• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • সংক্রমণের ভয়ে ড্রাইভার উধাও, করোনায় মৃতের দেহ নিজেই ট্র্যাক্টর চালিয়ে শ্মশানে নিয়ে গেলেন ডাক্তার

সংক্রমণের ভয়ে ড্রাইভার উধাও, করোনায় মৃতের দেহ নিজেই ট্র্যাক্টর চালিয়ে শ্মশানে নিয়ে গেলেন ডাক্তার

করোনায় মৃত দেহ নিজে ট্র্যাক্টর চালিয়ে শ্মশানে নিয়ে যাচ্ছেন ডাক্তার

করোনায় মৃত দেহ নিজে ট্র্যাক্টর চালিয়ে শ্মশানে নিয়ে যাচ্ছেন ডাক্তার

মিউনিসিপ্যালিটির ট্র্যাক্টর নিয়ে আসা হয় দেহ শ্মশানে নিয়ে যাওয়ার জন্য৷ কিন্তু ট্র্যাক্টর চালক জানিয়ে দেন, তিনি দেহ নিয়ে যাবেন না৷ করোনা সংক্রমণ হতে পারে৷

  • Share this:

    #হায়দরাবাদ: করোনা রোগীর চিকিত্‍সা করছেন যাঁরা, সেই ডাক্তারদেরই হেনস্থার খবর এসেছে বারবার৷ করোনা-যোদ্ধারাই যে এই অতিমারির সময়ে আসল হিরো, তা আবারও প্রমাণ করলেন তেলঙ্গানার পেডাপল্লির এক ডাক্তার৷ করোনায় মৃত ব্যক্তির দেহ কেউ ছুঁতে চাইছিল না৷ নিজে ড্রাইভ করে দেহ শ্মশানে নিয়ে গেলেন ডাক্তার৷ ৪৫ বছরের ওই সরকারি চিকিত্‍সককে কুর্নিশ জানাচ্ছে দেশ৷

    ৪৫ বছর বয়সি ওই ডাক্তার করোনা মোকাবিলায় জেলা সার্ভেইল্যান্স অফিসার পদে রয়েছেন৷ নাম পি শ্রীরাম৷ রবিবার এক ব্যক্তির করোনায় মৃত্যু হয় স্থানীয় সরকারি হাসপাতালে৷ মিউনিসিপ্যালিটির ট্র্যাক্টর নিয়ে আসা হয় দেহ শ্মশানে নিয়ে যাওয়ার জন্য৷ কিন্তু ট্র্যাক্টর চালক জানিয়ে দেন, তিনি দেহ নিয়ে যাবেন না৷ করোনা সংক্রমণ হতে পারে৷

    তখন স্টেথো ছেড়ে চিকিত্‍সক শ্রীরাম এগিয়ে আসেন৷ পিপিই কিট পরে তিনি জানান, তিনি ট্র্যাক্টর চালিয়ে দেহ শ্মশান পর্যন্ত নিয়ে যাবেন৷ ওই চিকিত্‍সক News18-কে বলেন, 'এই জেলা হাসপাতালে এই প্রথম করোনা রোগীর মৃত্যু হল৷ মানুষ ভয়ে আছেন৷ আমাদের কর্মী ও পুরসভার কর্মীরা আমায় সাহায্য করলেন৷ কিন্তু ড্রাইভার পালিয়ে গেলেন৷ তাই আমিই ট্র্যাক্টর চালিয়ে নিলাম৷'

    ড্রাইভার যখন জানিয়ে দেন, তিনি দেহ নিয়ে যাবেন না, তখন মৃত ব্যক্তির পরিবারও বেজায় বিপদে পড়ে৷ তেলঙ্গানার অর্থমন্ত্রী হরিশ থান্নেরুর কথায়, 'ডাক্তার শ্রীরাম আমাদের সকলের আদর্শ৷ আপনি প্রমাণ করলেন, মানবতা এখনও বেঁচে আছে৷ সব করোনা যোদ্ধাদের কাছেও আপনি আদর্শ৷'

    Published by:Arindam Gupta
    First published: