিল ৩.৯ ম্যাগনিটিউড। পশ্চিম গাড়ো পাহাড়ের কাছে তুরা এলাকায় দুপুর ১২.২০ মিনিট নাগাদ কম্পন অনুভূত হয় । জানা গিয়েছে , মেঘালয়ের অন্যতম জনপ্রিয় তুরা শহর থেকে ৭৯ কিলোমিটার দূরে, পশ্চিমে ভূমিকম্পের উৎসস্থল ছিল। তবে এ দিনের ভূমিকম্পে কোনও ক্ষয়ক্ষতির কথা জানা যায়নি ।

প্রসঙ্গত, এ দিন সকালে আন্দামান নিকোবর দ্বীপপুঞ্জেও ভূ কম্পন অনুভূত হয় । রিখটার স্কেলে তার মাত্রা ছিল ৪.১ । শনিবার জম্মু-কাশ্মীরেও ৪.৪ মাত্রার ভূ কম্পন হয়েছিল ।

প্রসঙ্গত, গত দেড় মাসে দিল্লি ও তার সংলগ্ন অঞ্চলে ১৮ টি কম্পন অনুভূত হয়েছে , যার মধ্যে সবগুলির মাত্রাই ছিল রিখটার স্কেলে ২.৩ থেকে ৪.৫-এর মধ্যে ৷ আর এমন ধারাবাহিক একাধিক মৃদু কম্পনের জেরেই , বড়সড় কোনও ভয়ানক ভূমিকম্পের আশঙ্কা করা হচ্ছে । সেই আশঙ্কাতেই প্রহর গুনছে দেশবাসী ।

 
Published by: Debalina Datta
First published: July 3, 2020, 7:21 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर