Home /News /national /
সে কী! আস্ত স্কুল বদলে হল প্যাসেঞ্জার ট্রেন! আজব ঘটনা চাক্ষুষ করতে লোকারণ্য ধানবাদ!

সে কী! আস্ত স্কুল বদলে হল প্যাসেঞ্জার ট্রেন! আজব ঘটনা চাক্ষুষ করতে লোকারণ্য ধানবাদ!

আস্ত স্কুল বদলে গিয়েছে প্যাসেঞ্জার ট্রেনে। এ কীভাবে সম্ভব! কেনই বা এমনটা হল! এমনই নানা প্রশ্নই ঘুরপাক খাচ্ছে ধানবাদের অন্দরে।

  • Share this:

    #ধানবাদ: আস্ত স্কুল বদলে গিয়েছে প্যাসেঞ্জার ট্রেনে। এ কীভাবে সম্ভব! কেনই বা এমনটা হল! এমনই নানা প্রশ্নই ঘুরপাক খাচ্ছে ধানবাদের অন্দরে। তবে প্রশ্ন যাই থাকুক না কেন, ধানবাদবাসীর কাছে এই প্যাসেঞ্জার ট্রেন এখন অন্যতম এক দর্শনীয় স্থান হয়ে দাঁড়িয়েছে।

    করোনা সংক্রমণের জেরে মার্চ মাস থেকে বন্ধ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। ফলে পড়ুয়াদের মধ্যে পড়াশুনা বা স্কুলে যাওয়ার আগ্রহ কমেছে এ কথা আর বলার অপেক্ষা রাখ না। তাই পড়ুয়াদের স্কুলমুখী করতে অভিনব ভাবনা আসে স্কুল কর্তৃপক্ষের। এই ভাবনার নেপথ্যের কারণ হিসেবে স্কুল কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, ট্রেন যেভাবে একজন যাত্রীকে তাঁদের নিজেদের গন্তব্যে পৌঁছে দেয়। স্কুলও ঠিক সেভাবেই একজন পড়ুয়াকে তাঁর ভবিষ্যৎ সুনিশ্চিত করতে সাহায্য করে। তাই স্কুল বাড়িকে ট্রেনের আদলে সাজান হয়েছে। ধানবাদের বাঘমারা ব্লকের এই পেয়াথমিক বিদ্যালয়ের এই কর্মকাণ্ডের পিছনে মূল উদ্যেশ্য পড়ুয়াদের আরও বেশী করে স্কুলমুখী করে তোলা।

    সম্প্রতি কেন্দ্রীয় সরকারের পক্ষ থেকে প্রতি রাজ্যকে করোনা পরিস্থিতি বিবেচনা করে স্কুল এবং কলেজ খোলার বিষয়ে আলোচনার জন্য জানান হয়। সেই মতোই বিভিন্ন রাজ্যে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার বিষয়ে আলোচনা শুরু হয়েছে। আলোচনা শুরু করে ধানবাদের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলিও। সেখানে সিদ্ধান্ত হয় ৩০ শতাংশ শিক্ষক-শিক্ষিকাদের নিয়ে স্কুল শুরু করা হবে সমস্ত ধরনের করোনা বিধি মেনে। সেভাবেই তৈরি হচ্ছে পাঠ্যক্রম। এ দিকে প্রাথমিক স্কুল খোলার বিষয়ে যদিও এখনও কোনও সিদ্ধান্ত হয়নি।

    কীভাবে স্কুলকে ট্রেনের কামরায় রূপান্তরিত করা হল? স্কুল কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে,  প্রাথমিকের পড়িয়ারা এমনিতেই ছোট। এতদিন স্কুল ছুটি থাকায় তাদের অভ্যাসে পরিবর্তন হয়েছে। তাই পড়ুয়াদের স্কুলমুখী করতেই এই উদ্যোগ।

    Published by:Shubhagata Dey
    First published:

    Tags: Dhanbad

    পরবর্তী খবর