Home /News /national /

Omicron: ওমিক্রন আবহে দেশজুড়ে চিকিৎসক বিক্ষোভ

Omicron: ওমিক্রন আবহে দেশজুড়ে চিকিৎসক বিক্ষোভ

জুনিয়র চিকিৎসকদের অভিযোগ, নিট পরীক্ষা হওয়া সত্ত্বেও কেন কাউন্সেলিং করা হচ্ছে না, কেন হাসপাতালগুলিতে নিয়োগ হচ্ছে না, তার জবাব সরকারকে দিতে হবে।

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: রেসিডেন্ট চিকিৎসকদের বিক্ষোভকে কেন্দ্র করে উত্তাল নয়াদিল্লি (New Delhi)। বিক্ষোভরত চিকিৎসকদের ওপর পুলিশের লাঠিচার্জ পরিস্থিতি আরও জটিল করে তুলেছে। সোমবার গভীর রাতে নয়াদিল্লির সরোজিনী নগর থানা ঘেরাও করে বিক্ষোভ প্রদর্শন করেন রেসিডেন্সিয়াল চিকিৎসকরা।

আরও পড়ুন: বন্ধ স্কুল, কলেজ, সিনেমা হল! ওমিক্রন আতঙ্কে কড়া বিধিনিষেধ ফিরল দিল্লিতে

ফেডারেশন অব অল ইন্ডিয়া মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়শনের (Federation of All India Medical Association) তরফে এবং অন্যান্য চিকিৎসক সংগঠন বুধবার থেকে দেশ জুড়ে কাজ বন্ধের হুঁশিয়ারি দিয়েছে। এ আই আই এম এস এর  রেসিডেন্সিয়াল চিকিৎসকদের সংগঠনও বিক্ষোভরত চিকিৎসকদের সমর্থনে এগিয়ে এসেছে। তাঁদের হুঁশিয়ারি, ২৪ ঘণ্টার মধ্যে সরকারের থেকে সন্তোষজনক উত্তর না পেলে  বুধবার থেকে জরুরী পরিষেবা ছাড়া বাকি সমস্ত পরিষেবা স্তব্ধ করে দেওয়া হবে।

আরও পড়ুন: দিল্লিতে আবাসিক চিকিৎসকের প্রতিবাদে পুলিশের লাঠি, বুধবার কর্মবিরতির ডাক দেশজুড়ে

চিকিৎসকদের অভিযোগ, প্রতিবাদ মিছিলের সময় তাঁদের উপর অন্যায় ভাবে হামলা চালিয়েছে পুলিশ। এমনকী, মহিলা চিকিৎসকদের সঙ্গে অভব্য আচরণ করা হয়েছে বলে অভিযোগ। প্রতিবাদ মিছিলে বেরোলে পুলিশের সঙ্গে রীতিমতো ধস্তাধস্তি হয় চিকিৎসকদের। যদিও পুলিশ সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করে পাল্টা দাবি করেছে, চিকিৎসকরা রাজধানীর গুরুত্বপূর্ণ আইটিও রোড ৬-৮ ঘণ্টা বন্ধ করে রেখেছিলেন। বার বার সরে যাওয়ার অনুরোধ করার পরেও তাঁরা সরেননি। বরং আরও চিকিৎসক জড়ো হয়ে যান চলাচল একেবারে স্তব্ধ করে দেন। চিকিৎসকদের রাস্তা থেকে সরিয়ে দিতেই তাঁরা পুলিশের উপর হামলা চালান বলে পাল্টা অভিযোগ করেছে দিল্লি পুলিশ। এমনকি পুলিশকর্মীদের পোশাক ছিঁড়ে দেওয়া, গাড়িতে ভাঙচুরের মতো ঘটনাও ঘটান চিকিৎসকরা, দাবি পুলিশের।

চিকিৎসকদের প্রতিবাদ, ধর্নার জেরে রাজধানীর চিকিৎসা পরিষেবায় ব্যাপক প্রভাব পড়েছে। বিশেষ করে তিনটি বড় সরকারি হাসপাতালে। জুনিয়র চিকিৎসকদের অভিযোগ, নিট পরীক্ষা হওয়া সত্ত্বেও কেন কাউন্সেলিং করা হচ্ছে না, কেন হাসপাতালগুলিতে নিয়োগ হচ্ছে না, তার জবাব সরকারকে দিতে হবে। তাঁদের আরও অভিযোগ, হাসপাতালে চিকিৎসকের অভাব। কম চিকিৎসক থাকার ফলে বাকি চিকিৎসকদের কাজের চাপ আরও বেড়ে গিয়েছে।

RAJIB CHAKRABORTY

Published by:Rukmini Mazumder
First published:

Tags: Omicron

পরবর্তী খবর