• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • DIVORCED ON WHATSAPP AMU PROFESSOR GIVES TRIPLE TALAQ TO WIFE OVER TEXT

সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ ভেঙে হোয়াটসঅ্যাপে স্ত্রীকে তালাক দিলেন অধ্যাপক

তিন বছর আগে বিয়ে হয়েছিল ওই মহিলার। দুই সন্তানও রয়েছে তাঁর । ওষুধ কেনার জন্য স্বামীর কাছে ৩০ টাকা চাইলে তাঁকে সঙ্গে সঙ্গেই তিন তালাক দিয়েছেন । মহিলার অভিযোগ দুই সন্তানের সঙ্গেও তাঁকে দেখা করতে দেওয়া হচ্ছেনা ।

সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ ভেঙে হোয়াটসঅ্যাপে স্ত্রীকে তালাক দিলেন অধ্যাপক

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: সর্বোচ্চ আদালতের রায়ে নিষিদ্ধ তিন-তালাক। হোয়াটসঅ্যাপ বা এমএসএসে তালাক বৈধ নয় বলে মেনে নিয়েছে অল ইন্ডিয়া মুসলিম পার্সোনাল ল বোর্ডও। তারপরও স্ত্রীকে হোয়াটস অ্যাপ ও এসএমএসে তালাক দিলেন আলিগড় মুসলিম বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক। সুবিচার না পেলে বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাসেই আত্মহত্যার হুমকি বিবাহ বিচ্ছিন্না ইয়াসিন খানের। পারিবারিক ঘটনা বলে দায় এড়াচ্ছে পুলিশ।

    স্ত্রীকে তালাক দিলেন আলিগড় মুসলিম বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক। প্রথমে হোয়াটস অ্যাপ ও পরে এসএমএসে এল তালাকের বার্তা।

    আলিগড় মুসলিম বিশ্ববিদ্যালয়ে সংস্কৃত ও ভারত-তত্ত্বের প্রধান খালিদ বিন ইউসুফ । সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ সত্ত্বেও কীভাবে হোয়াটস অ্যাপ ও এসএমএসে স্ত্রীকে তালাক দিলেন অধ্যাপক ইউসুফ? শরিয়তের দোহাই দিচ্ছেন অধ্যাপক।

    স্বামীর দেওয়া তালাক স্বীকারে নারাজ স্ত্রী ইয়াসমিন খালিদ। স্বামী সিদ্ধান্ত বদল না করলে সন্তানদের নিয়ে আত্মহত্যার হুমকি তাঁর। বিশ্ববিদ্যালয়ে বারবার অভিযোগ করেও সাহায্য পাননি বলে অভিযোগ। অধ্যাপক বাবার বিরুদ্ধে সরব মেয়েও।

    তিন-তালাক সংবিধান বিরোধী । গত অাগস্টে তিন-তালাকের বৈধতা মামলায় নির্দেশ দেয় সুপ্রিম কোর্ট । সংবিধানিক বেঞ্চে সংখ্যাগরিষ্ঠ মতামতের ভিত্তিতেই নিষিদ্ধ হয় তিন-তালাক।

    সভ্য সমাজে তিন-তালাকের মতো পাপ থাকতে পারে না। বহু বছর ধরে চলে আসছে বলেই তা বৈধ হয়ে যায় না। এতদিন যে ভুল হয়েছে এবার তা শোধরাতে হবে। ভারতে তিন-তালাক নিষিদ্ধ হল।
    -- বিচারপতি রোহিনটন নরিম্যান

    শীর্ষ আদালতে শুনানি চলার সময় অল ইন্ডিয়া মুসলিম পার্সোনাল ল বোর্ডও জানায়, হোয়াটস অ্যাপ ও এসএমএসে তালাক শরিয়ত বিরোধী। তারপরও বিভিন্ন প্রান্ত থেকেই আগের মতোই তিন তালাক দেওয়ার অভিযোগ উঠছে। শ্রমিক থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক সু্প্রিম কোর্টের নির্দেশ ভঙ্গের শরিক সব্বাই।

    First published: