দিল্লি বিস্ফোরণে ইরান যোগ? উদ্ধার রহস্যজনক চিঠি, বদলা নেওয়ার হুঁশিয়ারি

দিল্লি বিস্ফোরণে ইরান যোগ? উদ্ধার রহস্যজনক চিঠি, বদলা নেওয়ার হুঁশিয়ারি
দিল্লির বিস্ফোরণস্থল{

  • Share this:

    #দিল্লি: দিল্লিতে ইজরায়েলি দূতাবাসের অদূরে আইইডি বিস্ফোরণের ঘটনার তদন্তে উঠে এল চাঞ্চল্যকর জোড়া তথ্য৷ ঘটনাস্থল থেকেই খামবন্দি একটি চিঠি উদ্ধার করেছেন তদন্তকারীরা৷ ওই খামের মধ্যে ইজায়েরল দূতাবাসের উদ্দেশে লেখা একটি চিঠি ছিল৷ যদিও চিঠিতে কী লেখা ছিল, না নিয়ে মুখ খোলেননি তদন্তকারীরা৷ যদিও পুলিশ সূত্রে এই বিস্ফোরণের পিছনে ইরান যোগের কথা উঠে আসছে৷ জানা গিয়েছে, ইজারায়েলি দূতাবাসকেই যে টার্গেট করেছিল আততায়ীরা, চিঠির বয়ান থেকে তা স্পষ্ট হয়েছে৷ শুধু তাই নয়, এই বিস্ফোরণকে ট্রেলার হিসেবেও চিঠিতে উল্লেখ করা হয়েছে৷ ইরানের সেনাকর্তা এবং পরমাণু বিজ্ঞানীর হত্যার জন্যও চিঠিতে ইজরায়েলকেই দায়ী করা হয়েছে৷

    এর পাশাপাশি অভিযুক্তদের চিহ্নিত করতে একটি সিসিটিভি ফুটেজও পুলিশের হাতে এসেছে৷ তাতে দেখা গিয়েছে, একটি ট্যাক্সি করে ইজরায়েল দূতাবাসের কাছে ওই রাস্তায় নামে দুই ব্যক্তি৷ তারাই হেঁটে এসে ফুটপাথের উপরে একটি ফুলের টবের মধ্যে আইইডি বিস্ফোরক রেখে চলে যায়৷ কোন দুই ব্যক্তি বিস্ফোরক রেখে গিয়েছিল, সিসিটিভি ফুটেজ দেখে তাদের নাগালে পেতে দিল্লি জুড়ে জোর তল্লাশি শুরু হয়েছে৷ সন্দেহভাজন হিসেবে দু' জনকে আটকও করা হয়েছে৷ পাশাপাশি ওই ট্যাক্সিটিকে চিহ্নিত করে সেটির চালককে জিজ্ঞাসাবাদ করে সন্দেহভাজনদের স্কেচও আঁকানো হচ্ছে৷

    আপাতত দিল্লি পুলিশের স্পেশাল সেল এই ঘটনার তদন্ত করছে৷ শুক্রবার বিকেলে লুটিয়েন দিল্লিতে ইজরায়েলি দূতাবাসের অদূরে জিন্দল হাউসের সামনে এই বিস্ফোরণ ঘটে৷ কড়া নিরাপত্তায় ঘেরা এলাকায় এই বিস্ফোরণে পুলিশি গাফিলতির অভিযোগ উঠছে৷


    শুক্রবারের এই বিস্ফোরণ খুবই স্বল্প মাত্রার ছিল৷ তিনটি গাড়ির কাচ ভাঙা ছাড়া সেভাবে কোনও ক্ষয়ক্ষতিই হয়নি৷ কিন্তু যে এলাকায় এই বিস্ফোরণ ঘটেছে, সেটাই কেন্দ্রীয় সরকারের উদ্বেগ বাড়িয়েছে৷ ঘটনার রিপোর্ট দেওয়া হয়েছে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকে৷ শুক্রবার রাতেই গোয়েন্দা প্রধানদের সঙ্গে এ বিষয়ে জরুরি বৈঠক করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী৷ ঘটনার গুরুত্ব বিচার করে পশ্চিমবঙ্গ সফরও বাতিল করে দিয়েছেন অমিত শাহ৷

    পুলিশ জানিয়েছে, শুক্রবার বিকেল ৫.০৫ মিনিটে এই বিস্ফোরণ ঘটে৷ ঠিক সেই সময় বিস্ফোরণস্থল থেকে কয়েক কিলোমিটার দূরে বিটিং রিট্রিটের অনুষ্ঠান চলছিল৷ সেখানে রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ, উপরাষ্ট্রপতি বেঙ্কাইয়া নাইডু এবং প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি উপস্থিত ছিলেন৷

    Published by:Debamoy Ghosh
    First published: