Home /News /national /
কেন্দ্রের নয়া ফরমান, ৫০০০ টাকার বেশি নগদ জমা দেওয়া যাবে না অ্যাকাউন্টে

কেন্দ্রের নয়া ফরমান, ৫০০০ টাকার বেশি নগদ জমা দেওয়া যাবে না অ্যাকাউন্টে

  • Pradesh18
  • Last Updated :
  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: ব্যাঙ্কে গিয়ে পুরনো নোট বদলের সময় সীমা শেষ হতে বাকি আর ১১ দিন ৷ এর মধ্যে আবারও নোট বদল নিয়ে নয়া নিয়ম জারি করল কেন্দ্র ৷ এবার নগদ জমায় উর্ধ্বসীমা জারি করল অর্থমন্ত্রক ৷

    এবার ব্যাঙ্কে নিজের অ্যাকাউন্টে পাঁচ হাজার টাকার বেশি নগদ জমা দেওয়া যাবে মাত্র একবার ৷ ৩০ ডিসেম্বর পর্যন্ত এই নির্দেশ বলবৎ রাখার কথা জানিয়েছে অর্থমন্ত্রক ৷  অর্থাৎ এরপর থেকে পুরনো বাতিল ৫০০ ও ১০০০ টাকার নোট ব্যাঙ্কে জমা দিতে গেলে মাত্র একবারই ৫০০০ টাকার বেশি নোট জমা দেওয়া যাবে ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে ৷ তবে ৫০০০ টাকার কম নগদ টাকা জমা নিয়ে কোনও নির্দিষ্ট নির্দেশ দেয়নি অর্থমন্ত্রক ৷

    নোট বদলের শেষ দিন অবধি এই নির্দেশই বহাল থাকবে ৷ এতদিন ব্যাঙ্ক থেকে ক্যাশ টাকা তোলার ক্ষেত্রে উর্ধ্বসীমা থাকলেও নগদ জমা দেওয়ার ক্ষেত্রে কোনও নির্দিষ্ট উর্ধ্বসীমা ছিল না ৷ কালো টাকার লেনদেন নিয়ন্ত্রণ করতে কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রকের এই সিদ্ধান্ত বলে মনে করা হচ্ছে ৷

    তবে একমাত্র নয়া নিয়মের আওতার বাইরে প্রধানমন্ত্রী গরিব কল্যান যোজনা ৷ এই প্রকল্পের নগদ জমা বা তোলায় কোনও উর্ধ্বসীমা আরোপ করেনি কেন্দ্র ৷

    কালো টাকা সাফ হয়ে যাবে, এমনটা কখনই আশা করা হয়নি। শুধু আশা ছিল, দেশে থাকা নগদ টাকার অন্তত ৮০ শতাংশ নষ্ট করে ফেলতে বাধ্য হবে কালো টাকার মালিকরা। ৫০০ ও ১০০০ টাকার থাকা কালো টাকা থেকে মুক্তি মিলবে। ৩০ দিন পর কেন্দ্রের সেই স্বপ্ন আছড়ে বাস্তবের মাটিতে। কেন্দ্রের ঘোষণার ফাঁক গলে কয়েক লক্ষ কোটির কালো টাকা সাদা হয়ে গিয়েছে।

    গত ৩০ দিনে দেশের ব্যাঙ্কগুলিতে জমা পড়েছে সাড়ে ১১ লক্ষ কোটি টাকা। যা গড়পরতা জমার তুলনায় ২৬০০ গুণ বেশি। এর মধ্যে ৮০ শতাংশ টাকাই জমা হয় ১০০০ ও ৫০০ এর নোটে। এত বিপুল টাকা জমা পড়াতেই কেন্দ্রের সব পরিকল্পনা ঘেঁটে একশেষ। কালো টাকার বড় অংশ যে ঘুরিয়ে ব্যাঙ্কেই জমা পড়েছে, তা কার্যত মানতে বাধ্য হচ্ছে কেন্দ্র। মোদি প্রশাসনের পরিকল্পনা ছিল,

    সাড়ে ৩ লক্ষ কোটির বেশি ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে জমা পড়বে না ৷ বাস্তবে, ৩০ ডিসেম্বর পর্যন্ত তা ১৩ লক্ষ কোটি ছাড়িয়ে যেতে চলেছে ৷

    First published:

    Tags: Arun Jaitley, Cash crunch, Cash Deposit, Cash Deposit Limit, Demonetisation, Finance Minister, PM Narendra Modi

    পরবর্তী খবর